অর্ধেক অ্যাকাউন্ট ভুয়া নয় : ফেইসবুক

facebook-logo
Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : ফেইসবুকের অর্ধেক অ্যাকাউন্টই ভুয়া নামে গণমাধ্যমে যে খবর বেরিয়েছে তা সঠিক নয় বলে দাবি করেছে ফেইসবুক।

খবরটি ‘অস্পষ্টভাবে মিথ্যা’ বলে অ্যাখ্যা দিয়েছে ফেইসবুক। একই সঙ্গে প্লাটফর্মটির ১০০ কোটি অ্যাকাউন্ট ভুয়ার তথ্যও ভুল এবং মিথ্যা বলে জানিয়েছে ফেইসবুক।

ডেইলি মেইলে প্রকাশ একটি খবর নিয়ে এমন প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছে ফেইসবুক। মাধ্যমটিতে ফেইসবুকের প্রধান নির্বাহী মার্ক জাকারবার্গের এক সহপাঠী জানিয়েছেন, বিশ্বব্যাপী প্লাটফর্মটিতে থাকা অ্যাকাউন্টের অর্ধেক অর্থাৎ ১০০ কোটি অ্যাকাউন্ট ভুয়া।

‘রিয়েলিটি চেক’ নামের এক প্রতিবেদনে অ্যারোন গ্রিনস্প্যান এমনটা দাবি করেছেন। তিনি হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে জাকারবার্গের সঙ্গে ২০০২ থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত পড়ালেখা করেন। ২০০৪ সালে যখন ফেইসবুকের যাত্রা শুরু হয় তখন থেকেই এটির ব্যবহারকারী ক্রমান্বয়ে বাড়তে থাকে।

তিনি অভিযোগ করে দাবি করেন, তিনি ছিলেন ‘আসল ফেইসবুকের’ প্রতিষ্ঠাতা। কিন্তু ২০০৯ সালে তার দাবির ওপর একটি অনির্দিষ্টকালের জন্য নিষ্পত্তি ঘোষণা করে।

গ্রিনস্প্যান বলেন, ফেইসবুক তার ভুয়া অ্যাকাউন্ট দিয়ে সাধারণ মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করছে। এতে ৫০ শতাংশের বেশিই ভুয়া অ্যাকাউন্ট রয়েছে।

অন্যদিকে ফেইসবুক গ্রিনস্প্যানের এমন কথা অস্বীকার করেছেন। তার ফাইন্ডিংসগুলোও অবান্তর বলে বলেছে ফেইসবুক।

ডেইলি মেইলের ওই প্রতিবেদনকে উল্লেখ করে ফেইসবুকের এক মুখপাত্র বলেছেন, এমন মিথ্যা তথ্য দিয়ে প্রতিবেদন করা মেইলের সত্যিই উচিত হয়নি। সেটি ভুয়া অ্যাকাউন্টের মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হলেও তা যাচাই করা উচিত ছিল কর্তৃপক্ষের।

ফেইসবুকের যে অনেক ভুয়া অ্যাকাউন্ট রয়েছে সেটি কখনো অস্বীকার করেনি কর্তৃপক্ষ। বরং তারা এমন অ্যাকাউন্টের বিরুদ্ধে সবসময় ব্যবস্থা নেবার কথা জানিয়েছে।

ফেইসবুকের ট্রান্সপারেন্সি প্রতিবেদন অনুযায়ী, ২০১৭ সালের শেষ প্রান্তিকে ফেইসবুকে মাসিক সক্রিয় ব্যবহারকারীর ৩৩ দশমিক ৬ শতাংশের বিরুদ্ধে একটা অ্যাকশন নেয়। যা তারা কমিয়ে আনার কথাও বলে তখন।

তবে পরের প্রান্তিকে অর্থাৎ ২০১৮ সালের তৃতীয় প্রান্তিকে সেটি কমে দাঁড়ায় ৩৩ দশমিক ২ শতাংশ।

যুক্তরাষ্ট্রের সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের মতে, ফেইসবুকে ভুয়া অ্যাকাউন্টের পরিমাণ মোট ব্যবহারকারীর তিন থেকে চার শতাংশ পর্যন্ত হতে পারে। যেটি গ্রিনস্প্যানের করা ৫০ শতাংশের চেয়ে অনেক কম।

আইএএনএস অবলম্বনে ইএইচ/ জানু২৭/২০১৯/ ২১১০

*

*

আরও পড়ুন