Samsung HHP Online Campaign

গুজব রোধে এআই নির্ভর প্লাটফর্ম এনেছে চীন

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : মিথ্যা তথ্য, ভুয়া ও মিথ্যা খবর প্রকাশ করে গুজব তৈরি এখন সারাবিশ্বেই একটা সমস্যার নাম।

এই সমস্যার হাত থেকে নিজেদের নিরাপদ রাখতে একটি প্লাটফর্ম চালু করেছে চীন। প্লাটফর্মটির মধ্যে একটি মোবাইল অ্যাপ্লিকেশনও অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

প্লাটফর্মটিতে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ব্যবহার করে  সাধারণ মানুষের তৈরি প্রতিবেদন যেমন ‘অনলাইনের গুজব’ এবং মিথ্যা রিপোর্টগুলির সনাক্ত করবে। পরে সেই কনটেন্টগুলো একেবারে সবার নীচের দিকে পাঠিয়ে দেবে।

Techshohor Youtube

বুধবার চীনে প্লাটফর্মটির যাত্রা ঘোষণা দেয়া হয়। আর সেখানে বিভিন্ন সংবেদনশীল সংবাদ নিয়ে সামাজিক মাধ্যমগুলোতে ছড়ানো গুজবের বিরুদ্ধে পুলিশি ব্যবস্থা নেওয়ার কথাও জানানো হয়। এসব মাধ্যমে যারা রাজনীতি, দেশটির আরোপ করা বিভিন্ন বিষয়ের সেন্সরশিপ নিয়ে কথা বলছেন তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে।

ওয়েবসাইট ছাড়াও ‘পিয়ো’ নামের ওই প্লাটফর্মের জন্য রয়েছে মোবাইল অ্যাপ, সামাজিক মাধ্যম উইবো এবং উইচ্যাট অ্যাকাউন্ট। যার মাধ্যমে লগইন করা যাবে।

গুজব প্রতিরোধে পিয়ো একেবারে ‘সত্য ও প্রকৃত’ খরব প্রকাশ করবে। এ জন্য তারা বিভিন্ন রাজ্যে থাকা সংবাদপত্র, সম্প্রচার মাধ্যম, দলীয় ও সরকারি  সংবাদ সংস্থা থেকে সেসব খবর সংগ্রহ করে প্রচার ও প্রকাশ করবে।

গুজব ব্যক্তির অধিকার হরণ করে, গুজব সামাজিক অস্থিরতা তৈরি করে, গুজবের কারণে শেয়ারবাজার ওঠানামা করে, সাধারণ ব্যবসাতেও বড় ধরনের প্রভাব ফেলে গুজব, গুজব ছড়িয়ে বিপ্লবী শহীদের নিয়েও তামাশা করা হয় বলে একটি প্রোমো ভিডিওতে দেখিয়েছে পিয়ো ওয়েবসাইট।

অফিসিয়ার তথ্য দেখাচ্ছে, দেশটির ইন্টারনেট নিয়ন্ত্রক প্রতিষ্ঠান গত বছর অন্তত ৬৭ লাখ ভুয়া ও মিথ্যা সংবাদ ছড়ানো হয়েছিল। আর এর বেশিরভাগই করা হয়েছে উইবো, টেনসেন্ট, উইচ্যাট, বাইদু এবং আলীবাবার মাধ্যমে।

চীনের আইনানুযায়ী গুজব ছড়ানোর কাজে কেউ যদি জড়িত থাকে তবে তার ৭ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড হতে পারে। এমনকি এসব গুজব কেউ যদি বেশি বেশি শেয়ার করে ছড়ায় তবে তার জন্যও জেল জরিমানার বিধান রেখেছে দেশটি।

সম্প্রতি বিভিন্ন মাধ্যমে গুজব ছড়ানোর হার বেড়ে যাওয়ায় এমন এআই নির্ভর পদক্ষেপ নিয়েছে দেশটি।

গত মাসেই বাংলাদেশেও নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনকে ঘিরে অনলাইনে বিভিন্ন গুজব ছড়ানো হয়। পরে সেসব সনাক্ত করে পুলিশি ব্যবস্থাও নিয়েছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। আর গুজব প্রতিরোধে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের সংগঠন ছাত্রলীগ ফেইসবুক কেন্দ্রিক গুজব রোধে একটি ব্রিগেড তৈরির ঘোষণাও দিয়েছে।

ইমরান হোসেন মিলন

*

*

আরও পড়ুন