গুগল প্লে স্টোরের পেইড অ্যাপ বিনামূল্যে ডাউনলোড

 টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : বেশ নিরবেই গুগল প্লে স্টোরে নতুন একটি সেকশন সংযুক্ত করা হয়েছে। ‘ফ্রি অ্যাপ অব দ্যা উইক’ নামে সেকশনটির সাহায্যে নিদিষ্ট পেইড অ্যাপ বিনামূল্যে ব্যবহারের সুযোগ পাবেন অ্যান্ড্রয়েড ওএস ব্যবহারকারীরা।

প্রতি সপ্তাহে এই সেকশনে যুক্ত হবে নতুন পেইড অ্যাপ্লিকেশন। যা বিনামূল্যে ডাউনলোডের সুবিধা দেও য়া হবে।

আপাতত শুধুমাত্র মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ব্যবহারকারীদের জন্য এই সেকশনটি চালু করা হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, ধারাবাহিকভাবে বিশ্বের অন্য দেশে থাকা অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীদের জন্যও উন্মুক্ত হবে এটি।

playstore-techshohor

বর্তমানে এই সেকশনের আওতায় ২.৯৯ মার্কিন ডলারের মূল্যের কার্ডওয়ার’স গেইমটি বিনামূল্যে ডাউনলোড সুবিধা পাচ্ছেন ব্যবহারকারীরা।

২০১৫ সালেও সীমিত সংখ্যাক পেইড অ্যাপ বিনামূল্যের ডাউনলোডের সুবিধা চালু করা হয়েছিল। কিন্তু সময়ের সাথে পাল্লা দিয়ে বন্ধ হয়ে যায় এই সুবিধাটি। এবার সেকশনটি সহজেই বন্ধ হবে না বলে মনে করা হচ্ছে। যদিও গুগল এই সম্পর্কে এখনো কিছু বলেনি।

playstore-techshohor

এই সেকশনের আওতায় পেইড অ্যাপ ডাউনলোড করতে গেলেই ‘ফ্রি’ লেখা চোখে পড়বে। পাশেই অ্যাপটির মূল্য কত ছিলো তাও উল্লেখ্য থাকবে। ফলে অ্যাপটি বিনামূল্যের ডাউনলোড কত ডলার বেঁচে গেলো তা ব্যবহারকারীরা বুঝতে পারেন।

পেইড অ্যাপ ফ্রিতে দেওয়ার নানা অফার ও ক্যাম্পেইন অ্যাপলের অ্যাপস্টোরে করা হয়ে থাকে। বিশেষ দিনগুলোতে অ্যাপস্টোরে সধারণত এমন অফার দেয়।

দ্য নেক্সট ওয়েব ও ম্যাশেবল অবলম্বনে তুসিন আহমেদ

আরও পড়ুন: 

৫ বছরে গুগল প্লে, ডাউনলোডে শীর্ষে যারা

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : টেক জায়ান্ট গুগল আরেক টেক জায়ান্ট অ্যাপলের আইওএসের অ্যাপস্টোর প্লাটফর্মের আদলে ২০১২ সালের মার্চে উম্মুক্ত করেছিল গুগল প্লে। অ্যাপের এই ডিজিটাল বাজার সম্প্রতি ৫ বছর পার করল। এ উপলক্ষ্যে প্রতিষ্ঠানটি ৫ বছর ধরে সবচেয়ে বেশি ডাউনলোড অ্যাপ, গেইম, গান ও বইয়ের তালিকা প্রকাশ করেছে।

গুগল এক ব্লগপোষ্টে জানায়, ৫ বছরের মধ্যে ১৯০টি দেশে ১ বিলিয়ন সক্রিয় ব্যবহারকারী প্লাটফর্মটি ব্যবহার করেছে। ২ দশমিক ৭ মিলিয়ন অ্যাপের পাশাপাশি গুগল প্লে’তে থাকা ৪০ মিলিয়ন গান, ৫ মিলিয়ন বইসহ চলচ্চিত্র, গেইম ব্যবহারকারী এবং ডেভেলপারদের গুরুত্বপূর্ণ একটি প্লাটফর্মে রুপ নিয়েছে।

play-store-techshohor

গুগলের সবচেয়ে বেশি ডাউনলোড গেইমের তালিকায় শীর্ষে রয়েছে ক্যান্ডি ক্র্যাশ সাগা। এরপর পর্যায়ক্রমে রয়েছে সাবওয়ে সাফারর্স, টেম্পল রান ২, ডিসপিক্যাবল মি এবং ক্ল্যাশ অব ক্ল্যান।

