ট্যাক্স ছাড় চাইছেন ভেঞ্চার ক্যাপিটালিস্টরা

Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : আগামী ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেটে অল্টারনেটিভ ইনভেস্টমেন্ট ফান্ড ম্যানেজার্স ও হাই নেট ওর্থ ইন্ডিভিজ্যুয়াল (এইএনআই) ইনভেস্টরদের ট্যাক্স মওকুফ এবং প্রভিডেন্ট ফান্ড ইনভেস্টমেন্টের ক্ষেত্রে ট্যাক্স ছাড়ের দাবি জানিয়েছে ভেঞ্চার ক্যাপিটাল অ্যান্ড প্রাউভেট ইক্যুইটি অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ভিসিপিয়াব)।

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল প্রস্তাবিত ২০১৯-২০২০ অর্থবছরের বাজেট নিয়ে বৃহস্পতিবার রাজধানীর কারওয়ান বাজারের জনতা টাওয়ারে এক সংবাদ সম্মেলনে এই দাবি জানায় স্থানীয় স্টার্টআপ ইকোসিস্টেম তৈরিতে কাজ করা সংগঠনটি।

ভিসিপিয়াব চেয়ারম্যান এবং পেগাসাস টেক ভেঞ্চারের জেনারেল পার্টনার শামীম আহসান বলেন, যুক্তরাষ্ট্র, সিঙ্গাপুর, ইন্দোনেশিয়ার মতো দেশগুলোতে অর্থনৈতিক উন্নয়নের সঙ্গে ভেঞ্চার ক্যাপিটালের সম্পর্ক উল্লেখজনকভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে, যেখানে ভেঞ্চার ক্যাপিটাল প্রতিষ্ঠানগুলো সরকারের কাছ থেকে প্রয়োজনীয় পলিসি সহায়তা পায় এবং বড় বড় মাল্টি-বিলিয়ন ডলারের কোম্পানির উত্থানে সরাসরি সহায়তা করে।

তিনি বলেন, ভেঞ্চার ক্যাপিটাল সরাসরি কর্মসংস্থান সৃষ্টি, আত্ম-কর্মসংস্থানের সুযোগ তৈরি এবং প্রায়শই ক্ষুদ্র ও নতুন কোম্পানির একমাত্র অর্থনৈতিক উৎস হিসেবে কাজ করে। অতি প্রয়োজনীয় অল্টারনেটিভ ইনভেস্টমেন্ট রুলস, ২০১৫ এবং অন্যান্য রেগুলেটরি সহায়তা দেয়ার জন্য আমরা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) এর ভূমিকা স্বীকার করি।

এছাড়া ভেঞ্চার ক্যাপিটার এবং প্রাইভেট ইক্যুইটি খাতের প্রয়োজন মেটাতে অর্থ মন্ত্রণালয় এবং জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)-ও খুবই আন্তরিক। এইএনআই ইনভেস্টরদের ট্যাক্স মওকুফ এবং প্রভিডেন্ট ফান্ড ইনভেস্টমেন্টের ক্ষেত্রে ট্যাক্স ছাড়ের পলিসি সহায়তা পেলে এই খাতে যুগান্তকারী পরিবর্তন আসতে পারে বলেন তিনি।

ভিসিপিয়াব ভাইস চেয়ারম্যান ও ভিআইপিবি অ্যাসেট ম্যানেজমেন্টের চেয়ারম্যার জিয়া ইউ আহমেদ বলেন, মোবাইল খাতের বিদ্যমান ভ্যাট ও সম্পূরক কর ধারাবাহিকভাবে মওকুফ, ভ্যাট নিবন্ধনের পরিমাণ বৃদ্ধি, ৫০ লাখ থেকে ৩ কোটি বার্ষিক টার্নওভারের এসএমই প্রতিষ্ঠানগুলোর ক্ষেত্রে চার শতাংশ টার্নওভার ট্যাক্স খুবই ভালো উদ্যোগ।

অল্টারনেটিভ ইনভেস্টমেন্ট ফান্ডে ব্যক্তিগত বিনিয়োগের জন্য উৎসাহী করতে এবং এআইএফএম ইন্ডাস্ট্রি খাতের প্রচার ও প্রসারে, অল্টারনেটিভ ইনভেস্টমেন্ট ফান্ডে হাই নেট ওর্থ ইন্ডিভিজ্যুয়াল (এইচএনআই) বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগের ক্ষেত্রে ট্যাক্স অব্যহতি দেয়া উচিত, যা ইনস্যুরেন্স ও অন্যান্য ক্ষেত্রে দেয়া হয়। এছাড়া প্রভিডেন্ট ফান্ডে বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগের ক্ষেত্রে ট্যাক্স ছাড় দেয়া উচিত বলে মনে করেন তিনি।

ভিসিপিয়াব মহাসচিব এবং বিডি ভেঞ্চার লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শওকত হোসেন অল্টারনেটিভ ফান্ড ম্যানেজারদের আয়কর আগামী ১০ বছরের জন্য পুরোপুরি অব্যহতি কিংবা আয়করের হার কমানোর দাবি করেন।

এছাড়াও তিনি স্টার্টআপের জন্য ১০০ কোটি টাকা বরাদ্দ করায় সরকারকে ধন্যবাদ জানান।

তিনি বলেন, বাংলাদেশের ভেঞ্চার ক্যাপিটাল কোম্পানিগুলো যথাযথ পলিসি সহায়তা পেলে স্টার্টআপ খাতে হাজারো কোটি টাকা বিনিয়োগ করতে পারবে। তাই সরকার থেকে আমাদের এসকল পলিসি সহায়তা প্রয়োজন।

এছাড়াও বক্তব্য দেন ভিসিপিয়াব পরিচালক এবং মসলিন ক্যাপিটাল লিমিটেডের প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক ওয়ালী-উল মারুফ মতিনসহ আরও অনেকেই।

ইএইচ/জুন ২০/ ২০১৯/ ১৬১৩

*

*

আরও পড়ুন