৫ বছরের মধ্যে অধিকাংশ ডিভাইসে 'ফিউশা' দেবে গুগল

টেক শহর কটটেন্ট কাউন্সিলর : ইন্টারনেট জায়ান্ট গুগল নতুন একটি অপারেটিং সিস্টেম নিয়ে কাজ শুরু করেছে খবরটি নতুন নয়।

তবে প্রতিষ্ঠানটি আগামী পাঁচ বছরের মধ্যে অ্যান্ড্রয়েড থেকে নতুন অপারেটিং সিস্টেমে ডিভাইসগুলো নিয়ে যেতে চায়।

প্রযুক্তি জায়ান্টটি খুব জোরালো ভাবেই নতুন অপারেটিং সিস্টেম নিয়ে কাজ করছে। নতুন এই ওএসের কোডনাম দেওয়া হয়েছে ‘ফিউশা’। দুই বছরের বেশি সময় ধরে এবং এখনো এই প্রোজেক্টে কাজ করছেন ১০০ প্রকৌশলী বলে জানিয়েছে প্রযুক্তির সংবাদ মাধ্যম ব্লুমবার্গ।

অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেমের একটি প্রাথমিক অবস্থায় শুধু স্মার্টফোনের জন্য ডিজাইন করা হয়েছিল। যেটাতে ডিভাইস টাচ স্ক্রিন সাপোর্ট করে শুধ তার জন্য। তবে ফিউশা এর বাইরেও সামনে-পিছন থেকে ভয়েজ ও এআই কন্ট্রোল করা যাবে।

এটি ভয়েজ ইন্টার‍্যাকশনগুলোকে আরো উন্নত করার জন্য ডিজাইন করা হচ্ছে। ঘন ঘন নিরাপত্তা আপডেট দেবে। একটি ডিভাইসের বিভিন্ন পরিসর জুড়ে এটি খেয়াল রাখবে এবং এটি ল্যাপটপ থেকে শুরু করে ছোট ইন্টারনেট সংযুক্ত সেন্সরেও কাজ করবে বলে জানিয়েছে ব্লুমবার্গ।

যেসব প্রকৌশলীরা প্রোজেক্টটি নিয়ে কাজ করছে তারা বলছেন যে, তারা আরো সামনে এগিয়ে যাচ্ছে। তারা ফিউশাকে ভয়েচ কন্ট্রোল স্পিকারে কাজ করাতে সক্ষম হবে। ‘আগামী তিন বছরের মধ্যে এটি বড় মেশিনগুলো যেমন ল্যাপটপেও ব্যবহার উপযোগী করা সম্ভব হবে’।

যদিও ফিউশা সম্পর্কে এখনো সুনির্দিষ্ট কোন ইউজার ইন্টারফেইস পাওয়া যাচ্ছে না। তবে আপনি চাইলে গুগলের পিক্সেলর বুকে এটির ব্যবহার দেখতে পারবেন বলে ব্লুমবার্গ জানিয়েছে।

ওএসটির ডিজাইন করা হয়েছে ‘মাল্টিপল স্ক্রিন সাইজ’ অনুযায়ী। এমনকি টিভি, কার এবং ফ্রিজে ব্যবহার করা যায় এমন করেই ফিউশা তৈরি করা হচ্ছে।

ফিউশার নির্মাণগতও অনেক পার্থক্য থাকছে অ্যান্ড্রয়েডের সঙ্গে। যেখানে অ্যান্ডয়েড নির্মাণ করা হয়েছে লিনাক্সে, সেখানে ফিউশা মাইক্রোকারনেল নির্ভর আর গুগল একে বলছে ‘জিরকন’।

এর ফলে পুরাতন হার্ডওয়্যারে ফিউশা চলবে না। তবে নতুন হার্ডওয়্যারে এর কর্মক্ষমতা খুব বেশি হবে।

এখন পর্যন্ত ফিউশা খুব বেশি পরিমাণেই পরীক্ষার পর্যায়ে রয়েছে। যদিও ইতোমধ্যে গুগলের প্রধান নির্বাহী সুন্দর পিচাই প্রতিষ্ঠানটির অ্যান্ড্রয়েড, ক্রোম, ক্রোম ওএস এবং প্লের জ্যেষ্ঠ ভাইস প্রেসিডেন্ট,হিরোশি লখাইমারের সঙ্গে একটি চুক্তিও করেছেন।

এর বাইরে গুগলের ডিজাইন বিভাগের ভাইস প্রেসিডেন্ট মাতিয়াস দুয়ার্তে সেখানে খণ্ডকালীন কাজ করছেন বলেও জানান।

যদিও এটি এখনো উন্নয়ন পর্যায়েই রয়েছে। এখনো প্রকল্পটির প্রকৌশলীরাই বলতে পারছেন না এটিতে অ্যাপ এবং এর কর্ম কী হবে। তবে একটি ইউটিউব অ্যাপ ইতোমধ্যে এর ভয়েজ কমান্ড পরীক্ষা করার জন্য তৈরি করা হয়েছে। যদিও সেটি এখনো পরীক্ষণ পর্যায়েই রয়েছে।

তবে এ থেকে অনেকেই ধারণা করছেন, অ্যান্ড্রয়েডকেই আরো উন্নত করে ফিউশা তৈরি করছে গুগল। যেখানে আগের অ্যাপগুলোকেই একট মডিফাই করে সেই ওএসে ব্যবহার করা যাবে এমনটাও ধারণা করা হচ্ছে।

ম্যাশেবল অবলম্বনে ইমরান হোসেন মিলন

*

*

আরও পড়ুন