Header Top

দক্ষিণপূর্ব এশিয়ার ইন্টারনেট অর্থনীতি হবে ৩০০ বিলিয়ন ডলার

pad-user-interface-techshohor
Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : হু হু করে বাড়ছে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার ইন্টারনেট অর্থনীতি। 

অনলাইন শপিং, রাইড শেয়ারিং, ফুল ডেলিভারির মতো বিষয়গুলো দ্রুত বাড়ার সফলতায় এই অঞ্চলের ইন্টারনেট ইকোনমি বাড়ছে বলে বৃহস্পতিবার এক রিপোর্টে বলা হয়েছে। 

রিপোর্টটি তৈরি ও প্রকাশ করেছে গুগল, সিঙ্গাপুর স্টেট ইনভেস্টর টিমাসেক হোল্ডিংস এবং গ্লোবাল বিজনেস কনসালটেন্ট বেইন অ্যান্ড কোম্পানি। 

রিপোর্ট থেকে জানা যায়, আগামী ২০২৫ সালের মধ্যে এই অঞ্চলের ইন্টারনেট অর্থনীতির আকার দাঁড়াবে ৩০০ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে। 

যা আগামী পাঁচ বছরে ২০০ শতাংশ বাড়বে। চলতি বছরে এই অঞ্চলের ইন্টারনেট অর্থনীতির পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ১০০ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে। 

বালা হচ্ছে, আগামীতে এই অঞ্চলের মানুষের ইন্টারনেট ব্যবহারের পরিমাণও বাড়বে। সংখ্যায় সেটা যেমন বাড়বে তেমনি আবার সময়ের হিসাবেও বাড়বে।ফলে দেখা যাবে, মানুষজন তাদের হাতে থাকা স্মার্টফোনেই বিমানের টিকিট কাটা, ব্যাংকিং এবং গেইম খেলা ও তার জন্য যে পারসেজ সেটিও করবে। 

দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার মানুষরা এখনি ইন্টারনেটে অনেক অভ্যস্ত হয়ে পড়েছে। ফলে তারা আগামীতে আরও বেশি করে ইন্টারনেট কেন্দ্রিক সেবা চাইবে এবং তার উন্নয়ন চাইবে বলে ৬৪ পৃষ্ঠার সেই রিপোর্ট বলছে। 

গত চার বছরে এই অঞ্চলে অন্তত ৩৭ বিলিয়ন মার্কিন ডলার বিনিয়োগ হয়েছে, যার বেশিরভাগই গেছে ই-কমার্স প্রতিষ্ঠানগুলোতে। যার মধ্যে ফ্যাশন রিটেইলার জিলিঙ্গো এবং রাইড শেয়ারিং প্রতিষ্ঠান গ্র্যাব, গোজ্যাকের মতো প্রতিষ্ঠান রয়েছে। 

২০১৫ সালে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় রাইড শেয়ারিং প্রতিষ্ঠানের সম্পদ ছিল মাত্র ১৩ বিলিয়ন ডলার, সেটা ২০২৫ সালে বেড়ে দাঁড়াবে ৪০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। একই সঙ্গে ফুড ডেলিভারির থেকেও বাড়বে। 

রয়টার্স অবলম্বনে ইএইচ/ অক্টো ০৩/ ২০১৯/ ২০৪০

*

*

আরও পড়ুন