সপ্তাহে শিশুদের স্ক্রিন টাইম ৩০ ঘণ্টার বেশি

baby-techshohor
Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : এখন আর স্মার্টফোন হাতে পাওয়ার কোনো বয়স নেই। বুঝ হওয়ার পর থেকে স্মার্টফোনে আসক্ত হয়ে পড়ছে শিশুরা।

এক গবেষণায় দেখা গেছে, ৪২ শতাংশ শিশু সপ্তাহে ৩০ ঘণ্টার বেশি স্মার্টফোন ব্যবহার করে।

ফোনের দাম তুলনা করার ওয়েবসাইট সেল সেল এর পরিচালিত এক গবেষণায় এ তথ্য জানা গেছে।

যুক্তরাষ্ট্রের ৪ থেকে ১৪ বছর বয়সী ১১৩৫ শিশুর উপর এই জরিপ চালানো হয়। ফলাফলে দেখা যায়, ৪৭ শতাংশ শিশু ছয় বছর বয়স হওয়ার আগেই স্মার্টফোন ব্যবহার করা শুরু করে। এক থেকে দুই বছর বয়সের মধ্যে ফোন ব্যবহার করা শুরু করে ১২ শতাংশ শিশু।

তবে এতো কম বয়সে স্মার্টফোন ব্যবহারের পেছনে অভিভাবকদেরও হাত রয়েছে। জরিপে ৪০ শতাংশ অভিভাবক জানিয়েছেন, বাচ্চাকে চুপ করাতেই স্মার্টফোন ব্যবহারের অনুমতি দিচ্ছেন তারা।

অভিভাবকদের মধ্যে এক চতুর্থাংশ জানিয়েছেন, ফোনের পেছনে তাদের ২৫০ ডলার পর্যন্তও খরচ হচ্ছে তাদের।

বাবা-মা সাধারণত তিনটি কারণে সন্তানদের হাতে ফোন তুলে দেন। সন্তানের সঙ্গে যোগাযোগ করতে, শিক্ষামূলক কনটেন্ট দেখাতে এবং সন্তান যাতে তার বন্ধুদের সঙ্গে কথা বলতে পারে সে সুযোগ করে দিতে। সেল সেলের গবেষণায় দেখা গেছে, ৫৭ শতাংশ শিশু গেইম খেলতে স্মার্টফোন ব্যবহার করে। টিভি ও সিনেমা দেখতে ব্যবহার করে ৫০ শতাংশ শিশু।

কমন সেন্স মিডিয়ার  গবেষণা অনুযায়ী, টিনেজাররা প্রতিদিন সাড়ে ৬ ঘণ্টা এই ডিজিটাল ডিভাইসের পেছনে ব্যয় করে। তবে এই হিসাবের সঙ্গে স্কুলে হোমওয়ার্ক করার ক্ষেত্রে ডিভাইস ব্যবহারের সময়ক্ষণ যুক্ত করা হয়নি।

মে মাসের একটি গবেষণায় দেখা গেছে, এক তৃতীয়াংশ কিশোরী তাদের ডিভাইস পাশে রেখে ঘুমায়। ছেলেদের চেয়ে মেয়েদের মধ্যে এই প্রবণতা বেশি।

সিনেট অবলম্বনে এজেড/জুলাই ১৭/২০১৯/১০৩০

আরও পড়ুন –

কোন বয়সে কতটা স্ক্রিন টাইম

টানা কতোক্ষণ স্ক্রিনে তাকানো যাবে?

সন্তানদেরকে প্রযুক্তি পণ্য থেকে দূরে রেখেছিলেন যারা

*

*

আরও পড়ুন