এসএটিআরসি’র সভায় কর্ম পরিকল্পনা ৬ বাস্তবায়নে প্রাধান্য

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : দক্ষিণ এশিয়ার টেলিকম রেগুলেটরদের সংগঠন দক্ষিণ এশিয় টেলিকম রেগুলেটর কাউন্সিল (এসএটিআরসি) এর দুই দিনব্যাপী সভা ঢাকায় অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার ও বুধবার দুই দিনব্যাপী সভায় এই অঞ্চলের টেলিযোগাযোগ নিয়ে নীতিনির্ধারণী বেশ কিছু আলোচনা হয়। দক্ষিণ এশিয়ার আটটি দেশ ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলংকা, মালদ্বীপ, নেপাল, ভুটান, আফগানিস্তান এবং ইরানের প্রতিনিধিবৃন্দ সভায় অংশ নেন।

সভার উদ্বোধন করেন বিটিআরসি চেয়ারম্যান ড. শাহজাহান মাহমুদ। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে কমিশনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

SARTC-BTRC-TECHSHOHOR

সভায় নিয়ন্ত্রক সংস্থাগুলোর বিশেষজ্ঞদের নিয়ে গঠিত এসএটিআরসি এর কর্ম পরিকল্পনা ৬ এর বাস্তবায়ন নিয়ে দীর্ঘ আলোচনা হয়।

আলোচনায় এই অঞ্চলের টেলিযোগাযোগ অবকাঠামো ভাগাভাগিতে নিয়ন্ত্রক সংস্থাগুলোর দৃষ্টিভঙ্গি, মেশিন টু মেশিন (এমটুএম), যোগাযোগ ও ইন্টারনেট অব থিংকস (আইওটি) বিষয়ে আইসিটি রেগুলেটরি ফ্রেমওয়ার্ক, ভোক্তা স্বার্থ সংরক্ষণ বৃদ্ধি ও ডিজিটাল অর্থনীতি (যার মধ্যে রয়েছে সাইবার সুরক্ষা, বিগ ডাটা ও ডাটা স্বাধীনতা), ব্রডব্যান্ডের ব্যবহার বৃদ্ধিতে নিয়ন্ত্রক সংস্থাগুলোর ভূমিকা এবং মোবাইল ভার্চুয়াল নেটওয়ার্ক অপারেটরদের জন্য রেগুলেটরি ফ্রেমওয়ার্ক নিয়ে আলোচনা হয়।

এর আগে গত ৪ থেকে ৬ অক্টোবর ঢাকায় এসএটিআরসি-১৭ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সেই সম্মেলনে এই কর্মপরিকল্পনা ৬ নির্ধারণ করা হয়েছিল।

আন্তর্জাতিক টেলিযোগাযোগ ইউনিয়ন এবং এশিয়া প্যাসিফিক টেলিকমিউনিটির উদ্যোগের অংশ হিসেবে ১৯৯৭ সালে দক্ষিণ এশিয়ার টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ সংস্থাগুলোর সমন্বয়ে এসএটিআরসি নামে ফোরামটি প্রতিষ্ঠা হয়।

দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর টেলিযোগাযোগ  ও আইসিটি বিষয়ক বিভিন্ন নীতিমালা, প্রবিধান, নিয়ন্ত্রণ কাঠামো ইত্যাদি বিষয়ে আলোচনা ও সমন্বয়ের লক্ষ্যে এ সংস্থা কাজ করে থাকে। এছাড়া এই সংস্থা বেতার তরঙ্গ সমন্বয়, স্টান্ডার্ডাইজেশন, রেগুলেটরি প্রবণতা, টেলিযোগাযোগ উন্নয়নের কৌশল এবং টেলিযোগযোগ সংক্রান্ত আঞ্চলিক সহযোগিতা ও আন্তর্জাতিক গুরুত্বপূর্ণ বিষয়াবলী সম্পর্কে কর্মকৌশল নির্ধারণ করে থাকে।

ইমরান হোসেন মিলন

Related posts

*

*

Top