ল্যারি পেইজের হস্তক্ষেপ চান গুগল কর্মীরা

গুগলের প্রধান কার্যালয়, মাউন্ট ভিউ ক্যালিফোর্নিয়ায় কর্মীদের প্ল্যাকার্ড প্রদর্শন ছবি : রয়টার্স

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানির ঘটনায় আবার ফুঁসে উঠতে শুরু করেছেন গুগল কর্মীরা।

গত নভেম্বরে বিশ্বব্যাপী কর্মবিরতি পালন করে অফিস থেকে বেরিয়ে এসেছিল প্রায় ২০ হাজার কর্মী। তবে তাতেও কোন সুরাহা হয়নি দাবি করে কর্মীরা এবার আল্টিমেটাম দিতে যাচ্ছেন। তাই বিষয়গুলো সুরাহার জন্য ল্যারি পেইজের হস্তক্ষেপ চেয়েছেন কর্মীরা।

গুগলের প্রতিষ্ঠাতা এবং এর মূল প্রতিষ্ঠান অ্যালফাবেটের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ল্যারি পেইজকে খুব শিগগির গুগলের আন্দোলন করা কর্মীদের সঙ্গে দেখা করার আহব্বান জানিয়েছেন কর্মীরা।

শুধু তাই নয়, ল্যারি পেইজকে দেখা করে যৌন হয়রানির ঘটনাকে জনসম্মুখে তুলে ধরার দাবিও জানিয়েছেন তারা।

‘গুগল ওয়াকআউট ফর রিয়েল চেঞ্জ’ নামের এক অনলাইন মিডিয়া পাবলিশিং গ্রুপ তৈরি করেছেন আন্দোলনকারীরা। সেখান থেকেই এমন আহব্বান জানানো হয়েছে।

আন্দোলনকারীরা বলছেন, ঘটনার পর গুগল ছয় মাসের সময় নিয়েছিল এমন হয়রানি রোধ করার জন্য ব্যবস্থা গ্রহণ করতে। কিন্ত এর মধ্যে কোন কিছুই করেনি প্রতিষ্ঠানটি।

আন্দোলন যখন চলছিল তখন নির্দিষ্ট উদ্দেশ্য নিয়ে শুধু একবারই গুগল তাদের কর্মীদের সঙ্গে যোগাযোগ করে। শুধু তাই নয়, এর বাইরেও গুগল আন্দোলনরত কিছু কর্মীকে ভয়ভীতি দেখানোর আয়োজনও করেছিল বলে বুধবার দাবি করেছে ওই আন্দোলনকারীরা।

ওই গ্রুপটি বলছে, তাদের কর্মবিরতি ছিল বিচার পাবার জন্য একটা মোড় ঘোরানো বিষয়। তারা গুগলকে সঠিক কর্মী চিনতে বলেছিল। কিন্তু তার কিছুই করেনি মার্কিন জায়ান্টটি।

আমরা শুধু একটি সুস্পষ্ট, সুনির্দিষ্ট এবং ব্যবস্থা নেওয়া যায় এমন নীতিমালা চাই যা বাস্তবায়ন করতে পারবে গুগল। ল্যারি পেইজ যেহেতু অ্যালফাবেট এবং গুগলের পরিচালনা বোর্ড নিয়ন্ত্রণ করে থাকেন, তাই তার হস্তক্ষেপ চেয়েছেন কর্মীরা। তিনি যদি তাতে রাজি না হন তবে ভিন্ন কোন পন্থা অবলম্বন করার কথাও জানান ওই কর্মীরা।

ইএইচ/মে০৯/২০১৯/২১৫৫

*

*

আরও পড়ুন