Samsung IM Campaign_Oct’20

অ্যামাজনের হেডকোয়ার্টার পেতে শহর মেয়রদের প্রতিদ্বন্দ্বিতা

amazon-techshohor
Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : যুক্তরাষ্ট্রের সিয়াটেলভিত্তিক ই-কমার্স সাইট অ্যামাজন উত্তর আমেরিকায় তাদের আরেকটি হেডকোয়ার্টার স্থাপনের ঘোষণা দিয়েছে। হেডকোয়ার্টার স্থাপনের জন্য বড় বড় শহর ও আর্থিক উন্নয়ন সংস্থাগুলোকে প্রস্তাবনা জমা দিতে বলা হয়েছে।

এর মধ্যে অ্যামাজনের নতুন হেডকোয়ার্টার পাওয়ার ক্ষেত্রে এগিয়ে আছে কানাডার অন্টারিও প্রদেশের রাজধানী টরন্টো। শহরটির মেয়র জন টরি বলেছেন, শহরটিতে অনেক প্রযুক্তিবিদের বসবাস। একারণেই হেডকোয়ার্টার পাওয়া দৌঁড়ে তারাই প্রধান প্রার্থী।

শিকাগোর মেয়র র‍্যাম ইমানুয়েল অবশ্য এতো তাড়াতাড়ি হাল ছাড়ছেন না। হেডকোয়ার্টারটি নিজের শহরে স্থাপন করাতে তিনি বেশ কয়েক বারই অ্যামাজনের প্রধান নির্বাহীর সঙ্গে বৈঠক করেছেন।

পেনসিলভানিয়া প্রদেশের পিটসবার্গও পিছিয়ে নেই। অন্যান্য শহরের সঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে কৌশলগত আলোচনা ও পরিকল্পনা গ্রহণের তারিখও নির্ধারণ করে রেখেছে।

অ্যামাজনের জন্য তারাই শক্তিশালী প্রার্থী কারণ শহরটি ইতোমধ্যেই স্বয়ংক্রিয় গাড়ি ও রোবোটিক্সের পরীক্ষা নিরীক্ষার প্রধান ক্ষেত্র হিসেবে পরিচিতি পেয়েছে।

বড় বড় এই তিনটি শহরের মেয়ররা বাদেও বাল্টিমোর, বোস্টন, কলম্বাস, ডেট্রয়েট, ফিলাডেলফিয়া, ফিনিক্স, ভ্যাঙ্কুভার ও ওয়াশিংটন ডি.সি. কর্তৃপক্ষ নিজ শহরে হেডকোয়ার্টারটি পেতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে।

হেডকোয়ার্টারটি নির্মাণে খরচ পড়বে পাঁচশ’ কোটি টাকা। এতে কর্মসংস্থান হবে ৫০ হাজার  লোকের।

সিএনএন অবলম্বনে আনিকা জীনাত

*

*