Techno Header Top and Before feature image

গ্যালাক্সি ইভেন্টে যা আনলো স্যামসাং

গ্যালাক্সি ইভেন্ট। ছবি : টেকক্রাঞ্চ
Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : গ্যালাক্সি ইভেন্টে স্যামসাং এনেছে ফোন, ফোল্ডেবল ফোন ও হেডফোন। ডিভাইসগুলোতে কী কী আছে তা নিয়েই বিস্তারিত থাকছে এই প্রতিবেদনে।

গ্যালাক্সি জেড ফ্লিপ

গ্যালাক্সি ফোল্ডের পর আবারও ফোল্ডেবল ফোন এনেছে স্যামসাং। জেড ফ্লিপ ফোনটির ভেতরের দিকের ডিসপ্লে ৬ দশমিক ৭ ইঞ্চি লম্বা। বাইরে থাকা ডিসপ্লেটি ১ ইঞ্চির, যাতে দেখা যাবে নোটিফিকেশন ও ব্যাটারি লাইফ ইন্ডিকেটর। ছোট্ট এই ডিসপ্লেতে সেলফিও তোলা যাবে। চাইলে ফোনটির অর্ধেক আনফোল্ড অবস্থায় রেখে  ‘ল্যাপটপ স্টাইল মোডে’ কাজ করা যাবে। এই অ্যাঙ্গেলে থাকলে ভিডিও কল করার সময় ফোন হাতে না ধরলেও চলবে।

ফোনটির বিক্রি শুরু হবে ১৪ ফেব্রুয়ারি থেকে। দাম ধরা হয়েছে ১ হাজার ৩৮০ ডলার (১ লাখ ১৫ হাজার ৯২০ টাকা)।

গ্যালাক্সি এস২০

ধারণা করা হয়েছিল, গ্যালাক্সি এস১০ এর পরবর্তী সিরিজের নাম হবে গ্যালাক্সি এস১১। তবে সে ধারণাকে ভুল প্রমাণ করে স্যামসাং নতুন সিরিজের নাম দিয়েছে গ্যালাক্সি এস২০।

এই সিরিজের গ্যালাক্সি এস২০, গ্যালাক্সি এস২০ প্লাস ও গ্যালাক্সি এস২০ আল্ট্রা সাপোর্ট করবে ফাইভজি নেটওয়ার্ক।

গ্যালাক্সি এস২০ ফোনে রয়েছে ৬ দশমিক ২ ইঞ্চি ডিসপ্লে। পেছনে রয়েছে ৩টি রিয়ার ক্যামেরা। যার একটিতে আছে ৬৪ মেগাপিক্সেলের টেলিফটো লেন্স। বাকি দুটি হলো ১২ মেগাপিক্সেলের আল্ট্রা ওয়াইড ও ওয়াইড অ্যাঙ্গেল ক্যামেরা। সেলফির জন্য আছে ১০ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা। ফোনটির দাম ধরা হয়েছে ৯৯৯ ডলার (৮৩ হাজার ৯১৬ টাকা)।

গ্যালাক্সি এস২০ প্লাসের ডিসপ্লে ৬ দশমিক ৭ ইঞ্চি লম্বা। ফোনটির ক্যামেরা স্পেসিফিকেশন এস২০ মডেলের মতোই। শুধু বাড়তি হিসেবে যোগ হয়েছে ডেপথ ভিশন ক্যামেরা। সেলফি ক্যামেরায় আছে ১০ মেগাপিক্সেলের লেন্স। দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ১১৯৯ ডলার (১ লাখ ৭১৬ টাকা)।

সবচেয়ে বড় ডিসপ্লের ফোন গ্যালাক্সি এস২০ আল্ট্রা। এর ডিসপ্লে ৬ দশমিক ৯ ইঞ্চি। ফোনটির পেছনে আছে ১০৮ মেগাপিক্সেলের ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স, ৪৫ মেগাপিক্সেলের টেলিফটো লেন্স, ১২ মেগাপিক্সেলের আল্ট্রা ওয়াইড লেন্স ও ডেপথ ভিশন ক্যামেরা। সামনে আছে ৪০ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা। দাম ধরা হয়েছে ১৩৯৯ ডলার (১ লাখ ১৭ হাজার ৫১৬ টাকা)।

সবগুলো ডিসপ্লেরই রিফ্রেশ রেট ১২০ হার্জ। প্রতিটি ফোনেই ভিডিও রেকর্ড করা যাবে ৮কে রেজুলেশনে। ফোনগুলোর প্রি-অর্ডার শুরু হবে ২১ ফ্রেব্রুয়ারি। বাজারে আসবে আগামী ৬ মার্চ।

গ্যালাক্সি বাডস প্লাস

অরিজিনাল গ্যালাক্সি বাডসের সঙ্গে নতুন গ্যালাক্সি বাডস প্লাসের ডিজাইনে বেশ মিল রয়েছে। বাডস প্লাসে মাইক্রোফোন রয়েছে ৩টি। সম্পূর্ণ চার্জে ডিভাইসটি টানা ১১ ঘণ্টা ব্যাকআপ দেবে। গ্যালাক্সি ফোন দিয়ে ‘পাওয়ার শেয়ার’ ফিচারটির মাধ্যমেও ডিভাইসটি চার্জ করা যাবে। বাডস প্লাসের কেইসটি শুধু ৩ থেকে ৪ মিনিট গ্যালাক্সি ফোনের উপর রাখতে হবে। এতেই ১ ঘণ্টার ব্যাকআপ পাওয়া যাবে।

বাডস প্লাসের দাম ধরা হয়েছে ১৪৯ ডলার। বিক্রি শুরু হবে ১৪ ফেব্রুয়ারি থেকে।

টেক ক্রাঞ্চ অবলম্বনে এজেড/ ফেব্রুয়ারি ১২/২০২০/১৫২৫

আরও পড়ুন –

এয়ারড্রপের মতো ফিচার গ্যালাক্সি এস২০ সিরিজে

ভিডিওতে ফাঁস গ্যালাক্সি জেড

*

*

আরও পড়ুন