ফেইসবুক ও ফেইসবুক ম্যাসেঞ্জারের পাশাপাশি সেরা অ্যাপ্লিকেশনের তালিকায় রয়েছে পানডোরা রেডিও, ইনস্ট্রাগ্রাম ও স্ন্যাপচ্যাট।

সবচেয়ে বেশি বিক্রিত গানের তালিকায় রয়েছে এড শেরন থিংকিং আউট লাউড, লর্ডের রয়েলস, টেইলর সুইফটের ব্ল্যাংক স্পেস, মার্ক রনসেন এবং ফ্যারেল উইলিয়ামসের হ্যাপি গানটি।

চলচ্চিত্রের তালিকায় শীর্ষ স্থানে রয়েছে দ্য ইন্টারভিউ। এরপর ধারাবাহিকভাবে রয়েছে ফ্রোজেন, ডেডপুল, স্টার ওয়ারস, গার্ডিয়ান অব দ্য গ্যালাক্সি।

গুগল ব্লগ অবলম্বনে তুসিন আহমেদ

আরও পড়ুন: 

অ্যাপস স্টোরের শীর্ষে ভারত ও চীন

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : গত বছরে বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় দুই অ্যাপস স্টোর গুগল প্লে এবং অ্যাপলের আইওএস অ্যাপ স্টোর ব্যবহারের সর্বোচ্চ কৃতিত্ব রেখেছে এশিয়া। বিশ্লেষক প্রতিষ্ঠান অ্যাপ অ্যানি এই তথ্য জানিয়েছে।

২০১৬ সালে যুক্তরাষ্ট্র ও ব্রাজিলকে পিছনে ফেলে গুগল প্লে স্টোর থেকে অ্যাপ ডাউনলোডে শীর্ষে উঠেছে ভারত। এছাড়া আইওএস অ্যাপ স্টোরে বাণিজ্যিকভাবে প্রথমবারের মতো শীর্ষে রয়েছে চীন।

যদিও অ্যাপলের হিসাবের সাথে অ্যাপ অ্যানির এই হিসাব মিলছে না। অ্যাপলের মতো এর আগের বছর যুক্তরাষ্ট্র ও জাপানের পিছনে ছিলো চীন। অ্যাপল অবশ্য এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হয়নি।

Apps user-TechShohor

গুগলের পক্ষ থেকেও অ্যাপ অ্যানির এই হিসাবের বিষয়ে কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি। যদিও অ্যাপ অ্যানি তাদের প্রতিবেদন সম্পর্কে আত্মবিশ্বাসী বলে জানিয়েছে।

দুই জনবহুল দেশে দুটি অ্যাপ স্টোরের আলাদা জনপ্রিয়তা থাকার কারণও রয়েছে। কারণ চীনে গুগলের প্লে স্টোরের সেবা নেই। অপরদিকে ভারতের বাজারে আইওএসের তুলনায় অ্যান্ড্রয়েডের ব্যবহারকারী বহুগুন বেশি।

প্রতিযোগিতায় টিকতে ও ডেভেলপারদের সাথে মুনাফা বৃদ্ধির তাল মেলাতে গুগল ও অ্যাপল তাদের প্লাটফর্মে তৃতীয় পক্ষের ইন-অ্যাপ ফি ও সফটওয়্যারের মূল্য কমিয়েছে। ২০১৬ সালে উভয় অ্যাপ স্টোর থেকে সবমিলিয়ে নয় হাজার কোটিরও বেশিবার অ্যাপ ডাউনলোড হয়েছে।

বিবিসি অবলম্বনে রুদ্র মাহমুদ

অ্যান্ড্রয়েডে এলো সুপার মারিও রান

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : এক সময়ের জনপ্রিয় ভিডিও গেইম সুপার মারিও চলতি বছর স্মার্টফোন সংস্করণে এসে চমক তৈরি করেছে। মাত্র চার দিনে গেইমটি চার কোটি ডাউনলোডের রেকর্ড করে। এতদিন এটি শুধু অ্যাপলের আইওএস অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহারকারীরা এটি খেলতে পারতেন। সম্প্রতি অ্যান্ড্রয়েডের জন্য গুগল প্লেতে এসেছে গেইমটি।

গুগল প্লেতে গেইমটি পাওয়া গেলেও এখনি তা খেলা যাবে না। কেননা প্লেস্টোরে গেইমটি এখন নিবন্ধনের জন্য উন্মুক্ত করা হয়েছে। এরপর শিগগির ডাউনলোড করে খেলা যাবে। তবে নির্ধারিত তারিখ জানায়নি জাপানভিত্তিক ভিডিও গেইমস নির্মাতা প্রতিষ্ঠান নিনটেন্ডোর।

super-mario-run-techshohor

গুগল প্লেতে এ ঠিকানায় গিয়ে নিবন্ধন করে রাখা যাবে। এরপর গেইমটি যখন ডাউনলোডের জন্য উন্মুক্ত করা হবে, তখতন ডাউনলোড হবে ব্যবহারকারীদের ফোনে।

