কম্পিউটার গতিশীল রাখার উপায়

windows-8-tablet-keyboard-techshohor
Evaly in News page (Banner-2)

তুসিন আহমেদ, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর: বর্তমান সময়ে কম্পিউটার  ছাড়া যেন অচল। কি দাপ্তরিক, কি শিক্ষা , সব ক্ষেত্রে কম্পিউটারের প্রয়োজনীয়তা কতটা বেশি তা বলা অপেক্ষা রাখে না।  এটি  অনেক কম সময়ে প্রয়োজনীয় কাজটি করে ফেলতে পারে খুব সহজেই।  তাই এই যন্ত্রটির প্রতি নির্ভরশীলতা দিন দিন বাড়ছে।

তবে সহজে কাজ করার এই  যন্ত্রটি  মাঝে মাঝে আপনাকে ভোগাতেও পারে। কারণ টানা কাজ করতে করতে এটি মাঝে মাঝে খুব স্লো হয়ে যায় আর তখন ব্যবহারকারীর বিরক্তির শেষ থাকে না।

Desktop user girl_Tech Shohor

তাই কম্পিউটার ব্যবহার করেন এমন পাঠকদের জন্য টেক শহরের আজকের টিউটোরিয়ালে  কিভাবে কম্পিউটারকে গতিশীল রাখতে হবে সে সম্পর্কে তুলে ধরা হলো:

কম অ্যাপ্লিকেশন চালু রাখুন: কম্পিউটারের একসঙ্গে একাধিক প্রোগ্রাম কিংবা ওয়েবসাইট চালানের অনেক সময় র‍্যামের উপর প্রেসার পরে ফলে কম্পিউটার স্লো হয়ে যায়। তাই একত্রে একাধিক অ্যাপ্লিকেশন ওপেন না করলে কম্পিউটার গতিশীল থাকবে।

 কম্পিউটার ঠাণ্ডা রাখুন:  কম্পিউটারকে সব সময় ঠান্ডা রাখতে হবে। কেননা অতিরিক্ত গরম হয়ে গেলে কম্পিউটার বন্ধ হয়ে যেতে পারে। এ সমস্যা দেখা দিলে প্রথমেই কম্পিউটারের বাতাস চলাচলের পথগুলো উন্মুক্ত রাখতে হবে। ভেতরে ময়লা জমলে তা ভালোভাবে পরিষ্কার করতে হবে। ল্যাপটপে এমনটা হলে বাড়তি ফ্যানসহ কুলিং প্যাড ব্যবহার করতে পারেন। আর ডেস্কটপ কম্পিউটার বেশি গরম হলে বাড়তি ফ্যান লাগানোর ব্যবস্থা করতে হবে।

হার্ড ডিক্স খালি রাখুন: কম্পিউটারের হার্ড ডিক্সের জায়গা পরিপূর্ণ না রেখে সব সময় কিছুটা খালি রাখা উচিত। কেননা হার্ডডিক্স পরিপূর্ণ থাকলে কম্পিউটারের গতি কমে যেতে পারে। তাই গতি বাড়ানোর জন্য প্রথমেই আপনাকে হার্ড ডিস্কের কিছু জায়গা খালি করতে হবে।

অপ্রয়োজনীয় ফাইল মুছে ফেলুন:  অনেক কম্পিউটারেই বহু প্রোগ্রাম ইনস্টল করা থাকে, যেগুলোর কোনো প্রয়োজনীয়তা নেই। এসব অপ্রয়োজনীয় প্রোগ্রাম ও ফাইল মুছে ফেলাই হতে পারে গতি বাড়ানোর অন্যতম উপায়।

 টেম্পোরারি ফাইল ডিলিট করুন:  ওয়েবসাইট ভিজিট করলেই এসব ফাইল কম্পিউটার সেভ করে রাখে। আর এ প্রক্রিয়ায় কম্পিউটার ক্রমে ধীরগতির হয়ে যায়। এ ঝামেলা দূর করার জন্য আপনার নিয়মিত টেম্পোরারি ফাইল ডিলিট করা উচিত।

এ্যান্টিভাইরাস ব্যবহার করুন:  কম্পিউটারের কোনো  ভাইরাসের আক্রমন করলো কিনা তা কিছুদিন পর পর এ্যান্টিভাইরাস দিয়ে পরীক্ষা করে নেয়া উচিত।
 বাড়তি র‌্যাম:  কম্পিউটার যদি হয় পুরনো মডেলের তাহলে নতুন সফটওয়্যার চালাতে তা সমস্যায় পড়তে পারে। এ সমস্যা মোকাবেলায় কম্পিউটারে অতিরিক্ত র‌্যাম লাগালো উচিত। এতে করে কম্পিউটার আরও বেশি গতিময় হবে।

 

*

*

আরও পড়ুন