কল ড্রপে এগিয়ে, ক্ষতিপূরণে পিছিয়ে জিপি

Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : অপারেটরগুলো ফেরতের তথ্য দিলেও বড় সংখ্যক গ্রাহকের অভিযোগ ক্ষতিপূরণ হিসেবে কল ড্রপের মিনিট পাওয়ার অভিজ্ঞতা কম তাদের।

সর্বশেষ এক প্রতিবেদনে দেখা গেছে, মোবাইল ফোনে কল ড্রপের সংখ্যায় গ্রাহক সেরা অপারেটর গ্রামীণফোন এগিয়ে। আবার ক্ষতিপূরণে সবচেয়ে পিছিয়ে তারাই।

বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনের (বিটিআরসি) অপ্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এমন তথ্য দেখা গেছে।

অপারেটরগুলোর কাছ থেকে তথ্য নিয়ে বিটিআরসি এই প্রতিবেদন তৈরি  করেছে।

এতে বলা হয়ে, গত বছরের জুলাই থেকে চলতি বছরের আগস্ট পর্যন্ত ১৩ মাসে গ্রামীণফোনের মোট কল ড্রপের পরিমান ছিল ৭৯ কোটি ৭ লাখ মিনিট।

এর মধ্যে থেকে গ্রামীণফোন গ্রাহককে ক্ষতিপূরণ হিসেবে দিয়েছে মাত্র ৬ কোটি ২২ লাখ মিনিট। শতাংশের হিসেবে তাদের অবস্থানই সবচেয়ে খারাপ। মোট ড্রপ হওয়া কলের মাত্র ৭ দশমিক ৮৭ শতাংশ ক্ষেত্রে গ্রাহদেরকে ক্ষতিপূরণ দিয়েছে।

একই সময়ে রবি’র নেটওয়ার্কে ড্রপের ঘটনা ঘটে ৭৪ কোটি ৬৮ লাখ বার। এর মধ্যে তারা গ্রাহকদেরকে ক্ষতিপূরণ দিয়েছে ৭ কোটি ২৯ লাখ মিনিট, যা তাদের মোট ড্রপ হওয়া কলের ৯ দশমিক ৭৬ শতাংশ।

বাংলালিংকের নেটওয়ার্কে একই সময়ে মোট ২২ কোটি চার লাখটি কল ড্রপের হিসাব রয়েছে। এর মধ্যে তারা ৮ দশমিক ৪৪ শতাংশ ক্ষেত্রেই গ্রাহকদেরকে ক্ষতিপূরণ দিয়েছে।

অন্যদিকে রাষ্ট্রায়ত্ত অপারেটর টেলিটকে মোট পাঁচ কোটি ৪৬ লাখ বার কল ড্রপেব হিসাব রয়েছে। তবে তারা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কোনো হিসাব জমা দেয়নি।

২০১৬ সালে চালু হওয়া নিয়মে প্রতিদিন দুটি কল ড্রপ হলে দ্বিতীয় ড্রপ থেকেই গ্রাহকরা প্রতি ড্রপের জন্য এক মিনিট করে ফেরত পাবেন।

তবে বেশিরভাগ গ্রাহকের অভিযোগ কালে ভদ্রেে তারা কল ড্রপের মিনিট ফেরত পান।

জেডএ/আরআর/৩০ অক্টোবর/২০১৯/০১.৫২

আরও পড়ুন –

সেই কলড্রপেই ধরা জিপি 

থ্রিজির গতি ২ এমবিপিএস, কল ড্রপ সর্বোচ্চ ২%

*

*

আরও পড়ুন