Samsung IM Campaign_Oct’20

নিউজিল্যান্ড নির্বাচনে কিম ডটকমের জোট!

internetparty_techshohor
Evaly in News page (Banner-2)

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : ইন্টারনেট পার্টি নামের একটি রাজনৈতিক দল গঠনের মাধ্যমে তথ্যপ্রযুক্তি খাতে সাড়া জাগানো নিউজিল্যান্ডের কিম ডটকম এবার রাজনৈতিক জোট তৈরির উদ্যোগ নিয়েছেন। দেশটির একটি ছোট রাজনৈতিক দলের সঙ্গে জোট বাধছে তার দল।

আগামী সেপ্টেম্বরে অনুষ্ঠিতব্য সাধারণ নির্বাচনে অন্তত একটি আসন জয়ের আখাঙ্খা নিয়েই কিম এ জোট বাধছে।

কপিরাইট আইনে অভিযুক্ত জনপ্রিয় ফাইল শেয়ারিং সাইট ‘মেগা’ এর প্রতিষ্ঠাতা কিম ডটকম।

internetparty_techshohor

কিমের দল গঠনের খবরে বছরের শুরুর দিকে রাজনৈতিক মহল ছাড়াও প্রযুক্তি বিশ্বে ও জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে বেশ আলোচনা হয়।

সর্বশেষ খবর হলো ইন্টারনেট পার্টি নিউজিল্যান্ডের বাম রাজনৈতিক দল মানা পার্টির সঙ্গে জোট গঠন করে জাতীয় নির্বাচনে লড়বে।

আসন্ন নির্বাচনে লড়তে প্রার্থীদের একটি সম্মিলিত তালিকাও তৈরি করেছে জোটটি। বর্তমান পার্লামেন্টে মনা পার্টির একটি আসন রয়েছে।

কিম জোট গঠনে সহযোগীতা করলেও নিজে কোনো আসনে প্রার্থী হিসেবে লড়ছেন না। কেননা তার নিউজিল্যান্ডের নাগরিকত্ব নেই। বর্তমানে তিনি ফাইল শেয়ারিং সাইট ‘মেগা আপলোডের’ পাইরেসি বিষয়ক যুক্তরাষ্ট্রের একটি মামলা থেকে মুক্তির জন্য লড়ছেন।

২০১২ সালে ফাইল শেয়ারিং সাইট ‘মেগা আপলোড’ অবৈধভাবে ফাইল শেয়ার করার কারণে বন্ধ এবং কিম ডটকমকে গ্রেপ্তার করা হয়ে। এরপর মুক্তি পেয়ে ২০১৩ সালে ‘মেগা’ নামে নতুন একটি ফাইল শেয়ারিং সাইট চালু করেন তিনি।

ইন্টারনেট পার্টির প্রধান নির্বাহী বিক্রম কুমার বলেছেন, জোটের দুটি দল তাদের দলগুলির পৃথক নীতি বজায় রাখবে। তবে তরুন ভোটারদের আকৃষ্ট করতে তাদের দল কমদামে ইন্টারনেট সেবা, ব্যক্তিগত নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণ এবং প্রযুক্তি বিষয়ক চাকুরি সৃষ্টির মত বিষয়গুলোকে সামনে আনবে।

নিউজিল্যান্ডের ভোটিং পদ্ধতি অনুসারে একটি দলকে ১২০ আসনে মেকাবেলা করতে হলে ঝুলিতে অন্তত একটি আসন অথবা সারা দেশ থেকে ৫ শতাংশ ভোট পেতে হয়।

যাহোক, নির্বাচনের জন্য তাদের ৫ শতাংশ ভোট পেতে হবে না কেননা বর্তমান পার্লামেন্টে ‘মনা পার্টির’ একটি সিট রয়েছে।

গত ছয়টি নির্বাচনের তথ্যের ভিত্তিতে সংবাদ সংস্থা রয়টার্সের তৈরি এক জরিপে দেখা গেছে, ২০০৮ থেকে ক্ষমতায় থাকা জাতীয় ডান দলের ৪৯.২ শতাংশ সমর্থক রয়েছে। অপর দিকে প্রধান বিরোধী দল বাম শ্রমিক দলের ৩১.৮ শতাংশ সমর্থক রয়েছে।

– রয়টার্স অবলম্বনে ফখরুদ্দিন মেহেদী

*

*

আরও পড়ুন