Header Top

অ্যাপল স্টোরে 'প্যারা' যতো

Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : অ্যাপল স্টোরে যারা কাজ করেন তাদেরকে পণ্য মেরামতের কাজ করতে হয়।

এই পণ্য মেরামত করতে গিয়ে তাদেরকে নানান ধরণের গ্রাহকের সঙ্গে কথা বলতে হয়। এতে তাদের অভিজ্ঞতাও হয় ভিন্ন ধরনের। তবে এই কাজের সব অভিজ্ঞতাই যে ভালো, তা নয়। গ্রাহকদের কারণেই তাদেরকে বড় বড় চ্যালেঞ্জের মুখে পড়তে হয়। অ্যাপলের দেওয়া সুযোগ সুবিধা নিয়ে স্টোরগুলোর সাবেক কর্মীদের কোনো অভিযোগ নেই। যত অভিযোগ তার সবই গ্রাহকদের নিয়ে।

গ্রাহকদের কোন কোন আচরণে অ্যাপল স্টোরের কর্মীরা বিপদে পড়েন তা নিয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে সংবাদ মাধ্যম বিজনেস ইনসাইডার। সেখানে তারা গ্রাহকদের তরফ থেকে আসা চ্যালেঞ্জগুলোর ব্যাপারে কথা বলেছেন।

সত্য এড়িয়া যাওয়া

ফোন কিভাবে নষ্ট হয়েছে তা অনেক গ্রাহকই বলতে চান না। এতে করে ফোন ঠিক করাটা কঠিন হয়ে দাঁড়ায়।

ফোন ভেঙে গেলে অনেকেই মিথ্যা কথা বলেন। কিভাবে ফোন ভেঙেছে তা এড়িয়ে যান। এরকম ঘটনা প্রতি সপ্তাহেই একটি করে পাওয়া যায়।

আইক্লাউড পাসওয়ার্ড 

অ্যাপল স্টোরে এমন অনেক গ্রাহক আসেন যারা নিজেদের আইক্লাউড পাসওয়ার্ড জানেন না। ফলে আইক্লাউড পাসওয়ার্ড জানতে পরবর্তীতে আবারও তাদেরকে অ্যাপল স্টোরে আসতে হয়।

আইক্লাউড সচারাচর ব্যবহার করা হয় না বলে অনেকেই তা মনে রাখার প্রয়োজন বোধ করেন না।

জিমেইল ও ফেইসবুক পাসওয়ার্ড

শুধু আইক্লাউড নয়, জিমেইল ও ফেইসবুকের পাসওয়ার্ডও অনেকে ভুলে যান। এই পাসওয়ার্ড উদ্ধার করে দেওয়া কোনোভাবেই অ্যাপল স্টোরের কর্মীদের দায়িত্বের মধ্যে পড়ে না। তবে তারা গ্রাহকদেরকে নাও করতে পারেন না।

চার্জ থাকে না

মেরামতের জন্য ফোন আনার পাশাপাশি গ্রাহকদের চার্জারও আনতে হয়। চার্জার না আনলে অ্যাপল কর্মীদের যেমন সময় নষ্ট হয় তেমনি গ্রাহকদেরও সময়ের অপচয় হয়। চার্জার না থাকার বিষয়টি সবচেয়ে বেশি ঘটে অ্যাপল ওয়াচের ক্ষেত্রে।

বিজনেস ইনসাইডার অবলম্বনে এজেড/ডিসেম্বর ১৬/২০১৯/ ১০৫০

আরও পড়ুন – 

বিশ্বের সবচেয়ে বড় কোম্পানির তকমা হারালো অ্যাপল

আগামী দশকে যেসব ডিভাইস আনবে অ্যাপল

*

*

আরও পড়ুন