কলরেট বাড়ানোসহ চার বিধিনিষেধে জিপির মতামত চেয়েছে বিটিআরসি

ছবি : টেকশহর
Robi Before feture image

আল-আমীন দেওয়ান, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর :  এসএমপির বিধিনিষেধ কার্যকর করার আগে জিপির মতামত চেয়েছে বিটিআরসি। 

রোববার অপারেটরটিকে এ বিষয়ে বক্তব্য জানাতে ১৫ দিনের সময় দিয়ে চিঠি দিয়েছে নিয়ন্ত্রণ সংস্থাটি। 

চিঠিতে জিপির সর্বনিম্ন কলরেট ৫ পয়সা বাড়ানো, আন্তঃসংযোগ চার্জ ৫ পয়সা বাড়িয়ে ১৫ পয়সা করা, এমএনপির লকিং পিরিয়ড ৬০ দিনে আনা, বিভিন্ন প্যাকেজ, সার্ভিস, অফার অনুমোদনের ক্ষেত্রেও কড়াকড়ি আরোপ নিয়ে চারটি বিধিনিষেধের কথা উল্লেখ করা হয়েছে। 

যেখানে অন্য অপারেটরদের সর্বনিম্ন কলরেট ৪৫ পয়সা, আন্ত:সংযোগ চার্জ ১০ পয়সা, এমএনপি লকিং পিরিয়ড ৯০ দিন রয়েছে।  

গ্রামীণফোনের ডিজিএম এক্সটার্নাল কমিউনিকেশন মুহাম্মদ হাসান টেকশহরডটকমকে জানান, বিটিআরসির কাছ থেকে এ বিষয়ে একটি নোটিশ পেয়েছেন তারা যেখানে ১৫ দিনের মধ্যে বক্তব্য জানাতে বলা হয়েছে।

‘এই নোটিশ মূল্যায়ন করে যথাযথ পদক্ষেপ নেবে গ্রামীণফোন’ উল্লেখ করেন এই কর্মকর্তা। 

গত সপ্তাহে বিটিআরসির নিয়মিত কমিশন বৈঠকে গ্রামীণফোনের বিষয়ে এসব বিধিনিষেধ আরোপের সিদ্ধান্ত হয়।

এর আগে ১৭ এপ্রিল টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ে অনুষ্ঠিত এক বৈঠকে অপারেটরটির কলরেট বাড়ানোসহ আরও কিছু বিধিনিষেধ আরোপের সিদ্ধান্ত হয়।

ওই বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় উপস্থিত ছিলৈন। 

এসএমপি নীতিমালা অনুসারে কোনো একটি বিধিনিষেধ আরোপের আগে এ বিষয়ে এসএমপি ঘোষিত অপারেটরের মতামত নিতে হবে। তবে মতামত মানার ক্ষেত্রে কোনো বাধ্যবাধকতা নেই।

এর আগেও এসএমপি বিষয়ে গ্রামীণফোনের মতামত নিয়েছিল বিটিআরসি। তখন গ্রামীণফোন বলেছে, এটি প্রতিযোগিতা আইনের পরিপন্থী।

চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে গ্রামীণফোনকে এসএমপি অপারেটর হিসেবে ঘোষণা করা হয় এবং ১৮ ফেব্রুয়ারি চারটি বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়।

কিন্তু বিষয়টি নিয়ে গ্রামীণফোন আদালতে গেলে বিটিআরসিকে এর কারণ জানাতে বলে আদালত।

এরপর ১৯ মার্চ আগের বিধিনিষেধ বাতিল করে বিটিআরসি। বিধিনিষেধ সংক্রান্ত জটিলতা দূর করতে প্রক্রিয়াটি নতুন করে শুরু করে কমিশন।

এসএমপি ঘোষিত অপারেটরের জন্যে সব মিলে ২০টি বিধিনিষেধের একটি তালিকা করেছে বিটিআরসি, যা সময় সময়ে তারা জারি করবে।

আইজেড/এডি/মে১২/২০১৯/২২০০

আরও পড়ুন – 

কর্মীদের অধিকার আদায়ে কাজ করে জিপিইইউ

টাকা না দিলে জিপির কল ব্লক এনওসি বন্ধ

*

*

আরও পড়ুন