বিদায়ী বছরের সেপ্টেম্বরে অ্যাপলের গালা ইভেন্টে গেইমটি আনার ঘোষণা দেওয়া হয়।

স্মার্টফোনে এটার খেলার পদ্ধতি সহজ করা হয়েছে। টাচ করে সহজেই গেইমটি নিয়ন্ত্রণ করা যায়। দীর্ঘক্ষণ ট্যাপ করলে ‘হাই’ জাম্প দেবে মারিও।

সবচেয়ে মজাদার বিষয় হলো এটি মাল্টিপ্লেয়ারে খেলা যাবে। চাইলে কোনো বন্ধুর সঙ্গে একই সময় খেলা যাবে সুপার মারিও।

ফোন এরিনা অবলম্বনে তুসিন আহমেদ

বছরের জনপ্রিয় ১০ অ্যাপ

তুসিন আহমেদ, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : প্রযুক্তিময় আরেকটি বছর শেষের পথে। এ সময়ে প্রতিদিনই হাজার হাজার অ্যাপ যুক্ত হয়েছে বিভিন্ন প্লাটফর্মে। স্মার্ট ডিভাইসের পাশাপাশি ডেস্কটপেও এখন অ্যাপের ছড়াছড়ি। একই সঙ্গে পুরানো অ্যাপের জনপ্রিয়তা ধরে রাখতে নিমার্তা প্রতিষ্ঠানগুলোও সেগুলো সাজাচ্ছে নতুন রূপে।

চলতি বছর সেরা অ্যাপ্লিকেশনের একটি তালিকা প্রকাশ করেছে প্রযুক্তি বিষয়ক ওয়েবসাইট ম্যাশেবল ও গুগল।

টেকশহরডটকমের পাঠকদের জন্য সেই তালিকা থেকে জনপ্রিয় ১০ অ্যাপ্লিকেশনের কথা তুলে ধরা হলো।

এডোবি ফটোশপ ফিক্স
সহজে আকর্ষণীয়ভাবে ছবি সম্পাদনার জন্য এডোবির সফটওয়্যারগুলোর জুরি নেই। ফোনেও প্রয়োজনীয় ছবি সম্পাদনার জন্য জনপ্রিয় এ সফটওয়্যার প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠানটি ‘এডোবি ফটোশপ ফিক্স’ নামে  অ্যাপ তৈরি করেছে।

এর ফলে অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোন ব্যবহারকারীদের জন্য ছবি সম্পাদনা এখন হাতের মুঠোয়।

photoshop-fix-gallery-techshohor

অ্যাপটিতে রয়েছে রিটাচ ও রিস্টোর ফটোস টুলস, যা ছবিকে আরও সুন্দর করে তুলতে সাহায্য করবে। লেয়ার, কাট, ফিল্টার ইত্যাদি টুলসগুলো নতুন মাত্রা যোগ করেছে। ফলে পছন্দমত ছবিকে কেটে চাহিদা অনুযায়ী রঙয়ের ফিল্টার ব্যবহার করা যাবে।

ইন্টারনেট ছাড়াও অফলাইনে কাজ করবে এটি। তাই একবার ডাউনলোডের পর পুনরায় ইন্টারনেট সংযোগের প্রয়োজন নেই।

অ্যাপ্লিকেশনটি ইতোমধ্যে ১ লাখের বেশি ডাউনলোড হয়েছে। এ ঠিকানা থেকে ডাউনলোড করা যাবে।

অ্যাঙ্কর
অ্যাঙ্কক হলো পডকাস্ট বা অডিও নির্ভর স্যোসাল মিডিয়া মাধ্যম। সেখানে ব্যবহারকারীরা যে কোনো বিষয়ে এক বা দুই মিনিটের অডিও বার্তা রেকর্ড করে পাবলিশ করে।

চাইলে অডিও বার্তা যুক্ত করে একই বিষয় মতামতও জানাতে পারেন যে কোনো ব্যবহারকারী। অ্যাপ্লিকেশনটি গত বছর অক্টোবরে গুগল প্লেতে উন্মু্ক্ত করা হয়।

ভিন্নধর্মী এ স্যোসাল মিডিয়া ব্যবহারারীদের কাছে অল্প সময়ে বেশ সাড়া পাচ্ছে। ৫০ হাজারের মতো ব্যবহারকারী অ্যাপটি ব্যবহার করছেন।

