স্মল ক্যাপিটাল বোর্ড গঠনের সুপারিশ

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : শিগগিরি স্মল ক্যাপিটাল বোর্ড গঠন করার কথা জানিয়েছে ভেঞ্চার ক্যাপিটাল অ্যান্ড প্রাইভেট ইকুইটি অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ভিসিপিয়াব)।

ভিসিপিয়াব প্রতিনিধিদল বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান ড. এম খায়রুল হোসেনের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাত করেছেন।

সোমবার রাজধানীর বিএসইসি কার্যালয়ে এই সৌজন্য সাক্ষাতে প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেন ভিসিপিয়াব চেয়ারম্যান ও ফেনক্স ভেঞ্চার ক্যাপিটালের জেনারেল পার্টনার শামীম আহসান।

Techshohor Youtube

বৈঠকে আইপিওর মাধ্যমে স্মল ক্যাপিটাল কোম্পানির ফান্ড বৃদ্ধির প্রক্রিয়াকে সহযোগিতা করতে আগামী এক থেকে দুই মাসের মধ্যে স্মল ক্যাপিটাল বোর্ড গঠনের বিষয়ে আলোচনা হয়। স্মল ক্যাপিটাল বোর্ডের সুপারিশ সাপেক্ষে একটি কোম্পানি বিদ্যমান সর্বনিম্ন পেইড-আপ ক্যাপিটাল ৫ কোটি টাকা থাকলেই আইপিওর জন্য আবেদন করতে পারবে।

কোম্পানিটি কোয়ালিফায়েড ইনভেস্টর অফার (কিউআইও) এর মাধ্যমে কমপক্ষে ৫ কোটি টাকা পেইড-আপ ক্যাপিটাল থেকে সর্বোচ্চ ৩০ কোটি টাকা পর্যন্ত ফান্ড তৈরি করতে পারবে। পূর্বে, একটি কোম্পানিকে আইপিওর জন্য আবেদন করতে হলে বিভিন্ন শর্তের পাশাপাশি ৩০ কোটি টাকা পেইড-আপ ক্যাপিটাল এবং বিগত ৩ বছর ধরে কোম্পানির লাভজনক অবস্থায় থাকা বাধ্যতামূলক ছিলো।

বিএসইসি চেয়ারম্যান ড. এম খায়রুল হোসেন বলেন, স্মল ক্যাপিটাল কোম্পানির জন্য কোয়ালিফায়েড ইনভেস্টর অফারের নীতিমালা বাস্তবায়নে পথে আমরা অনেক দূর এগিয়েছি।

আমাদের দিক থেকে আমরা গেজেট প্রকাশ করেছি এবং বোর্ড গঠনের প্রক্রিয়া চলছে। এটি বিনিয়োগবান্ধব পরিবেশ তৈরির মাধ্যমে বাংলাদেশের ক্যাপিটাল মার্কেটকে বৃদ্ধি করবে।

ভিসিপিয়াব চেয়ারম্যান শামীম আহসান বলেন, তরুণ উদ্যোক্তা ও স্টার্টআপের জন্য ব্যাংক ঋণ সুবিধা না থাকায় তাদের জন্য অ্যাক্সেস টু ফিন্যান্স সবচেয়ে বড় প্রতিবন্ধকতা। যেহেতু তথ্যপ্রযুক্তি কোম্পানিগুলোর পেইড-আপ ক্যাপিটাল কম এবং লাভের চেয়ে কোম্পানির অগ্রগতির দিকে বেশি নজর থাকে, তাই এসব কোম্পানির জন্য আইপিওতে যাওয়া কঠিন। স্মল ক্যাপিটাল বোর্ড গঠনের মাধ্যমে ভেঞ্চার ক্যাপিটাল প্রতিষ্ঠান ও বিনিয়োগকারী ব্যাংকগুলোর টেকসই নির্গমন কৌশল থাকছে, যা তথ্যপ্রযুক্তি খাতকে আরও লাভজনক করে তুলবে।

আমরা আশাবাদী যে, তাদের অংশগ্রহণ বৃদ্ধি আমাদের ক্রমবর্ধমান তথ্যপ্রযুক্তি উদ্যোক্তা ও স্টার্টআপের অগ্রগতিকে ত্বরান্বিত করবে।

এ সময় বিএসইসির কমিশনার ড. স্বপন কুমার বালা, এফসিএমএ, নির্বাহী পরিচালক হাসান মাহমুদ, পরিচালক মো. মাহমুদুল হক, উপ-পরিচালক মো. এমদাদুল হক উপস্থিত ছিলেন। ভিসিপিয়াব প্রতিনিধিদলের অন্যান্য সদস্যরা হলেন সংগঠনটির সহ-সভাপতি ও ভিআইপিবি অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট কোম্পানি লিমিটেডের চেয়ারম্যান জিয়া ইউ আহমেদ, ভিসিপিয়াব মহাসচিব ও বিডি ভেঞ্চার লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শওকত হোসেন, মসলিন ক্যাপিটাল লিমিটেডের প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক ওয়ালিউল মারুফ মতিন এবং আবিষ্কার ফ্রন্টিয়ার ফান্ড (বাংলাদেশ) এর বিনিয়োগ ব্যবস্থাপক নাজমুল করিম।

*

*

আরও পড়ুন