Techno Header Top and Before feature image

যুক্তরাজ্যে বিটকয়েন চালু করলো পেপ্যাল

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : আন্তর্জাতিক পেমেন্ট গেটওয়ে পেপ্যালের মাধ্যমে যুক্তরাজ্যে কার্যক্রম শুরু করলো ক্রিপ্টোকারেন্সি বা ডিজিটাল মূদ্রা ‘বিটকয়েন’। ব্রিটিশ পেপ্যাল ব্যবহারকারীরা এখন থেকে এই প্লাটফর্মটির মাধ্যমে বিটকয়েন কিনতে, সঞ্চয় করতে ও বিক্রি করতে পারবেন।

পেপ্যালে ব্যালেন্স থাকলেই বিটকয়েন লেনদেন শুরু করা যাবে। এই বিটকয়েন ব্যবহার করে কোনো কিছু কেনাকাটায় বা লেনদেনে সরাসরি পেমেন্ট করা যাবে না। তবে বিটকয়েনের অর্থ দিয়ে পেমেন্ট করতে হলে– প্রচলিত মূদ্রার বিনিময়ে বিটকয়েন বিক্রি করে তা দিয়ে পরোক্ষভাবে পেমেন্ট করা যাবে।

আরেকটি সমস্যা হলো, পেপ্যাল থেকে অন্যান্য ডিজিটাল ওয়ালেটগুলোতে এই ক্রিপ্টোকারেন্সি পাঠানো যাবে না।

বিটকয়েনের পাশাপাশি ইথেরিয়াম, লাইটকয়েন নামের ক্রিপ্টোকারেন্সিও যুক্ত করা হয়েছে পেপালের গেটওয়েতে।

এর আগে, গত অক্টোবরে (২০২০) যুক্তরাষ্ট্রে ক্রিপ্টোকারেন্সি সেবা চালু করে পেপ্যাল।

ক্রিপ্টোকারেন্সিগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি দামী বিটকয়েন। গত এপ্রিলে বিটকয়েনের দামের রেকর্ড গিয়ে দাঁড়ায় ৬৫,০০০ ডলার (৪৭,৫৫০ পাউন্ড)। চীনা কতৃপক্ষের নিষেধাজ্ঞার জেরে পরে দরপতন হয়ে নামে ৩০,০০০ ডলারে। এরপর সম্প্রতি আবার দাম বেড়ে ঠেকেছে ৫০,০০০ ডলারে।

বিশ্বজুড়ে পেপ্যালের গ্রাহক সংখ্যা ৫০০ মিলিয়ন।

সূত্র : ইন্টারনেট টিআর/আগস্ট ২৫/২০২১/২০৫৭

আরও পড়ুন

পেপ্যালে বিটকয়েনে লেনদেনের অনুমতি

ফেইসবুকের ক্রিপ্টোকারেন্সিতে পেপ্যাল, ইবে, ভিসা, মাস্টারকার্ড

ফেইসবুকের সঙ্গে থাকছে না পেপ্যাল

এই ‘পেপ্যাল’ সেই পেপ্যাল নয়

*

*

আরও পড়ুন