Techno Header Top and Before feature image

ফুড ডেলিভারি অ্যাপে দাম বেশি নেয়া হচ্ছে

Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : এই করোনাকালীন সময়ে ঘরে বসে খাবারের অর্ডারের প্রবণতা আগের যেকোনো সময়ের চেয়ে বেড়েছে। এদিকে ফুড ডেলিভারি অ্যাপগুলোও এ সুযোগটা কাজে লাগিয়েছে। যুক্তরাজ্যের এক জরিপের বরাত দিয়ে বলা হচ্ছে, করোনা শুরুর পর থেকে এই এক বছরে ফুড ডেলিভারি অ্যাপের খরচ ৪৪ শতাংশ বেড়েছে।

গ্রাহকদের সরক্ষা নিয়ে কাজ করে, এমন একটি প্রতিষ্ঠানের অনুসন্ধানে এই তথ্য উঠে এসেছে। প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, অ্যাপ ভিত্তিক খাবার সেবাকে যতটা সাশ্রয়ী মনে করা হয়, বাস্তবে অনেক সময় এর ব্যতিক্রমটি হচ্ছে। তারা জনপ্রিয় পাঁচটি রেস্টুরেন্টের খাবারের দাম ও ফুড অ্যাপে সেগুলোর দাম নিয়ে খোঁজ-খবর নেয়।

তারা দেখতে পেয়েছেন, সেসব রেস্টুরেন্টে স্বশরীরে গিয়ে সরাসরি অর্ডার করলে যে দাম রাখা হচ্ছে, একই খাবার ফুড অ্যাপে অর্ডার করলে তার চেয়ে বেশি দাম ধরা হচ্ছে। স্বাভাবিক দামের চেয়ে গড়ে ২৩ শতাংশ এবং সর্বোচ্চ ৪৪ শতাংশ বেশি দাম নেয়া হচ্ছে।    

ডেলিভারো, উবার ইট, জাস্ট ইটের মতো জনপ্রিয় ফুড ডেলিভারি অ্যাপগুলো তুলনামূলক বেশি দাম নিচ্ছে বলে অভিযোগ করেছে গ্রাহক সরক্ষা সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানটি। এদের মধ্যে গ্রাহকদের সবচেয়ে বেশি খরচ গুনতে হচ্ছে ডেলিভারো অ্যাপে, গড়ে ৩১ শতাংশ বেশি নিচ্ছে তারা। এছাড়া উবার ইটস ও জাস্ট ইট গড়ে বেশি নিচ্ছে যথাক্রমে ২৫ ও ৭ শতাংশ।

জরিপে আরো বলা হয়েছে, বুরিতো ও ট্যাকো নামে দুটি খাবারের দাম সবচেয়ে বেশি ধরা হচ্ছে। ম্যাক্সিকান রেস্টুরেন্ট থেকে এই খাবার অর্ডার দিলে ডেলিভারো দাম ধরছে ৪৩.৯৪ ডলার, যা স্বাভাবিক দামের চেয়ে ৪৪ শতাংশ বেশি।

যদিও ফুড ডেলিভারি প্রতিষ্ঠানগুলো বলছে, তাদের নেয়া বাড়তি দাম খুবই যৌক্তিক।  

সূত্র : ইন্টারনেট/টিআর/জুন ১৯/২০২১/১৭৩১

*

*