মিউজিক স্ট্রিমিংয়ের পাওনা নিয়ে অসন্তোষ

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : মিউজিক স্ট্রিমিংয়ের পাওনা নিয়ে মুখ খুলেছেন খ্যাতনামা ব্রিটিশ রক ব্যান্ড ব্লুর ড্রামার ডেভিড রনট্রি। তিনি সতর্ক করে বলেন, গীতিকার ও শিল্পীরা তাদের উপযুক্ত পাওনা ঠিকঠাক না পেলে এ শিল্প ধ্বংস হয়ে যাবে! শুধু রনট্রিই নন, আরো অনেকেই এ ব্যাপারে সরব হয়েছেন।

গানের পেছনে ভূমিকা রাখা শিল্পী-কলাকুশলীদের উপযুক্ত পাওনার দাবি অনেক দিনের।
এদিকে রেকর্ড ফার্মের দাবি, পাওনার বড় অংশ তাদেরই প্রাপ্য; কারণ তারা শিল্পীকে প্রতিষ্ঠা করতে ভূমিকা রাখে।

পাওনা নিয়ে শিল্পী ও কলাকুশলীদের অভিযোগের বিষয়টি নিয়ে কাজ করছে হাউজ অব কমনস কমিটি। এই কমিটি প্রাথমিকভাবে বিভিন্ন পক্ষের যুক্তি-তর্ক শুনেছে।

Techshohor Youtube

সনি মিউজিক, ওয়ার্নার মিউজিক ও ইউনিভার্সেলের মতো শীর্ষ সঙ্গীত প্রতিষ্ঠানগুলোও এ নিয়ে কথা বলেছে। তারা বলছে, তাদের ভাগের অর্থ বেশি‌ অঙ্কের হলেও এটি যৌক্তিক। কারণ শিল্পী, রেকর্ডিং, পরিবেশনা ও প্রচারণার জন্য তাদেরকেই খরচা করতে হয়।

ফিয়োনা বেভান নামের একজন কমিটিকে জানান, কাইলি মিনোগের একটি গানের সহ-গীতিকার হিসেবে মাত্র ১০০ পাউন্ড দেয়া হয়েছে, অথচ গানটি কাইলির সেরা একটি অ্যালবামের।

রনট্রি ইংল্যান্ডের পূর্ব অ্যাঞ্জলিয়ার কাউন্টি নরফোকের কাউন্সিলর হিসেবেও দায়িত্ব পালন করছেন। অন্যায্য পাওনার প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আমরা না হয় এভাবেই চলছি, কিন্তু এভাবে চললে পরবর্তী প্রজন্মের শিল্পীদের আর্থিক অনটনে পড়তে হবে।

সঙ্গীত পরিবেশক বা রেকর্ডিং প্রতিষ্ঠানগুলো শিল্পীদের গানকে মিউজিক স্টিমিং অ্যাপ বা প্লাটফর্মে যে চড়া মূল্যে বিক্রি করে, সে তুলনায় শিল্পীরা খুব নগণ্য সম্মানী পায়।

সূত্র : ইন্টারনেট/টিআর/ফেব্রুয়ারি ৮/২০২১/১৫৬০

আরও পড়ুন

ফেইসবুক কি অ্যাপলের সঙ্গে মিউজিক স্ট্রিমিং যুদ্ধে নামছে?

অনলাইন স্ট্রিমিংয়ের ৯ অ্যাপ

মিউজিক স্ট্রিমিংয়ের আধিপত্যে প্রচলিত মাধ্যমে ধস

*

*

আরও পড়ুন