অলিম্পিকে ভিডিও গেইমস!

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : ভিডিও গেইমসের বিপুল জনপ্রিয়তা আছে, কিন্তু অলিম্পিকে এর জন্য কোনো জায়গা নেই। সম্প্রতি ‘গ্রেটেস্ট শো অন দ্যা আর্থ’ –এ ইলেক্ট্রনিক স্পোর্টস বা ই-স্পোর্টসকে অন্তর্ভুক্ত করার দাবী উঠেছে। দাবী জানিয়েছেন ওয়ার্ল্ড অব ওয়ারক্রাফট এর উদ্ভাবক রব পার্দো।

গত জুলাই থেকে ব্লিজার্ড এন্টারটেইনমেন্টের চিফ ক্রিয়েটিভ অফিসার হিসেবে কর্মরত রব বলেন, খেলাধুলা পরিবর্তনশীল ক্ষেত্র। বর্তমানে এর বড় একটা জায়গা দখল করে আছে ভিডিও গেইমস।

তিনি বলেন, দর্শক টানার দিক দিয়ে পেশাদার ই-স্পোর্টস পিছিয়ে নেই। দক্ষিণ কোরিয়ার সিউলে ভিডিও গেইমের সাম্প্রতিক বড় ফাইনালটিতে মাঠে ৪০ হাজার দর্শক উপস্থিত ছিলেন। সারাবিশ্বের হাজারও দর্শক তা অনলাইনে দেখেছেন। এই দিক থেকে ই-স্পোর্টস অলিম্পিকে অন্তর্ভুক্তির জোর দাবি রাখে।

video games

তিনি আরও বলেন, আমি মনে করি, ই-স্পোর্টস দক্ষতার সাথে প্রতিযোগিতামূলক পরিস্থিতি তৈরি করতে পারে। এখানে প্রফেশনাল গেইমাররা খুব দ্রুত সিদ্ধান্ত নিয়ে ভালো স্কোর করার মাধ্যমে দর্শক আগ্রহ জিইয়ে রাখতে পারেন।

তবে শারীরিক কসরত নির্ভর খেলার সাথে পাল্লা দিতে ভিডিও গেইমকে আরও অনেক পথ পাড়ি দিতে হবে বলেও জানান তিনি।

বিশ্লেষকদের মতে, অলিম্পিকে ভিডিও গেইমের অন্তর্ভুক্তি কঠিন। দাবাও অনেক জনপ্রিয় খেলা, কিন্তু তাই বলে অলিম্পিকে এর অন্তর্ভুক্তির দাবি হাস্যকর।

এ ব্যাপারে পার্দোর যুক্তি, গ্রাফিক্সের কারিকুরির কারণে দাবা খেলার চেয়ে ই-স্পোর্টস অনেক বেশি প্রতিযোগিতামূলক ও আকর্ষণীয়।

 

বিবিসি অবলম্বনে ফখরুদ্দিন মেহেদী

*

*

আরও পড়ুন