Maintance

বাংলাদেশ ও শ্রীলংকায় এয়ারটেলের আয় বেড়েছে ৩৬ শতাংশ

প্রকাশঃ ১১:২৮ পূর্বাহ্ন, জানুয়ারি ১, ২০১৪ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ১১:২৮ পূর্বাহ্ন, জানুয়ারি ১, ২০১৪

অনন্য ইসলাম, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : বছরের তৃতীয় প্রান্তিকে এয়ারটেলের মোট আয় বাংলাদেশ এবং শ্রীলংকার বাজারে ৩৬ শতাংশ বেড়েছে। জুলাই-সেপ্টেম্বরে এ দুই বাজারে আয় হয়েছে ৭ কোটি ২ লাখ ডলার। এরমধ্যে ২ কোটি ১০ লাখ ডলার পুনবিনিয়োগ করেছে কোম্পানিটি। আর এ সময়ে করপূর্ব মুনাফা দাঁড়িয়েছে ৭০ লাখ ডলার।

শুরুর পর থেকে পাঁচ বছরে এ দুটি দেশে এয়ারটেলের মোট বিনিয়োগের পরিমাণ ৯৮ কোটি ২০ লাখ ডলার।

Airtel Logo_ Tech Shohor

ভারতীয় মোবাইল ফোন অপারেটর এয়ারটেল গত চার বছর ধরে বাংলাদেশে ব্যবসা করলেও ব্যবসায়িক অবস্থার প্রতিবেদন কখনো প্রকাশ করেনি। অথচ বিশ্বব্যাপী পরিচালিত অন্য কোম্পানিগুলোর আর্থিক লাভ-অলাভের খবর দেয়। সেখানে ভারত-শ্রীলংকার খবর থাকলেও বরাবর বাংলাদেশ থেকে যাচ্ছে উপেক্ষিত।

তবে সম্প্রতি শ্রীলংকার বাজার থেকে বেরিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দেয় এয়ারটেল। ওখানকার অপারেশন তারা ইত্তেসালাতের কাছে বিক্রি করে দেওয়ার পরিকল্পনা করছে বলে খবর বেরিয়েছে। আর তখনই শ্রীলংকা এবং বাংলাদেশের বাজার বিশ্লেষণ করতে গিয়ে দুই দেশের আর্থিক লাভের তথ্য বেরিয়ে আসে।

এর কিছুদিন আগে এয়ারটেল বাংলাদেশের ফাইন্যান্স বিভাগের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন তাদের করপূর্ব মুনাফা ইতিবাচক হয়েছে।

বাংলাদেশে ভালো করলেও বিশ্ববাজারে এয়ারটেলের অবস্থা দিনকে দিন খারাপ হচ্ছে। সম্প্রতি প্রকাশিত তৃতীয় প্রোন্তিকের (জুলাই-সেপ্টেম্বর) ওই প্রতিবেদনে দেখা গেছে টানা ১৫ প্রান্তিকে নিট মুনাফা কমেছে।

জি নিউজের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত বছরের একই সময়ের তুলনায় ২০১৩ সালে নিট মুনাফা ২৯ শতাংশের বেশি কমেছে। তবে লাভ কমলেও সব মিলে আয় বেড়েছে ৯ দশমিক ৯ শতাংশ।

এয়ারটেল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, মূলত ডলারের বিপরীতে ভারতীয় রূপির মূল্য মান কমে যাওয়ার কারণে রূপির অংকে আয় বাড়লেও ডলারের বিপরীতে লাভ কমে গেছে।

জুলাই-সেপ্টেম্বর প্রান্তিকে এয়ারটেল ২১ হাজার ৩২০ কোটি রূপি আয় করেছে। আর একই সময় শেষে তাদের মোট গ্রাহক দাঁড়িয়েছে ১৯ কোটি ৩৪ লাখ। এখানে প্রবৃদ্ধি হয়েছে ১ দশমিক ৩ শতাংশ।

*

*