টানা আয় কমছে বাংলালিংকের

Banglalink_office_techshohor
Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : গত তিন বছর ধরে টানা পেছনের দিকে পড়ছে এক সময়ের সাড়া জাগানো মোবাইল ফোন অপারেটর বাংলালিংক।

সর্বশেষ ২০১৮ সালের যে আর্থিক প্রতিবেদন তাদের মূল কোম্পানি ভিয়ন প্রকাশ করেছে সেখানে দেখা যাচ্ছে, ২০১৭ সালের তুলনায় শেষ হওয়া বছরটিতে তাদের আয় সাড়ে ছয় শতাংশ কমে মাত্র চার হাজার ৩৬৫ কোটি টাকায় চলে এসেছে।

২০১৭ সালে অপারেটটি মোট আয় করেছিল চার হাজার ৬৫০ কোটি টাকা। আর ২০১৬ সালে এর পরিমাণ ছিল চার হাজার ৮৭০ কোটি টাকা।

একইভাবে ভিয়নের প্রতিবেদনে অপারেটটির লাভ-লোকসানের বিষয়ে পরিষ্কার কিছুই উল্লেখ করা হয়নি।

তবে এর আগের বছরগুলোতেও দেখা যাবে অপারেটরটি অনেক সম্ভাবনা নিয়ে এগিয়ে আসছিল।

২০১৬ এবং ২০১৭ সালে তারা খানিকটা চ্যালেঞ্জের মুখে পড়ে যায় বিশেষ করে রবি এবং এয়ারটেলের একীভূতিকরণের পর। স্পেকট্রামের কমতির কারণে তখন সেবার মান নিয়েও বেশ প্রশ্ন আসে বাংলালিংকের।

কিন্তু ২০১৮ সালে এসে অপারেটরটি ১০ মেগাহার্ডজের চেয়েও বেশি স্পেকট্রাম কেনে। এই এক বছরেই তারা প্রায় চার হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ করে নেটওয়ার্কে। তারপরেও পরিস্থিতির খুব একটা উন্নতি হয়নি।

ফোরজির লাইসেন্স নেওয়ার এক বছর হয়ে গেলেও নেটওয়ার্কের বিস্তার সেভাবে করতে পারেনি বাংলালিংক। যদিও ডেটা থেকে তাদের আয় গত বছর ১৫ শতাংশ বেড়ে ৭২৫ কোটি টাকা হয়েছে। কিন্তু গ্রাহক প্রতি আয় কমেছে, খারাপ হয়েছে অন্যান্য সূচকের অবস্থাও।

২০১৭ সালে ডেটা হতে তাদের আয় ছিল ৬৩০ কোটি টাকা। এটি ২০১৬ সালে ছিল ৪৯০ কোটি টাকা। অথচ অপারেটরটির মোট আয় কমে গেছে ২২০ কোটি টাকা। সেখানেই কেবল সূচকের অবস্থা কিছুটা ভালো।

অবশ্য ভিয়নের এই খারাপ অবস্থা শুধু বাংলাদেশে নয়, পাকিস্তানসহ আরও অন্তত তিন দেশের বাজারে তারা আগের বছরগুলোর তুলনায় আয় কম হওয়ার চ্যালেঞ্জের মুখে পড়েছে।

জেডএ/ইএইচ/মার্চ০১/২০১৯/১৮০৫

২ টি মতামত

  1. হাসান রবি said:

    বাংলালিংক যদি তাদের ০১৪ কে রিব্যান্ডিং করতো ।
    স্কিটুর মত অফার নিয়ে আসতো তাহলে কিছুটা আশা ছিলো।

  2. মেহেদি হাসান সুজন said:

    একজন গ্রাহক সবসময় চায় তার কলরেট ২৫ পয়সা করা হোক,কিন্তু বর্তমানে তার ডাবল কলরেট করা হয়েছে,নেটের দামও বাড়িয়ে দেয়া হয়েছে,আমরা সবাই একসময় জিপি বাদ দিয়ে বাংলালিংক কিনেছিলাম কিন্তু এখন লক্ষ লক্ষ গ্রাহক রবি আর এয়ারটেলের উপর ঝুঁকছে,জিপি তো মানুষ ব্যাবহারই করতে চায়না,কারন ওদের সবকিছুর দাম বেশি,একসময় মানুষ জিপিকেও ছেড়ে দেবে,বাংলালিংক যদি গ্রাহক পর্যায়ে ২৫ পয়সা কলরেট আর ১ জিবি ইন্টারনেট ৯ টাকা মেয়াদ ৭ দিন করে তাহলে সবার চেয়ে গ্রাহক বেশি হবে,এমনকি বাংলাদেশের ৮০% লোক বাংলালিংক ব্যবহারে উতসাহিত হবে।আপনাদের মতামত জানাবেন প্লিজ……………………

*

*

আরও পড়ুন