Samsung IM Campaign_Oct’20

৫ মিনিটেই শেষ হচ্ছে ফ্লাইং কারের যাত্রা

ফ্লাইং কার। ছবি : ইন্টারনেট
Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : প্লেনের মতো গাড়িও আকাশে ওড়ানোর স্বপ্ন পূরণের লক্ষ্যে একধাপ আগালো জাপানের স্কাইড্রাইভ কোম্পানি। পরীক্ষামূলকভাবে চালকসহই ৪ মিনিট উড়েছে তাদের ফ্লাইং কার।

এ বিষয়ে স্কাইড্রাইভের প্রধান তোমোহিরো ফুকুজাওয়া বলেন, ২০২৩ সালের মধ্যেই বাণিজ্যিক ভিত্তিতে এটি তৈরি করা যাবে। তবে নিরাপত্তা নিশ্চিত করাই হবে সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ। আপাতত ৫ থেকে ১০ মিনিটেই যাত্রা শেষ করতে হচ্ছে। ভবিষ্যতে সময় বাড়িয়ে আধা ঘণ্টা করা গেলে এটি সম্ভাবনাময় হয়ে উঠবে।

এতে ভ্রমণ করতে এয়ারপোর্টের মতো নিয়মাবলী অনুসরণের প্রয়োজন নেই। স্বয়ংক্রিয়ভাবে চলবে, তাই পাইলটেরও প্রয়োজন হবে না।

তবে বাণিজ্যিকভাবে ব্যাটারি, এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোল ও অবকাঠামো নির্মাণে জটিলতা দেখা দিতে পারে। এছাড়াও, কিছু সমস্যার কথা তুলে ধরেছেন কার্নেগি মেলন ইউনিভার্সিটির রোবোটিক্স ইনিস্টিটিউটের শিক্ষক সঞ্জিব সিং। তিনি বলেন, এটার দাম ১ কোটি ডলার হলে কেউ কিনবে না, আকাশে শুধু ৫ মিনিট ওড়ানোর জন্য ক্রেতা পাওয়া যাবে না এবং কখনও অ্যাক্সিডেন্ট করলেও বিক্রি হবে না।

বিশ্বে ফ্লাইং কার নিয়ে ১০০টিরও বেশি প্রকল্প চলমান আছে। এর মধ্যে শুধু কয়েকটি প্রকল্প চালকসহ টেস্ট ফ্লাইট সম্পন্ন করেছে। স্কাইড্রাইভের প্রকল্পটি শুরু হয় ২০১২ সালে। এতে গাড়ি নির্মাতা কোম্পানি টয়োটা, ইলেকট্রনিক্স নির্মাতা প্যানাসনিক ও ভিডিও গেইম তৈরির কোম্পানি বান্দাই নামকোর বিনিয়োগ আছে।

বাণিজ্যিকভাবে স্কাইড্রাইভের ফ্লাইং কারের বিক্রি শুরু হতে পারে ২০৩০ সালে।

ইন্টারনেট অবলম্বনে এজেড/ আগস্ট ২৯/২০২০/১২১০

আরও পড়ুন –

জাপানে পরীক্ষামূলকভাবে উড়লো ফ্লাইং কার

জাপানের আকাশে ইউএফও

*

*

আরও পড়ুন