Samsung IM Campaign_Oct’20

জীবন দক্ষতার সনদ পেল ১০০ তরুণ

Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : দেশের প্রথম অনলাইনভিত্তিক জীবন ঘনিষ্ঠ দক্ষতা অর্জনের আয়োজন ‘স্কুল অফ লাইফ’ এর সনদ পেয়েছে ১০০ তরুণ।

ইয়ুথ এম্পাওয়ারমেন্ট ফ্যাসিলিটেশন (ওয়াইইএফ) গ্লোবালের পৃষ্ঠপোষকতায় এ আয়োজনের প্রথম ব্যাচের অংশগ্রহণকারীরা বৃহস্পতিবার এই সনদ পান।

অনলাইনে এ সনদ বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। বিশেষ অতিথি ছিলেন ইন্টারনেট সোসাইটি বাংলাদেশের সভাপতি ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. হাফিজ মুহাম্মদ হাসান বাবু, সিটিও ফোরামের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি তপন কান্তি সরকার এবং ওয়াইইএফ গ্লোবালের ফাউন্ডার ও গ্লোবাল সিইও কাজী হাসান রবিন।

মোস্তাফা জব্বার বলেন, প্রশিক্ষণের মাধ্যমে নিজেদের দক্ষতার উন্নয়ন করে সমসাময়িকদের তুলনায় একধাপ এগিয়ে গেছেন তরুণরা। তবে এখানেই  শেখার শেষ নয় বরং জীবন দক্ষতার এই শিক্ষা কাজে লাগিয়ে নিজনিজ ক্ষেত্রে কর্মদক্ষতা অর্জনে মনযোগী হওয়ার পরামর্শ দেন মন্ত্রী ।

ওয়াইইএফ গ্লোবালের ফাউন্ডার ও গ্লোবাল সিইও কাজী হাসান রবিন বলেন, ১৩টি মাইক্রো কোর্স দিয়ে সাজানো স্কুল অফ লাইফের এই কার্যক্রমের মূল উদ্দেশ্য ছিল দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের তরুণদের জীবন দক্ষতা উন্নয়নে ভূমিকা রাখা। অংশগ্রহণকারীদের আগ্রহ ও উদ্দীপনাই বলে দিচ্ছে এই আয়োজন কতটা সফল হয়েছে।

অধ্যাপক ড. হাফিজ মুহাম্মদ হাসান বাবু ওয়াইইএফ গ্লোবালের এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়ে ডিজিটাল বাংলাদেশ নির্মানে তরুণদের অংশগ্রহণ বাড়ানোর উপর গুরুত্ব আরোপ করেন। তিনি ভবিষ্যতেও ওয়াইইএফ গ্লোবালের বিভিন্ন কর্মসূচিতে ইন্টারনেট সোসাইটি বাংলাদেশের পক্ষ থেকে সহযোগিতার আশ্বাস দেন।

তপন কান্তি সরকার তার বক্তব্যে জীবন দক্ষতার পাশাপাশি তরুণদের তথ্যপ্রযুক্তিতে দক্ষ হওয়ার উপর গুরুত্ব আরোপ করে বলেন, ভবিষ্যতে ক্লাউড কম্পিউটিং এ দক্ষ জনশক্তির প্রয়োজন হবে, এ নিয়ে সিটিও ফোরামের ভবিষ্যৎ আয়োজনে তিনি আগ্রহীদের আমন্ত্রণ জানান।

এর পাশাপাশি স্কুল অফ লাইফের সনদধারীদের ফোরামের সদস্য প্রতিষ্ঠানসমূহে শিক্ষানবিশ ও চাকুরীর ব্যপারে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে বিবেচনা করার আশ্বাস দেন তিনি।

ওয়াইইএফ গ্লোবালের ‘স্কুল অফ লাইফ’ উদ্যোগটির সাথে একাত্মতা প্রকাশ করে সহযোগী হিসেবে যুক্ত ছিল,  ইন্টারনেট সোসাইটি বাংলাদেশ, কমনওয়েলথ ইয়ুথ ইনোভেশন হাব, ইয়ুথ হাব গ্লোবাল, সিটিও ফোরাম বাংলাদেশ, জিডিজি ক্লাউড বাংলা, বাংলাদেশ ওপেন সোর্স নেটওয়ার্ক, জেসিআই ঢাকা ওয়েস্ট, টেকনোলজি মিডিয়া গিল্ড বাংলাদেশ, বাংলাদেশ পজেটিভ ফাউন্ডেশন, সেন্টার ফর ওপেন নলেজ ও ড্রিমস ফর টুমরো, নাগরিক টিভি ও  রেডিও একাত্তর।

এডি/২০২০/সেপ্টেম্বর২৫/১৯২০

*

*

আরও পড়ুন