ফেইসবুক কমেন্টে গালি দিয়ে আটক ব্রিটিশ নারী

dubai-techshohor

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : ফেইসবুকে হঠাৎ করেই দেখতে পান তার সাবেক স্বামী কম বয়সী একটি মেয়েকে বিয়ে করেছেন।

প্রতারণার শিকার হয়েই বিচ্ছেদ চেয়েছিলেন লালেহ সারাভেস। কিন্তু সদ্য সাবেক বনে যাওয়া স্বামী যে এতো তাড়াতাড়ি তাকে কিছু না জানিয়েই বিয়ে করে ফেলবেন তা তিনি কল্পনা করতে পারেননি। ক্ষোভ আর রাগের উদগীরণ ঘটান ফেইসবুকের কমেন্টে। সাবেক স্বামী ও তার নতুন স্ত্রীর বিয়ের ছবির নিচে তিনি লেখেন, আশা করছি শিগগির তুমি মাটির নিচে চলে যাবে। নির্বোধ কোথাকার। তুমি এই ‘ঘোড়ার’ জন্য আমাকে ত্যাগ করেছ।

বিচ্ছেদ, বিয়ে ও কমেন্ট এগুলো ২০১৬ সালের ঘটনা। সেসময়ই লালেহর সাবেক স্বামী সাইবার আইনের আওতায় মামলা দায়ের করেন। ঘটনা এখানেই শেষ হতে পারতো।

কিন্তু গত ৩ মার্চ তার সাবেক স্বামী প্রাডো হার্ট অ্যাটাকে মৃত্যুবরণ করেন। এতে করে ১৪ বছরের মেয়েকে সঙ্গে নিয়ে যুক্তরাজ্য থেকে দুবাই আসেন লালেহ। উদ্দেশ্য ছিলো, স্বামীকে তার শেষ যাত্রায় বিদায় দেবেন। কিন্তু বিধি বাম। দুবাই এয়ারপোর্টে নামা মাত্র তাকে গ্রেফতার করা হয়।

আদতে ব্রিটিশ আইন এতো কড়া নয়। তার সাবেক স্বামী দুবাইয়ে মামলাটি করার কারণেই ঝামেলায় পরেছেন তিনি। দুবাইয়ের আইন অনুযায়ী, তাকে এখন দুই বছরের জেল খাটতে হবে। পাশাপাশি ৫০ হাজার পাউন্ড জরিমানা দিতে হবে।

এ বিষয়ে লালেহ বলেন, গ্রেফতার হওয়ার আগেই আমি নিঃস্ব হয়ে গেছি। আমি ঋণগ্রস্ত। তবে মেয়ের থেকে আলাদা থাকতে হচ্ছে বলে খুব কষ্ট পাচ্ছি। আমি শুধু ওর কাছে যেতে চাই।

দ্য ডেইলি মেইল অবলম্বনে এজেড/  এপ্রিল ০৮ /২০১৯ /১৫১৫

*

*

আরও পড়ুন