Maintance

এমএনপিতে বিটিআরসির সুপারিশে ইনফোজিলিয়ন

প্রকাশঃ ৪:০১ অপরাহ্ন, সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৭ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ১:৫০ পূর্বাহ্ন, সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৭

আর. এস. হুসেইন, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর: দীর্ঘ প্রতিক্ষিত মোবাইল নাম্বার পোর্টাবিলিটি(এমএনপি) সেবা চালুর জন্য টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি) ইনফোজিলিয়ন কোম্পানির নাম সুপারিশ করেছে।

মোবাইল নাম্বার পোর্টাবিলিটি বা এমএনপি হলো মোবাইল নম্বার অপরিবর্তিত রেখে অপারেটর বদলের সেবা। যদিও গত এক দশক ধরে বাংলাদেশে তা চালুর কথা হচ্ছে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সেটি আর চালু হয়নি।

এর আগে একবার নিলাম আহবান করেও শেষে নিরাপত্তার কথা বলে তা বাতিল করা হয়। পরে সিদ্ধান্ত বদলে নিলামের পরিবর্তে সরকার বিউটি কনটেস্টের আয়োজন করে। যেখানে আগের পাঁচটি কোম্পানিই আবেদন করে।

এর মধ্যে বিটিআরসি ইনফোজিলিয়ন নামে একটি জয়েন্ট ভেঞ্চার কোম্পানির জন্য সুপারিশ করে সরকারের কাছে প্রস্তাব পাঠায়।

আবেদন করা অন্য চার কোম্পানির মধ্যে রয়েছে রিভ নাম্বার লিমিটেড, গ্রিনটেক ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেড, টেলিটেক কনর্সোটিয়াম, ব্রাজিল-বাংলাদেশ কনর্সোটিয়াম ও রুটস ইনফোটেক।

MNP-techshohor

সব প্রক্রিয়া শেষ করার পর গত বছর ২৮ সেপ্টেম্বর এমএনপি’র লাইসেন্স দেওয়ার জন্যে নিলামের দিন ধার্য ছিল। কিন্তু ২০ সেপ্টেম্বর বিটিআরসি কোনো কারণ না জানিয়েই নিলাম স্থগিত করে দেয়। তখন অবশ্য বলা হয়েছিল, অল্প সময়ের মধ্যেই নিলামের নতুন তারিখ জানানো হবে।

পরে জানা যায়, প্রযুক্তিটি অত্যন্ত স্পর্শকাতর বিবেচনায় লাইসেন্স দেওয়ার আগে কোম্পানিগুলোর বিষয়ে গোয়েন্দা সংস্থার নিরাপত্তা ছাড়াপত্র নেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়। পরে তো নিলামই অনিশ্চিত হয়ে পড়ে।

তখনকার সিদ্ধান্ত অনুসারে এমএনপি সেবায় অন্য অপারেটরে যেতে হলে গ্রাহককে প্রতিবার ৩০ টাকা চার্জ দিতে হবে বলে বলা হয়েছিল। আর একবার অপারেটর বদল করলে গ্রাহককে সেই অপারেটরে থাকতে হবে কমপক্ষে ৯০ দিন।

বর্তমানে পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত, পাকিস্তানসহ প্রায় ৭২টি দেশে এই সেবা চালু রয়েছে।

এর আগে বিটিআরসির চেয়ারম্যানও বলেছিলেন, এমএনপি সেবা চালু হলে দেশে মোবাইল সেবা খাতে প্রতিযোগিতা আরও বৃদ্ধি পাবে এবং গ্রাহকের স্বাধীনতাও বাড়বে।

 

*

*

Related posts/