Techno Header Top and Before feature image

ফ্রি মাইক্রোসফট ক্লাউড স্কিল প্রশিক্ষণ পাবে ৫ হাজার তরুণ-তরুণী

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : দেশের ৫ হাজার তরুণ-তরুণী বিনামূল্যে মাইক্রোসফট ক্লাউড স্কিল প্রশিক্ষণ পাবে।

বাংলাদেশ হইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষ এবং কর্পোরেট প্রযুক্তি লিমিটেড যৌথভাবে এই প্রশিক্ষণ কার্যক্রমের আয়োজন করছে।

মঙ্গলবার তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক ভার্চুয়াল প্লাটফর্মে এই প্রশিক্ষণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, সাম্প্রতিক পরিসংখ্যান অনুযায়ী বর্তমানে বাংলাদেশে প্রতিবছর প্রায় ১৩ মিলিয়ন ডলারের ক্লাউড বেইজড ব্যবসা হচ্ছে। আগামী ৩-৫ বছরের মধ্যে বাংলাদেশে ক্লাউড বেইজড ব্যবসার পরিধি আরও ২০-২৫ শতাংশ বৃদ্ধি পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। আর গ্লোবাল ফ্রিল্যান্স মার্কেটে প্রায় ১ দশমিক ৮ মিলিয়ন ডলারের ক্লাউড পরিসেবার সুযোগ আছে।

‘যে সকল দেশীয় প্রতিষ্ঠান মাইক্রোসফটের ক্লাউড সল্যুশন ব্যবহার করছে তারা চাকরির ক্ষেত্রে প্রফেশনাল ভেন্ডর সার্টিফিকেট ডিমান্ড করে। ক্লাউড বেইজড সার্ভিস খাতে বর্তমানে বাংলাদেশে প্রায় ১০ হাজার প্রফেশনাল কাজ করছে এবং আগামী ৩-৫ বছরের মধ্যে এই খাতে আরও ১০ হাজার জন প্রফেশনাল এক্সপার্টের কাজের সুযোগ সৃষ্টি হবে’ বলেন তিনি।

ভবিষ্যতে মাইক্রোসফটের পাশাপাশি গুগল, অ্যামাজনের মতো প্রতিষ্ঠানগুলো বাংলাদেশের জনশক্তিকে তাদের প্ল্যাটফর্ম উপযোগী করে প্রশিক্ষিত করেতে আগ্রহী হবে বলেও তিনি আশাবাদ জানান ।

সভাপতির বক্তব্যে বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (সচিব) হোসনে আরা বেগম এনডিসি বলেন, প্রযুক্তিভিত্তিক শিল্পায়ন এবং তার বিকাশে সরকারি ও বেসরকারিভাবে গড়ে ওঠা হাইটেক পার্ক ও সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্কগুলোতে সৃষ্ট ও সম্ভাব্য কর্মসংস্থান বিবেচনায় প্রশিক্ষিত দক্ষ জনশক্তির যোগান নিশ্চিত করতে কাজ চলছে।

মাইক্রোসফট বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আফিফ মোহাম্মদ আলী বলেন, ‘মাইক্রোসফট ক্লাউড স্কিল’ ট্রেইনিং প্রোগ্রামের মাধ্যমে মাইক্রোসফটের বিশেষায়িত প্ল্যাটফর্মগুলো সম্পর্কে প্রশিক্ষণার্থীদের (যেমন: মাইক্রোসফট আজুরে, মাইক্রোসফট সার্ভার, মডার্ন ওয়ার্কপ্লেস এর মতো বিশেষায়িত ডোমেইনগুলোতে) দক্ষতা গড়ে উঠবে। প্রশিক্ষণ শেষে উত্তীর্ণ অংশগ্রহণকারীদের মাইক্রোসফটের পক্ষ থেকে ১০০ ডলারের ক্লাউড ক্রেডিট এবং ভেন্ডর সার্টিফিকেট এক্সামে ২০ শতাংশ ওয়েভার দেওয়া হবে। 

অনুষ্ঠানে বেসিসের প্রেসিডেন্ট সৈয়দ আলমাস কবীর, ডেভেলপার রিলেশন মাইক্রোসফট এশিয়া প্যাসিফিকের ডিরেক্টর এনি ম্যাথিউ, বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষের পরিচালক (যুগ্মসচিব) এ এন এম সফিকুল ইসলাম, আল আরাফা ইসলামী ব্যাংকের ডেপুটি ম্যানেজিং ডাইরেক্টর সৈয়দ মাসুদুল বারী ও কর্পোরেট প্রযুক্তি লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী পরিচালক শফিকুল আহম্মেদ বক্তব্য রাখেন।

*

*

আরও পড়ুন