এলো গ্যালাক্সি নোট ১০ সিরিজ

Note-10-techshohor

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : নিউইয়র্কে উন্মোচন হলো গ্যালাক্সি নোট ১০। দুটি সংস্করণে ডিভাইসটি বাজারে এনেছে স্যামসাং।

৬ দশমিক ৩ ইঞ্চি অ্যামোলেড ডিসপ্লেসহ এসেছে গ্যালাক্সি নোট ১০। ডিসপ্লের রেজুলেশন ২২৮০ বাই ১০৮০ পিক্সেল।

৬ দশমিক ৮ ইঞ্চি অ্যামোলেড ডিসপ্লেসহ এসেছে গ্যালাক্সি নোট ১০ প্লাস। ডিসপ্লের রেজুলেশন ৩০৪০ বাই ১৪৪০ পিক্সেল।

আগে বিভিন্ন ফাঁস হওয়া প্রতিবেদনে জানা যায়, দুটি সংস্করণ‌ই ফাইভজি নেটওয়ার্ক সমর্থন করবে। তবে এমন কিছু ঘটেনি। গ্যালাক্সি নোট ১০ প্লাসের আলাদা ফাইভজি সংস্করণ এনেছে স্যামসাং। ফাইভজি মডেম বাদে ফোন দুটিতে আর কোনো পার্থক্য নেই।

গ্যালাক্সি নোট ১০ প্লাস ফাইভজি সংস্করণটির দাম ধরা হয়েছে ১২৯৯ ডলার (১ লাখ ৯ হাজার ১১৬ টাকা)। চলতি বছরের প্রথমে উন্মোচিত গ্যালাক্সি এস১০ ফাইভজিও একই দামে বাজারে এসেছে।

তবে নোট ১০ প্লাসের ফাইভজি সংস্করণটি যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র ও অস্ট্রেলিয়া বাদে নির্দিষ্ট কিছু দেশে মিলবে বলে জানিয়েছে স্যামসাং।

বৃহস্পতিবার থেকেই দেশের বাজারে প্রিঅর্ডার শুরু হয়েছে, যা ৩১ আগস্ট পর্যন্ত প্রিঅর্ডার নেবে স্যামসাং। ১ সেপ্টেম্বর থেকে ডিভাইসটি ক্রেতাদের কাছে হস্তান্তর শুরু করবে প্রতিষ্ঠানটি। 

গ্যালাক্সি নোট ১০ এর প্রতিটি সংস্করণেই আছে কোয়ালকমের স্ন্যাপড্রাগন ৮৫৫ চিপসেট।

গ্যালাক্সি নোট ১০ ও গ্যালাক্সি নোট ১০ প্লাসের ক্যামেরা সেটআপে তেমন কোনো পার্থক্য নেই। দুটি ফোনেই আছে ১২ মেগাপিক্সেলের ডুয়েল অ্যাপারচার লেন্স, ১৬ মেগাপিক্সেলের ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স, ১২মেগাপিক্সেলের টেলিফটো লেন্স। এছাড়া, ব্লার ব্যাকগ্রাউন্ড ও পোর্ট্রেইট ভিডিওর জন্য গ্যালাক্সি নোট ১০ প্লাসে যোগ করা হয়েছে থ্রিডি ডেপথ সেন্সিং ক্যামেরা।

দুটি ফোনেই লেন্স অদল বদল করে ছবি তোলার সুযোগ রেখেছে স্যামসাং।

সেলফির জন্য আছে ১০ মেগাপিক্সেল লেন্স। নোট ১০ ফোনগুলোতে ডুয়েল সেলফি ক্যামেরা রাখেনি স্যামসাং। কারণ হিসেবে তারা জানিয়েছে, পোর্ট্রেইট সেলফি তোলার জন্য উন্নতমানের সফটওয়্যার ব্যবহার করা হয়েছে।

গ্যালাক্সি নোট ১০ এর ৮ জিবি র‍্যাম ও ২৫৬ জিবি স্টোরেজ সংস্করণের দাম ৯৪৯ ডলার (৭৯ হাজার ৭১৬ টাকা)। এতে মাইক্রোএসডি কার্ড স্লট রাখা হয়নি। ফোনটির ব্যাটারির শক্তি হবে ৩৫০০ এমএএইচ, যা সাপোর্ট করবে ২৫ ওয়াটের ফাস্ট চার্জিং।

Note-10-techshohor1
রেইনবো কালার অপশন। ছবি : সিনেট

উভয় ফোনেই অপারেটিং সিস্টেমে আছে অ্যান্ড্রয়েড ৯.০ পাই। দুটি ফোনেই বাদ পড়েছে হেডফোন জ্যাক, বিক্সবি বাটন ও ফিঙ্গেরপ্রিন্ট সেন্সর। ফোনগুলো পাওয়া যাবে অরা গ্লো, অরা হোয়াইট ও অরা ব্ল্যাক রঙে।

গ্যালাক্সি নোট ১০ প্লাসের ১২ জিবি র‍্যাম ও ২৫৬ জিবি স্টোরেজ সংস্করণের দাম ১০৯৯ ডলার (৯২ হাজার ৩১৬ টাকা)। ৫১২ জিবি স্টোরেজ পেতে হলে আরও ১০০ ডলার বেশি খরচ করতে হবে। চাইলে মাইক্রোএসডি কার্ডার মাধ্যমে ১ টেরাবাইট পর্যন্ত স্টোরেজ বাড়ানো যাবে। ফোনটির ব্যাটারির শক্তি হবে ৪৩০০ এমএএইচ।

বাংলাদেশের ক্রেতারা ১০ হাজার টাকা ছাড়ে গ্যালাক্সি নোট ১০ প্লাসের প্রি-অর্ডার করতে পারবেন। যার দাম হবে এক লাখ ৩৪ হাজার ৫০০ টাকা। সর্বোচ্চ ১৮ মাসের ইএমআই সুবিধা পাবেন গ্রাকহরা।  সিটি ব্যাংকের অ্যামেক্স ক্রেডিট কার্ডে কিনলে আরও পাঁচ হাজার টাকা ক্যাশব্যাক দেবে স্যামাসং।

ডিভাইসটি কেনার সময় দ্বিতীয় বছরের জন্য ওয়ারেন্টি প্যাকেজ কিনলে ‘ওয়ান-টাইম স্ক্রিন রিপ্লেসমেন্ট’(নেভার মাইন্ড অফার) সুবিধা পাওয়া যাবে। 

স্যামসাং বাংলাদেশের হেড অব মোবাইল মো. মূয়ীদুর রহমান বলেন, জীবনে কাজের পাশাপাশি গেইমিং ও বিনোদন উপভোগ করার সামঞ্জস্য বজায় রাখতে যারা পছন্দ করে তাদের জন্যই মূলত গ্যালাক্সি নোট ১০ প্লাস। এছাড়া যারা সবসময় সেরা ডিভাইস চান তাদের জন্য নোট১০ আদর্শ ডিভাইস। 

সিনেট অবলম্বনে এজেড/ আগস্ট ০৯/ ২০১৯ /১১১৮

*

*

আরও পড়ুন