Techno Header Top and Before feature image

ফেইসবুক স্ট্যাটাস : রাবি শিক্ষকের বিরুদ্ধে আইসিটি আইনে মামলা

kazi zahid-ict-techshohor

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : ফেইসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে মামলা খেয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষক কাজী জাহিদুর রহমান।

বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের ভাষ্য, ফেইসবুক আইডির মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকাণ্ড নিয়ে বিভ্রান্তিকর তথ্য ছড়িয়েছেন ওই শিক্ষক।

আর অভিযোগ বিষয়ে কাজী জাহিদুর রহমান বলছেন, শিক্ষক হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাল-মন্দ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কথা বলার অধিকার তাঁর আছে।

ইন্টারনেট মাধ্যমে বিভ্রান্তিকর তথ্য ছড়ানোর অভিযোগে রোববার রাতে তথ্যপ্রযুক্তি আইনে মামলাটি নথিবদ্ধ করেছে রাজশাহীর মতিহার থানা পুলিশ। মতিহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হুমায়ুন কবির সোমবার বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে মামলা নেওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

kazi zahid-ict-techshohor

এর আগে গত ৮ নভেম্বর নগরীরর মতিহার থানায় রাবি প্রশাসনের পক্ষে কোষাধ্যক্ষ মো. এন্তাজুল হক ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করেন। কিন্তু রোববার পর্যন্ত অভিযোগটি মামলা হিসেবে নথিবদ্ধ করেনি মতিহার থানা পুলিশ।

সিএসই বিভোগের সহকারী অধ্যাপক কাজী জাহিদুর রহমান তাঁর ‘কাজী জাহিদ’ নামের ফেইসবুক আইডি হতে বিভিন্ন  সময় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের বিরুদ্ধে বিভ্রান্তিকর তথ্য দিয়েছেন বলে অভিযোগ প্রশাসনের।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক চৌধুরী সারওয়ার জাহান টেকশহরডটকমকে জানান, এর আগে ওই শিক্ষককে ফেইসবুকে বিভ্রান্তিকর তথ্য ছড়ানোর বিষয়ে জানতে চেয়ে প্রশাসনের পক্ষ থেকে চিঠি দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু তিনি কোনো সদুত্তর না দেওয়ায় তাঁর বিরুদ্ধে এমন পদক্ষেপ নিয়েছে প্রশাসন।

কাজী জাহিদুর রহমান বলেন, গত ২৮ সেপ্টেম্বর তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার সেন্টারে নিয়োগ প্রক্রিয়া নিয়ে একটি পোস্ট দিয়েছিলেন ফেইসবুকে। সেটাকেই ইস্যু করে মামলাটি দায়ের করা হয়েছে।

তবে ‘এমন একটি মামলা করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন তথ্যপ্রযুক্তি আইনকেই বিতর্কিত করে ফেলছে’- মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন শিক্ষক হিসেবে নিজেদের প্রতিষ্ঠানের দুর্নীতি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম, পত্রপত্রিকায়  কথা বলাও যদি অন্যায় হয়ে থাকে তবে অবশ্যই এমন মামলা তথ্যপ্রযুক্তি আইনকে বিতর্কিত করবে।’

ইমরান হোসেন মিলন 

*

*

আরও পড়ুন