ভারত ছাড়ল টেলিনর

Telenor & Airtel-TechShohor

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : অনেক দিন হতে ভারত ছেড়ে যেতে চেষ্টা-তদবির করছিল বিশ্বের অন্যতম টেলিকম সেবা কোম্পানি টেলিনর। শেষ পর্যন্ত সফল হল তারা।

ভারতের অন্যতম অপারেটর এয়ারটেলের কাছে দেশটিতে তাদের ব্যবসা বিক্রি করে দিয়ে আপাতত ভারত থেকে নিজেদেরকে প্রত্যাহার করে নিল টেলিনর।

বাংলাদেশের ব্যবসা সফল অপারেটর গ্রামীণফোনের ৫৪ দশমিক ৮ শতাংশের মালিকানা রয়েছে নরওয়ের কোম্পানি টেলিনরের। আর এয়ারটেল ভারতের সবচেয়ে ব্যবসা সফল। সেখানে তাদের মার্কেট শেয়ার ৩৩ শতাংশ।

টেলিনর ইন্ডিয়ার সব শেয়ার এয়ারটেল কিনে নেওয়ায় তাদের সব স্পেকট্রাম এবং গ্রাহক পেয়ে যাচ্ছে তারা। তাতে এক লাফে তাদের গ্রাহক সংখ্যা ২৬ কোটি ৯০ লাখ থেকে ৩১ কোটি ৩০ লাখে চলে যাবে।

তবে টেলিনরের সেবা আগের মতোই চলবে যতদিন না পর্যন্ত স্পেকট্রামসহ অন্যান্য সব বিষয় এক হওয়ার কাজ শেষ না হবে। আর এ জন্য ১২ মাসের মতো সময় লাগবে। তবে এয়ারটেলের শেয়ার কেনার বিষয়টি জানুয়ারি ২০১৭ থেকে কার্যকর থাকবে।

Telenor & Airtel-TechShohor

টেলিনরের একটি সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব বিষয় জানানো হয়েছে।

দুই অপারেটরের একীভূত হয়ে যাওয়া বা পুরো শেয়ার কিনে নিয়ে একাধিক অপারেটরকে একটি অপারেটর করে ফেলা সাম্প্রতিক সময়ে টেলিকম বিশ্বের সাধারণ ঘটনায় পরিণত হয়েছে।

বাংলাদেশে এয়ারটেল রবির সঙ্গে একীভূত হয়েছে। রবির মূল কোম্পানি আজিয়াটাও নেপালের একটি কোম্পানির শেয়ার কিনে নিয়েছে। মূলত ব্যবসাকে আর্থিকভাবে লাভবান করতেই অপারেটররা অপারেটিং খরচ কমিয়ে ফেলতেই একের পর এক একীভূতিকরণের দিকে যাচ্ছে।

২০০৮ সালে ভারতের বাজারে প্রবেশ করে এশিয়ায় ব্যবসা সফল টেলিনর। ১৯৯৭ সালে বাংলাদেশের বাজার দিয়ে এশিয়ায় প্রবেশ করে তারা। এরপর একের পর এক মালয়েশিয়া, থাইল্যান্ড, পাকিস্তান, ভারত এবং সর্বশেষ মিয়ানমারে অপারেশন শুরু করে অপারেটরটি।

জামান আশরাফ

*

*

আরও পড়ুন