লন্ডনে উবার বন্ধ হচ্ছে?

uber-techshohor
Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : ২০১৭ সালে যাত্রীদের নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ বিবেচনায় এনে রাইড শেয়ারিং প্রতিষ্ঠান উবারের লাইসেন্সের মেয়াদ মাত্র ১৫ মাস বাড়িয়ে দেয় আদালত।

বেঁধে দেওয়া সময় পার হয়েছে। এমনকি প্রতিষ্ঠানটির লন্ডনে যে লাইসেন্স নিয়ে চলছিল তার মেয়াদও শেষ হয়েছে গত বুধবার। কিন্তু এরপর অবাক করে দিয়ে উবার মাত্র দুই মাসের জন্য লাইসেন্স বাড়ানোর আবেদন করেছে উবার।

উবারের এমন আবেদনে অনেকেই অবাক হয়েছেন। তাদের মনে প্রশ্ন ঘুরছে, তাহলে কী উবার লন্ডনে তাদের ব্যবসা গুটিয়ে নিচ্ছে? বা লন্ডন ছেড়ে চলে যাচ্ছে?

প্রশ্ন উঠলেও কিছুটা উত্তর পাওয়া গেছে ট্রান্সপোর্ট ফর লন্ডনের কাছ থেকে। প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, উবার তাদের লন্ডনে লাইসেন্সের মেয়াদ মাত্র দুই মাস বাড়ানোর আবেদন করেছে। তাদের আরও কিছু তথ্য দিতে হবে বলে সাময়িকভাবে সময় বাড়ানোর এমন আবেদন করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

তবে এখন যে কয়েক মাসের জন্যই লাইসেন্স পাক না কেনো উবারকে যাত্রী নিরাপত্তা সঠিকভাবেই দিতে হবে।

দুই মাস সময় পেলেও সবকিছু বিবেচনা করে পাঁচ বছরের লাইসেন্স পাবার জন্য প্রতিষ্ঠানটিকে অপেক্ষা করতে হবে আগামী নভেম্বর পর্যন্ত। তখনই সিদ্ধান্ত হবে উবার লন্ডনে লাইসেন্স আরও সময়ের জন্য পাবে কিনা।

যদি ওই সময়ের মধ্যে লাইসেন্স না পায় উবার তাহলে ইউরোপের গুরুত্বপূর্ণ দেশটিতে আর ব্যবসা করতে পারবে না উবার।

বিশ্বের সবচেয়ে বড় রাইড শেয়ারিং প্রতিষ্ঠান এখন উবার। ২০১৬ সালে বাংলাদেশেও উবার তাদের কার্যক্রম শুরু করে লাইসেন্স না নিয়েই। এরপর বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন সংস্থা প্রতিষ্ঠানটিকে নিষিদ্ধও করেছিল। কিন্তু পরে রাইড শেয়ারিং নীতিমালা করা হলে দেশে লাইসেন্সের জন্য আবেদন করে প্রতিষ্ঠানটি।

চলতি বছরের জুলাইয়ের রাইড শেয়ারিংয়ের প্রথম প্রতিষ্ঠান হিসেবে লাইসেন্স পায় দেশিও প্রতিষ্ঠান পিকমি। কিন্তু তখনও লাইসেন্সের জন্য আবেদন করেছিল না উবার।

বিবিসি অবলম্বনে ইএইচ/ সেপ্টে ২৪/ ২০১৯/ ২১৫৫

*

*

আরও পড়ুন