ব্লগে ভিজিটর ধরে রাখার ৫ টিপস

Evaly in News page (Banner-2)

মোশাররফ রুবেল, অ্যাপ ডেভেলপার  অতিথি লেখক : ভিজিটর হচ্ছে ব্লগের প্রাণ ও এর কনটেন্ট হচ্ছে রাজা। একটি ব্লগ সাইট তখনই সফল হিসেবে গণ্য হবে যখন প্রচুর পরিমানে ভিজিটর আসবে এবং তারা বারবার আসতে থাকবে।

ব্লগে লেখা ও উপস্থাপনার ক্ষেত্রে কি ধরনের পন্থা অবলম্বন করলে জনপ্রিয় হয়ে ওঠা যায় ও প্রচুর ভিজিটর পাওয়া যায় সেটা জানতে চান অনেকেই। সুন্দর করে সাজানোর পাশাপাশি পাঠকদের পছন্দ বুঝে কাজ করে গেলেই ব্লগ হয়ে উঠবে জনপ্রিয়।

এ প্রতিবেদনে পাঠককে ব্লগে ধরে রাখার পাঁচটি টিপস তুলে ধরা হলো।

bloging-techshohor

বিভ্রান্তিকর শিরোনাম ব্যবহার না করা
কখনই ব্লগের কোনো লেখায় এমন শিরোনাম ব্যবহার করা যাবে না যেটা পাঠকের মধ্যে বিভ্রান্তি তৈরি করবে। অর্থাৎ এমন শিরোনাম ব্যবহার করা ঠিক না, যেটার অর্থ দুই রকম হতে পারে। বলা হবে এক রকম কিন্তু অর্থ দাঁড়াবে ভিন্ন।

ছোট প্যারা করে লেখা
ছোট ছোট প্যারা করে লেখার চেষ্টা করতে হবে। এতে পাঠকদের পড়তে সুবিধা হবে। কাজের আর্টিকেল যদি পড়তে ভালো লাগে তাহলে তা পাঠকের জন্য হবে চমৎকার অভিজ্ঞতা।

একই প্যারায় অনেক লাইন জুড়ে দিলে পাঠক খেই হারিয়ে ফেলতে পারে। তাদের মধ্যে একঘেয়েমি চলে আসতে পারে।

তাই ছোট ছোট প্যারা করে লেখা ভিজিটরের কাছে নিজের সাইট বা ব্লগকে জনপ্রিয় করার একটি অন্যতম পন্থা।

আকর্ষণীয় ছবি ব্যবহার করা
আর্টিকেলের সঙ্গে সর্ম্পকিত নজরকাড়া ছবি ব্যবহার করতে হবে। তবে খেয়াল রাখতে হবে ব্যবহৃত ছবি যাতে অতিরঞ্জিত না হয়।

ছবিটি যেন আর্টিকেলের বিষয়ের সঙ্গে সম্পৃক্ত হয় এবং অবশ্যই রুচি সম্মত হয়। মনে রাখতে হবে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আপনার লেখা শেয়ার করলে ছবিটি প্রদর্শিত হবে। ব্যবহারকারী যাতে শুরুতেই আগ্রহী হয়, সেইরকম ছবি পছন্দ করে আর্টিকেলের সাথে যুক্ত করাই সঠিক কাজ।

পাঠকের মন্তব্যের জবাব দেওয়া
ব্লগে অবশ্যই পাঠকের মন্তব্যের জন্য জায়গা রাখতে হবে। কোনো পাঠক যদি মন্তব্য করে সেটাকে এড়িয়ে না গিয়ে সেটার জবাব দিতে হবে প্রাঙ্গল ভাষায়।

আপনার লেখা আর্টিকেল নিয়ে কোনো পরামর্শ দিলে সেটার জন্য ধন্যবাদ দিয়ে ভবিষ্যতে আরও কাজ করার কথা জানাতে পারেন। অন্যদিকে কোনো অভিযোগ করলে সেটা সাদরে গ্রহণ করে তাকে ধন্যবাদ দিয়ে ত্রুটিগুলো ঠিক করার কথা জানিয়ে প্রতিউত্তর করুন।

প্রতিউত্তরে পাঠক নিজের মতামতের মূল্যায়ন পেলে আপনার ব্লগটিকে তার পছন্দের তালিকায় জায়গা করে দেবে।

একই রকম আরও লেখার লিঙ্ক যুক্ত করা
যখন একটা আর্টিকেল শেষ তখন একই ধরনের আরও লেখার লিংক শিরোনামসহ যুক্ত করে দিন। পাঠক যখন কোনো কিছু নিয়ে পড়েন, তখন স্বাভাবিকভাবেই তার চিন্তায় ঐ টপিকটা থাকে।

এ সময় তাকে আরও একই ঘরানার লেখা দিলে তিনি তা পড়তে দ্বিধা করবেন না। এ ছাড়া আর্টিকেলের ভেতরে কোনো টপিক নিয়ে কথা বললে তা হাইপার লিঙ্ক হিসেবে যুক্ত করে দেওয়ার পদ্ধতিও চমৎকার কাজে আসে।

এ ছাড়া তথ্যে যদি ভুল থাকে, তাহলে ব্লগের ভিজিটর ধরে রাখা যাবে না। তাই আর্টিকেলে উপস্থাপিত তথ্যের প্রতি বিশেষ গুরুত্ব দিতে হবে।

আরও পড়ুন 

২ টি মতামত

    • tahmina tania said:

      প্রিয় পাঠক ,আপনার মুল্যবান মতামতের জন্য অনেক ধন্যবাদ । ভালো থাকুন । টেক শহরের সাথেই থাকুন ।

*

*

আরও পড়ুন