স্মার্টফোনের দাপটে ৭ বছরে ক্যামেরার সরবরাহ কমেছে ৮০%

camera-phone-techshohor
Evaly in News page (Banner-2)
টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : আইফোনের সর্বশেষ মডেলগুলোর একটি আইফোন ১০এস। এই ফোনের ক্যামেরার মান কতো ভালো তা বোঝাতে স্পেসিফিকেশনে যুক্ত করা হয়েছে স্মার্ট এইচডিআর ও নিউরাল ইঞ্জিনের মতো শব্দ।
আগের আইফোনগুলোর তুলনায় আইফোন ১০এস যে আরও বেশি মান সম্পন্ন তা নিয়ে অনেকে রিভিউয়ারই একমত। শুধু আইফোনই নয়, স্যামসাং, ওয়ান প্লাস, গুগল ও শাওমিও ক্যামেরার উন্নতিতে বেশ মনোযোগী হয়েছে।
যতই স্মার্টফোন ক্যামেরার মান ভালো হচ্ছে ততই চাহিদা কমছে ভারি লেন্স যুক্ত ডিএসএলআর ক্যামেরার।
camera-techshohor
কারণ স্মার্টফোনের ক্যামেরা দিয়েই এখন মান সম্পন্ন ছবি তোলা যায়। অতএব, বাড়তি একটি ঝোলায় ক্যামেরা নিয়ে ঘুরে বেড়ানোর ঝামেলা অনেকেই নিতে চান না। তবে যারা পেশাদার ফটোগ্রাফার তাদের কাছে ডিএসএলআর ক্যামেরার চাহিদা রয়েছে।
তবে এই ক্ষুদ্র অংশের চাহিদা দিয়ে ক্যামেরা ইন্ডাস্ট্রিতে ধস ঠেকানো যাচ্ছে না। এক সময়ের বাজারা দাপানো ক্যানন, নিকন, অলিম্পাস, ফুজি ফিল্ম ও সনির মতো ক্যামেরা নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলোর দুর্দিন শুরু হয়ে গেছে। জাপানভিত্তিক সংস্থা ক্যামেরা অ্যান্ড ইমেজিং অ্যাসোসিয়েশনের দেওয়া তথ্য মতে, সারা বিশ্বে ২০১০ সাল থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত ক্যামেরার সরবরাহ কমেছে ৮০ শতাংশ।
২০১০ সালের দিকে যেখানে ক্যামেরার সরবরাহ ছিলো ১২১ মিলিয়ন বা ১২ দশমিক ১ কোটি সেখানে ২০১৭ সালে ক্যামেরার সরবরাহ কমে ঠেকেছে ২ দশমিক ৫ কোটিতে।
স্ট্যাটিস্টা অবলম্বনে আনিকা জীনাত

*

*

আরও পড়ুন