Techno Header Top and Before feature image

লেজার রশ্মীতেই স্পিকার হ্যাক!

Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : লেজার পয়েন্টারের রশ্মীর মাধ্যমে বড় বড় টেক জায়ান্ট কোম্পানিগুলির ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্ট হাইজ্যাক করা সম্ভব বলে জানিয়েছেন গবেষকরা।

টোকিওর ইলেক্ট্রো-কমিউনিকেশন বিশ্ববিদ্যালয় ও মিশিগান বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি গবেষণা দল জানান, স্মার্টস্পিকার ও কিছু স্মার্টফোনের মাইক্রোফোন উজ্জ্বল আলোকে শব্দে পরিণত করে। সরাসরি আলো তাক করলে স্মার্ট স্পিকারগুলো সক্রিয় হয়ে ওঠে।ফলে লেজার রশ্মী দিয়ে ডিভাইসের মাইক্রোফোনকে বিভ্রান্ত করে হ্যাকাররা ইলেক্ট্রিক সিগন্যাল তৈরি করতে পারে।

গবেষণায় গুগল অ্যাসিস্ট্যান্ট, অ্যাপলের সিরি, অ্যামাজনের অ্যালেক্সা ও ফেইসবুকের পোর্টাল ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্টগুলো পরীক্ষা করা হয়েছে। ফোনের মধ্যে পরীক্ষা করা হয়েছে আইফোন ১০ আর, স্যামসাং গ্যালাক্সি এস৯ ও গুগল পিক্সেল ২। সবগুলো ডিভাইসের নিরাপত্তা কোনো না কোনো পর্যায় পর্যন্ত ভেদ করা সম্ভব বলে জানিয়েছেন তারা।

গবেষকরা লেজার রশ্মী দিয়ে গুগল হোম স্পিকারকে বিভ্রান্ত করে ২৩০ থেকে ৩৫০ ফুট দূর থেকে গ্যারেজ খুলতে পেরেছেন। তারা জানান, অনলাইনে জিনিসপত্র কিনতে, স্মার্ট হোম স্যুইচ নিয়ন্ত্রণে এবং স্পিকারের সঙ্গে সমন্বয় করা গাড়ির লক খুলতে এই সিস্টেম ব্যবহার করতে পারে হ্যাকাররা।

স্মার্টফোনে ওয়েক ওয়ার্ড যেমন হেই সিরি ও ওকে গুগল বলে ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্টগুলোকে সক্রিয় করতে হয়। কিন্তু স্মার্টস্পিকারে এই নিরাপত্তা স্তর নেই বলে এগুলো সহজেই হ্যাক করা সম্ভব।

নিরাপত্তা ভেদ করার এ পদ্ধতি সম্পর্কে অ্যামাজন, অ্যাপল, গুগল, ফোর্ড ও টেসলাকে জানিয়েছেন গবেষকরা।

এ বিষয়ে গুগলের এক মুখপাত্র ইমেইলে জানিয়েছেন, আমরা এই গবেষণা পত্রটি খুব গভীরভাবে পর্যালোচনা করছি। আমাদের ব্যবহারকারীদের রক্ষা করা আমাদের দায়িত্ব। সব সময়ই আমরা ডিভাইসের সুরক্ষা বৃদ্ধির পথ খুঁজি।

অ্যামাজন জানিয়েছে, গ্রাহকদের আস্থা অর্জনেই আমরা সবচেয়ে বেশি অগ্রাধিকার দেই। পণ্যে নিরাপত্তা নিশ্চিতেও আমরা যথেষ্ট গুরুত্ব দিয়ে থাকি।

তবে অ্যাপল ও টেসলা এ ব্যাপারে এখনো কোনো মন্তব্য করেনি।

বিজনেস ইনসাইডার ও সিনেট অবলম্বনে পিএন/ এজেড/ নভেম্বর ০৬/২০১৯/১৬২৫

আরও পড়ুন –

সাইবার হামলার পরও নিরাপত্তা কৌশল বদলায় না ৪৬% প্রতিষ্ঠান 

ব্রিটেনে বিভিন্ন রাউটারে হামলা করছে রাশিয়া 

সাইবার নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠানই হ্যাকারের কব্জায়!

*

*

আরও পড়ুন