ইমো, ভাইবার, হোয়াটসঅ্যাপ বন্ধের কথা বিটিআরসিও বলেনি

btrc_techshohor
Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : দেশে হোয়াটসঅ্যাপ, ভাইবার, ইমো বন্ধ করে দেওয়া হবে এমন খবর গণমাধ্যমে প্রকাশ হবার পর ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম একটি বিজ্ঞপ্তি দিয়ে সেগুলো কোনোভাবেই বন্ধ করা হবে না বলে জানিয়েছেন। এবার নিয়ন্ত্রণ সংস্থা বিটিআরসি তাৎক্ষণিক মেসেজ ও ভিডিও কলের এসব অ্যাপ বন্ধের বিষয়ে নিজেদের অবস্থান তুলে ধরে বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে।

বিটিআরসি বলছে, এসব অ্যাপস ও কোনো ধরনের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম বন্ধের কোনো পরিকল্পনা তাদের নেই এবং এমন কোনো কথাও বিটিআরসি বলেনি।

btrc_techshohor
বিজ্ঞপ্তিতে বিটিআরসি বলেছে, দেশে ইমো, ভাইবার, মেসেঞ্জার, হোয়াটসঅ্যাপ, স্কাইপের মতো কোনো সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম বন্ধ বা নিয়ন্ত্রণের কোনো পরিকল্পনা নেই বিটিআরসির। এছাড়াও বিটিআরসির উপর সরকারের এই সকল ‘ওভার দ্যা টপ’ বা ওটিটি বন্ধের কোনো প্রকার নির্দেশনাও নেই।

কিছু কিছু গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এই ব্যাপারে বিভ্রান্তিমূলক প্রচারণা হচ্ছে যে, বিটিআরসি নাকি এই ধরনের অ্যাপস বন্ধের চিন্তাভাবনা করছে যা আদৌ সত্য নয় বলে বলছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

গত ২৫ নভেম্বর বিটিআরসি একটি সংবাদ সম্মেলন করে। সেখানে সংস্থাটির চেয়ারম্যান বৈধ পথে আন্তর্জাতিক কলের ডাইভার্টের ক্ষেত্রে এসব অ্যাপসের ভূমিকা এবং বিভিন্ন দেশে এসব ব্যবহারে বিভিন্ন দেশে চর্চা ও নীতি প্রচলিত তা দেখে ও পরীক্ষা নিরীক্ষা করে দেশে একটি নীতিমালা প্রণয়ন করার কথা জানান। সেদিন ভয়েস কলের ক্ষেত্রে এসব অ্যাপস বন্ধের ব্যাপারে কোনো প্রশ্ন উত্থাপিত হয়নি বলেও বিজ্ঞপ্তিতে দাবি করেছে সংস্থাটি।

তাই এমন কোনো অ্যাপস বা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম বন্ধের কোনো ধরনেই কোনো চিন্তাই নেই বলে জানায় বিটিআরসি। একই সঙ্গে বিটিআরসি ভবিষ্যতেও জনগণের স্বার্থের কথা মাথায় রেখেই কাজ করবে বলে জানিয়েছে।

ইমরান হোসেন মিলন

*

*

আরও পড়ুন