vivo Y16 Project

ই-কমার্স লেনদেন সহজ করতে কাজ করবে পেইজা

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : ই-কমার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ই-ক্যাব) সাথে আনুষ্ঠানিকভাবে কাজ শুরু করল আন্তর্জাতিক অনলাইন পেমেন্ট গেটওয়ে পেইজা বাংলাদেশ (কাসাডা টেকনোলজি বাংলাদেশ লিমিটেড)।

বৈশ্বিক অনলাইন পেমেন্ট গেটওয়ে পেপ্যালের বিকল্প হিসেবে গ্রাহকরা পেইজা গেটওয়ে ব্যবহার করতে পারবেন। ই-ক্যাবের সাথে কাজ শুরুর আগে বাংলাদেশ কমার্স ব্যাংক ও আরও কিছু প্রতিষ্ঠানের সাথে পেইজা বাংলাদেশ কাজ শুরু করে।

এই চুক্তির ফলে ই-ক্যাবের সদস্যরা পেইজার মাধ্যমে লেনদেন করতে মাত্র তিন শতাংশ চার্জ দেবেন, যা অন্যান্য গেটওয়েগুলো থেকে কম।

Techshohor Youtube

payza

রোববার রাজধানীর মহাখালীর একটি কনভেনশন সেন্টারে ‘অ্যামপাওয়ারিং ই-কমার্স থ্রু অনলাইন পেমেন্ট সার্ভিসেস ইন বাংলাদেশ’ নামের এক ইভেন্টের আয়োজন করা হয়। এখানে ই-ক্যাবের সাথে পেইজার কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেওয়া হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, আমরা দেশে পেপ্যালকে আনার চেষ্টা করছি। তারাও বাংলাদেশে কাজ করতে আগ্রহী। তবে আশার কথা তার আগে পেইজা বাংলাদেশে তাদের কার্যক্রম শুরু করেছে।

তিনি বলেন, অনেকেই ভাবেন শুধু পেপ্যাল আসলেই ইন্টারন্যাশনাল পেমেন্ট গেটওয়ের সমাধান হবে। আসলে তা নয়। ইতোমধ্যে আমরা ফ্রিল্যান্সারদের বৈশ্বিক প্লাটফর্ম আপওয়ার্ককে চিঠি দিয়েছি। এতে ফ্রিল্যান্সাররা যাতে পেইজা ব্যবহার করে তাদের আন্তর্জাতিক লেনদেন সম্পন্ন করতে পারেন সে সম্পর্কে ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে।

অনুষ্ঠানে বাংলাদেশে পেইজার কার্যক্রম নিয়ে বিস্তারিত তুলে ধরেন পেইজা বাংলাদেশের নাফিস এহতেশাম। তিনি জানান, পেইজার মাধ্যমে অর্থ লেনদেনে সরাসরি বৈদেশিক মুদ্রায় অথবা দেশীয় মুদ্রায় লেনদেন করা যাবে। নিজের অ্যাকাউন্টে টাকা জমা ও উঠানো যাবে।

পেমেন্ট গেটওয়ে পেপ্যালের আদলে পেইজা কাজ করে বলে জানিয়ে তিনি বলেন, পেইজাকে পেপ্যালের কপি বলা যায়।

এছাড়াও পেইজা ব্যবহার করে অনলাইন ব্যবসায় শপিং কার্ট ইন্টিগ্রেশন, চেক আউট পেমেন্ট বাটন, মার্চেন্ট মার্কেটিং কিট, অনলাইন ইনভয়েসিং, কর্পোরেট ডিসবার্সমেন্ট ও ই-কমার্স প্রসেসিংয়ের মতো কাজ করা যাবে বলেও জানান তিনি।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন পেইজার আন্তর্জাতিক বিপণন কর্মকর্তা (সিএমও) আমর ম্যাগন, ই-ক্যাবের সভাপতি রাজীব আহমেদ, কমার্স ব্যাংক লিমিটেডের সিনিয়র এক্সিকিউটিভ এস এম জাহাঙ্গীর আখতারসহ অনেকে।

ইমরান হোসেন মিলন

*

*

আরও পড়ুন

vivo Y16 Project