Techno Header Top and Before feature image

দ্বিতীয় জাতীয় হাই স্কুল প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতা মার্চে

Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : দেশে দক্ষ কম্পিউটার প্রোগ্রামার তৈরির লক্ষ্য নিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো জাতীয় হাইস্কুল প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতা ২০১৬ এর আসর শুরু হচ্ছে ৬ মার্চ।

সারাদেশকে ১৬টি আঞ্চলিক অঞ্চলে বিভক্ত করে অ্যাক্টিভেশন কার্যক্রমের মাধ্যমে ৬৪ জেলার কমপক্ষে ৫০০টি উপজেলা ও থানাকে এবারের আয়োজনের সঙ্গে যুক্ত করার পরিকল্পনা করা হয়েছে। এজন্য আঞ্চলিক পর্যায়ে মেন্টরস ট্রেনিং, ফেসিলেটর কর্মশালা, অনলাইন মেন্টরশিপ ও ফোরামের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

রাজশাহী, রংপুর, দিনাজপুর, পাবনা, খুলনা, যশোর, টাঙ্গাইল, ময়মনসিংহ, সিলেট, চট্টগ্রাম, বরিশাল, ঢাকা, গোপালগঞ্জ, পটুয়াখালী, নোয়াখালী ও কুমিল্লাতে আঞ্চলিক পর্বের প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতা শেষ হবে ৩ এপ্রিল। আর চূড়ান্ত প্রতিযোগিতার আসর বসবে ৯ এপ্রিল রাজধানীর কৃষিবিদ ইন্সটিটিউট মিলনায়তনে।

NHPC
রোববার জাতীয় প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতার আয়োজন নিয়ে কথা বলেন।

তিনি বলেন, ভবিষ্যতে দেশের মেরুদণ্ডের মতো কাজ করবে কম্পিউটার প্রোগ্রামাররা। তাই এই প্রতিযোগিতার মধ্য দিয়েই দেখা যাবে জাকারবার্গ, বিল গেটসদের মতো ব্যক্তি তৈরি হচ্ছে।

পলক বলেন, পশ্চিমা দেশগুলোতে যেভাবে কম্পিউটার প্রোগ্রামারের চাহিদা বাড়ছে তাতে আমাদের প্রোগ্রামার তৈরি না করে উপায় নেই। আইসিটি ডিভিশন প্রোগ্রামার তৈরির প্রাথমিক কাজ হিসেবে সে চেষ্টা করছে।

প্রতিযোগিতার সময় বিভিন্ন অঞ্চলে প্রোগ্রামিং নিয়ে আড্ডা, প্রোগ্রামিং ক্যাম্প করা হবে। যেখানে মাধ্যমিক শ্রেণির শিক্ষার্থীদের প্রোগ্রামিং নিয়ে ধারণা দেওয়া হবে।

২০১৫ সালের আয়োজনে মোট ১০ হাজার প্রতিযোগী অংশ নেয়। আঞ্চলিক পর্যায় থেকে ১৯০ জন জাতীয় পর্যায়ে প্রোগ্রামিং করে। পরে তাদের ভিতর থেকে ১৫০ জনকে প্রশিক্ষণের পর আন্তর্জাতিক প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছিল।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন রবি আজিয়াটা লিমিটেডের চিফ অপারেটিং অফিসার মাহতাব উদ্দিন, আইসিটি বিভাগের অতিরিক্ত সচিব হারুন অর রশিদ, কোড মার্শালের মহাম্মদ মাহমুদুর রহমান, বিডিওএসএন সহ-সভাপতি ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক লাফিফা জামানসহ আরও অনেকে।

দ্বিতীয়বারের মতো অনুষ্ঠিত এই প্রতিযোগিতায় প্রধান পৃষ্ঠপোষক মোবাইল অপারেটর রবি আজিয়াটা লিমিটেড। পুরো আয়োজন বাস্তবায়নে সহযোগিতা করেছে বাংলাদেশ ওপেন সোর্স নেটওয়ার্ক (বিডিওএসএন), একাডেমিক সহযোগিতা কোড মার্শাল এবং সহযোগী হিসেবে আছে কিশোর আলো, এটিএন নিউজ এবং বাংলাদেশ আইসিটি জার্নালিস্ট ফোরাম (বিআইজেএফ)।

ইমরান হোসেন মিলন

*

*

আরও পড়ুন