Techno Header Top and Before feature image

করোনার চ্যালেঞ্জ উতড়ে ভার্চুয়ালি চলছে ডিজিটাল ডিভাইস মেলা

Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : করোনার চ্যালেঞ্জ উতড়ে নানা সভা-সেমিনার ও প্রদর্শণীর ভার্চুয়াল আয়োজনে চলছে তথ্যপ্রযুক্তি খাতের অন্যতম উৎসবডিজিটাল ডিভাইস অ্যান্ড ইনোভেশন এক্সপো।

বৈশ্বিক এই মহামারীতে পুরো পৃথিবী যেখানে টালমাটাল সেখানে করোনার চ্যালেঞ্জ নিয়ে নিজেদের ডিজিটাল বাংলাদেশের ভিশনে পথে নিয়মিত কার্যক্রমগুলো চালিয়ে যাওয়ার প্রায়াস নিচ্ছে বাংলাদেশ।

আর কীভাবে তা সম্ভব হচ্ছে তা এই আয়োজনের উদ্বোধন ঘোষণার বক্তব্যে বলেছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

তিন দিনের এই আয়োজনের উদ্বোধন ঘোষণার বক্তব্যে বৃহস্পতিবার রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ বলেন, করোনা মহামারি পরিস্থিতিতে তথ্যপ্রযুক্তি ও ডিজিটাল সেবার প্রয়োজন নতুন আঙ্গিকে উপলব্ধি হয়েছে। বৈশ্বিক মহামারির প্রাদুর্ভাবে যখন স্বাভাবিক কার্যক্রম বন্ধ হবার উপক্রম তখন তথ্যপ্রযুক্তিই হয়ে ওঠে জরুরি গুরুত্বপূর্ণ কার্যক্রম চালিয়ে যাবার একমাত্র নির্ভরশীল মাধ্যম। দেশের শিক্ষা কার্যক্রম, বিচারিক কার্যক্রম, স্বাস্থ্যসেবা, ব্যাংকিং সেবা ইত্যাদি হয়ে পড়ে তথ্যপ্রযুক্তি নির্ভর। চলমান মহামারির সময়ে তথ্যপ্রযুক্তির স্থানীয় বাজার অকল্পনীয় প্রসার লাভ করেছে। এই মহামারিকালে তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করেই দেশের অর্থনৈতিক কার্যক্রম সচল রাখা সম্ভব হয়েছে।

রাষ্ট্রপতি বলেন, করোনার কারণে অনেক ক্রেতাই ঘরে বসে তাদের পছন্দের প্রয়োজনীয় পণ্যটি পেতে চায়। ফলে অনলাইনে কেনাকাটা বহুগুণে বেড়ে গেছে। ই-কমার্স এখন একটি গুরুত্বপূর্ণ বাণিজ্যিক খাত। ই-কমার্সের প্রতি ক্রেতাদের আগ্রহ দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। এ আগ্রহকে ধরে রাখতে হলে ক্রেতাদের আস্থা ও বিশ্বাস অর্জন করতে হবে।

‘কিন্তু কিছুসংখ্যক উদ্যোক্তা ই-কমার্সের নামে ক্রেতাদের সাথে প্রতারণা করছে। অনলাইনে এক ধরণের পণ্য প্রদর্শন করে ডেলিভারি দিচ্ছে নিম্নমানের বা অন্য পণ্য। অনেকসময় অর্ডার নিয়ে পেমেন্ট পাওয়ার পর পণ্য ডেলিভারি না দিয়ে ফেসবুক পেজ বা ওয়েবসাইট বন্ধ করে দেয়। ফলে ক্রেতারা প্রতারিত হচ্ছে এবং অনলাইনে কেনাকাটায় আগ্রহ হারাচ্ছে। মুষ্ঠিমেয় কিছু অসাধূ লোকের প্রতারণার জন্য যাতে ই-কমার্সের মতো একটি বিপুল সম্ভাবনাময় খাতের প্রসার কোনোভাবেই থেমে না যায় তা কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রণ ও মনিটরিং করতে হবে’ বলছিলেন তিনি।

রাষ্ট্রপতি বলেন, দেশ এখন ‘ডিজিটাল বাংলাদেশ’ বিনির্মাণের চূড়ান্ত পর্যায়ে। এই সময়ে ‘ডিজিটাল ডিভাইস এন্ড ইনোভেশন এক্সপো ২০২১’ এর আয়োজন ডিজিটাল ডিভাইস ও ইনোভেশন খাতে বাংলাদেশের অগ্রযাত্রার চিত্রটি সকলের কাছে তুলে ধরবে । এবারের প্রদর্শনীর প্রতিপাদ্য ‘মেইক হেয়ার, সেল এভরি হয়ার’ অত্যন্ত সময়োপযোগী ও তাৎপর্যপূর্ণ হয়েছে । এই প্রতিপাদ্যের মধ্যেই নিহিত রয়েছে ডিজিটাল পণ্য উৎপাদনে স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জন ও উদ্ভাবনী জাতি হিসাবে নিজেদের পরিচিত হওয়ার বার্তা।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের সভাপতি তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণের কারণে এবারের এক্সপো ভার্চুয়ালি আয়োজন করা হয়েছে। এতে যুক্ত হচ্ছেন দেশি-বিদেশি গবেষক, উদ্যোক্তা, উদ্ভাবকরা। আপনাদের সকলের অনপ্রেরণা ও উৎসাহে এবং অবদানের ভিত্তিতে গড়ে উঠেছে শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ।

*

*

আরও পড়ুন