vivo Y16 Project

ইতিহাস হতে যাচ্ছে আইপড!

টেকশহর কনটেন্ট কাউন্সিলর: জনপ্রিয় মিউজিক প্লেয়ার আইপড টাচ বন্ধ করে দিতে যাচেছ অ্যাপল। বিগত ২১ বছর ধরে গান শোনার ধরনে রীতিমতো বিপ্লব সৃষ্টি করেছিল এই ডিভাইসটি।

অনেক সঙ্গীত তারকাই খ্যাতির শীর্ষে পৌঁছেছেন এই আইপডের মাধ্যমে। এই তারকাদের মধ্যে জন মেয়ার, ইউ২ এবং অপরাহ উইনফ্রে নাম উল্লেখযোগ্য। গাড়ি নির্মাতারাও এই আইপডকে ঘিরে পণ্য তৈরি করেছে। আইপড সিস্টেমের ওপর নির্ভর করে বিএমডব্লিউ প্রথম গাড়ির এন্টারটেইনমেন্ট সিস্টেম তৈরি করেছিলো। কয়েক বছরের মধ্যে অন্যান্য গাড়ি নির্মাতারাও বিএমডব্লিউয়ের এই কৌশল অনুসরন করতে থাকে।

২০০১ সালে সর্বপ্রথম আইপড বাজারে আসে। সেসময় আইপড ছিলো এক হাজার গান সংরক্ষণ করে রাখতে সক্ষম প্রথম কোন এমপিথ্রির বর্তমানে অ্যাপলের এই স্ট্রিমিং সার্ভিসটিতে ৯০ মিলিয়নের বেশি গান সংরক্ষণ করে রাখা যায়।

Techshohor Youtube

আইপড টাচ নকশা করেছিলো যে দল তারাই পরবর্তীতে আইফোন আবিষ্কার করে। আইফোন বাজারে আসার পর আইপডের প্রভাব অনেকটাই স্তিমিত হয়ে পড়ে। প্রযুক্তি বিশ্লেষকরা বলেছেন, আইফোন কোন একসময় আইপডের স্থান দখল করবে এ বিষয়টি অনিবার্য ছিলো। প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা প্রতিষ্ঠান সিসিএস ইনসাইটের প্রধান বিশ্লেষক বেন উড বলেছেন, ‘অ্যাপল যখন আইফোন তৈরি করে তখনই তারা বোঝতে পেরেছিলো আইপডের দিন শেষ হতে যাচ্ছে।’

এ কয়েক বছরে বিভিন্ন মডেলের আইপড বাজারে এসেছে। এর মধ্যে আইপড ন্যানো, আইপড মিনি এবং আইপড শাফল উল্লেখযোগ্য। ২০০৭ সালে বাজারে আসা আইপডের সর্বশেষ মডেল আইপড টাচ।

নিউইয়র্ক টাইমসের প্রতিবেদন অনুযায়ি, এ পর্যন্ত প্রায় ৪৫০ মিলিয়ন আইপড বিক্রি করেছে অ্যাপল।

বিবিসি, ইনসাইডার/আরএপি

*

*

আরও পড়ুন

vivo Y16 Project