দেশের হ্যান্ডসেট বাজারে একচ্ছত্র আধিপত্য চীনের

জামান আশরাফ, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : বাংলাদেশে এখন যতো মোবাইল হ্যান্ডসেট আমদানি হচ্ছে তার সিংহভাগই আসছে চীন থেকে। টাকার অংকে তো অবশ্যই সংখার বিবেচনাতেও আমদানির ৯০ শতাংশ আসে দেশটি থেকে।

জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) গত বছরের জুলাই থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত ছয় মাসের হিসাব অন্তত তাই বলছে।

এ পরিসংখ্যান অনুযায়ী, সংখ্যার হিসাবে ওই সময়ে চীন থেকে মোবাইল ফোন সেট আমদানি করা হয়েছে ১ কোটি ৩১ লাখ ১৩ হাজার। যা মোট আমদানির ৯৬ দশমিক ৪৬ শতাংশ। টাকার অংকে এর পরিমান ২২ কোটি ১ লাখ ৯৯ হাজার ডলার। এটিও মোট আমদানির ৯১ দশমিক ৫৪ শতাংশ।

smart phone sell_techshohor

এনবিআরের ওই হিসেব বলছে, অর্থবছরের প্রথম ছয় মাসে সব মিলে ১ কোটি ৩৫ লাখ ৯৫ হাজার হ্যান্ডসেট আমদানি হয়েছে। মোট অর্থের পরিমান ২৪ কোটি ৫ লাখ ৪০ হাজার ডলার।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, দিন দিন মোবাইল ফোন আমদানিতে চীনের ওপর নির্ভরতা বাড়ছে মূলত সস্তা দামের কারণে। এ নির্ভরতা আরও অনেকদিন বজায় থাকবে। কেননা সাম্প্রতিক সময়ে বিকল্প মার্কেটের দেখা মেলার সম্ভাবনারও আভাস পাওয়া যায়নি বলে টেলিকম খাতের বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন।

এ বিষয়ে দেশীয় ব্র্যান্ড সিম্মোনির চেয়ারম্যান মোস্তফা আমিনুর রশিদ বলেন, অন্য কোনো বিকল্প তো সামনে নেই। তাই বাধ্য হয়ে সকলকে চীনেই যেতে হচ্ছে।

আমিনুর জানান, তারা প্রত্যেক মাসে কয়েক লাখ পিস হ্যান্ডসেট আমদানি করছেন যার পুরোটাই চীন থেকে আনা হয়। দেশে খুব তাড়াতাড়ি হ্যান্ডসেট অ্যাসম্বল হওয়ার সম্ভাবনা খুবই ক্ষ্মীণ বলে মন্তব্য করেন তিনি।

মোবাইল হ্যান্ডসেট আমদানির ক্ষেত্রে অন্যান্য দেশের অবস্থান খুবই নগণ্য। হংকং থেকে ওই সময়ে এসেছে দুই লাখ ২৬ হাজার হ্যান্ডসেট। যার মূল্য ৪৩ লাখ ৩২ হাজার ডলার।

ভিয়েতনাম থেকে এসেছে ১ কোটি ১৯ লাখ ডলারের ১ লাখ ৩৯ হাজার সেট। সুইজারল্যান্ড থেকে এসেছে ৩২ হাজার সেট যার মূল্য ৬ লাখ ৬৮ হাজার ডলার। আর অন্যান্য দেশ থেকে ৩৪ লাখ ২৯ হাজার ডলার মূল্যের ৮৪ হাজার সেট আমদানি হয়েছে।

Related posts

*

*

Top