Techno Header Top and Before feature image

ফিঙ্গারপ্রিন্ট বেহাত হচ্ছে, কী করবেন?

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : চটজলদি ডিভাইসের লক খুলতে কিংবা নিরাপত্তা ব্যবস্থা সুদৃঢ় করতে সাধারণত ফিঙ্গারপ্রিন্ট ব্যবহার করা হয়। কিন্তু এই ফিঙ্গারপ্রিন্ট নিরাপদে থাকবে কিনা, তা নিয়েই অনিশ্চয়তা দেখা দিয়েছে। কারণ, ইতোমধ্যে ব্যবহারকারীর ‘ব্রাউজার ফিঙ্গারপ্রিন্ট’ চুরির খবর চাওর হয়েছে। যদিও এর সরূপ ভিন্ন, কিন্তু সাইবার অপরাধীরা যে আসল ফিঙ্গারপ্রিন্টে নজর দেবে না, এটা ভাবার কারণ নেই।

সাম্প্রতিক একদল গবেষক দাবি করেছেন, ইন্টারনেট ব্যবহারকারীরা ওয়েবসাইট ব্যবহারের সময় কিছু টুল বা এক্সটেনশনের মাধ্যমে অগোচরে ব্রাউজার ও কম্পিউটার থেকে ‘পরিচয় সনাক্ত সংশ্লিষ্ট’ গুরুত্বপূর্ণ তথ্য হাতিয়ে নেওয়া হচ্ছে, যাকে প্রযুক্তির ভাষায় ‘ব্রাউজার ফিঙ্গারপ্রিন্ট’ নাম দেওয়া হয়েছে। এর মানে হাতিয়ে নেওয়া ব্যক্তিগত এই তথ্যগুলো একসঙ্গে করলে একজন ব্যক্তির পরিচয় এতটাই মাধ্যমে গ্রাহকদের ফিঙ্গারপ্রিন্ট ব্রাউজারের মাধ্যমে অনেক ওয়েবসাইট সংগ্রহ করছে।

জার্মানির বানডেশর ইউনিভার্সিটি মুনিচের একদল গবেষক একটি ব্রাউজার এক্সটেনশন তৈরি করেছে, যা সেসব ওয়েবসাইটকে সনাক্ত করবে যেগুলো অগোচরে গ্রাহকদের ‘ব্রাউজার ফিঙ্গারপ্রিন্ট’ সংগ্রহ করছে এবং সাইটগুলো এসব কিভাবে করছে তাও এই এক্সটেনশনের মাধ্যমে জানা যাবে।

এই দলটি ১০ হাজারের মতো জনপ্রিয় ওয়েবসাইট নিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে দেখেছে, তারা গ্রাহকের ডিভাইস বা ব্রাউজার থেকে কোন কোন তথ্য সংগ্রহ করে। গবেষকদের একজন জুলিয়ান ফিটকাও The Elephant In The Background: Empowering Users Against Browser Fingerprinting শিরোনামে একটি ভিডিও উপস্থাপনার মাধ্যমে এই ব্যাপারে প্রমাণ দেখিয়েছেন।

ব্রাউজার ফিঙ্গারপ্রিন্টের উদ্দেশ্যে তথ্য সংগ্রহ করা হচ্ছে কিনা কিভাবে জানা যাবে, এমন প্রশ্ন হতেই পারে। খুব খেয়াল করলে ব্যাপারটা অভিজ্ঞরা আন্দাজ করতে পারবেন। এ ধরনের সাইট ব্রাউজ করার সময় এম্বেডেড জাভা স্ক্রিপ্টের মাধ্যমে স্বাভাবিকের চেয়ে অনেক বেশি ওয়েব রিকোয়েন্ট আসে।

সূত্র : ইন্টারনেট/টিআর/জানুয়ারি ১৪/২০২১/১৮

আরও পড়ুন

ওয়েবেও ফিঙ্গারপ্রিন্ট সিকিউরিটি আনছে হোয়াটসঅ্যাপ

পাসওয়ার্ডের বদলে ফিঙ্গারপ্রিন্ট আনছে গুগল

‘ফিঙ্গারপ্রিন্ট বাদ : ফেইস আইডিই ভবিষ্যত’

*

*

আরও পড়ুন