এ ঠিকানা থেকে অ্যাপ্লিকেশনটি ডাউনলোড করা যাবে।

কাস্টবক্স
কাস্টবক্স একটি অডিও কনটেন্ট প্লাটফর্ম। এখানে অডিও বই, পডকাস্ট, অডিও গান, অডিও ব্লগ ইত্যাদি বিষয়গুলো সংরক্ষণ ও শেয়ার করা যায়।

এ প্লাটফর্মে রয়েছে তিন লাখের অধিক পডকাস্ট কনটেন্ট। এতে ৭০টির বেশি ভাষায় অডিও কনটেন্ট রয়েছে।

castbox-techshohor

এখান থেকে প্রয়োজনীয় কনটেন্ট এমথ্রি আকারে ডাউনলোড করা যায়।  গুগলের গ্লোবাল সেরা অ্যাপের লিস্টে কাস্টবক্সের স্থান তৃতীয়।

এটি ৫০ লাখের মতো ডাউনলোড হয়েছে। এ ঠিকানা থেকে অ্যাপটি ডাউনলোড করা যাবে।

ফেইস চেঞ্জার ২
নিজের বা বন্ধুদের ছবিকে মজার বা ফানি করে তুলে চান অনেকেই। কেউ চান চোখ বড় করতে, মাথায় শিং গজিয়ে দিতে কিংবা বকের মতো লম্বা নাক যুক্ত করতে। ছবিকে এরূপ মজাদার করে তোলার অ্যাপ্লিকেশন এটি।

এটির মাধ্যমে ছবিকে সহজে আরও মজাদার করে এডিট করা যায়। এর সাহায্যে গ্যালারি থেকে ছবি নিয়ে বা সরাসরি ছবি তুলে সম্পাদনা করা যাবে।

ছবিতে নাম, চোখ, চুলসহ নানা স্থানে মজাদার ইফেক্ট যোগ করা যাবে। চাইলে ছবিতে যে কোনো টেক্সটও সংযুক্ত করা যাবে। অ্যাপটির ইন্টারফেস বেশ সহজ ও সুন্দর এবং ইউইজারফেন্ডলি।

অ্যাপ্লিকেশনটি এ ঠিকানা থেকে ডাউনলোড করা যাবে। এটি এক কোটির বেশি বার ডাউনলোড হয়েছে।

msqrd-app-techshohor

এমএসকিউআরডি
এটির সাহায্যে ভিডিও ও ছবি তোলার  সময় মুখে বিভিন্ন চরিত্রের  মুখোশ পরে নেওয়া যাবে।

৪.৩ রেটিং প্রাপ্ত অ্যাপ্লিকেশনটি এক কোটির বেশি ডাউনলোড হয়েছে। গুগলের তালিকায় সেরা গ্লোবাল অ্যাপে ৫ নম্বরে রয়েছে এটি। 

এ ঠিকানা থেকে অ্যাপ্লিকেশনটি ডাউনলোড করা যাবে।  

ইমোজি  কিবোর্ড প্রো
ফোনের মাধ্যমে দ্রুত বার্তা আদান-প্রদানের অন্যতম মাধ্যম হলো ইমোজি। অনেকেই এখন রঙ-বেরঙয়ের ইমোজি ব্যবহার করছেন। এর মধ্যে বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছে এ অ্যাপ।

চলতি বছর গুগলের সেরা অ্যাপের র‍্যাংকিংয়ে চার নম্বরে রয়েছে অ্যাপটি। এ ঠিকানা থেকে ডাউনলোড করা যাবে।

গুগল অ্যালো
অন্য ম্যাসেজিং অ্যাপগুলোর সঙ্গে প্রতিযোগিতা করতে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার ব্যবহার করা হয়েছে গুগল অ্যালোতে। এ ম্যাসেজিং অ্যাপ বিল্ট ইন হিসেবে সার্চ ইঞ্জিনের সঙ্গেই যুক্ত করে দেওয়া হবে।

নানা ফিচারের দারুণ কাজের অ্যাপটি এ ঠিকানা থেকে ডাউনলোড করা যাবে।

google-duo-techshohor
গুগল ডুয়ো
ভিডিও কলিংয়ে উন্নত সেবা দিতে ডুয়ো নামে অ্যাপ্লিকেশন চলতি বছর উন্মুক্ত করেছিল গুগল। দারুণ কিছু ফিচারের কারণে খুব স্বল্পতম সময়ে এটি প্লে স্টোরের শীর্ষে স্থান করে নিয়েছে। জনপ্রিয়তাও পেতে শুরু করেছে।

অ্যাপটির মাধ্যমে ভিডিও কল করা যায় সহজেই। এ অ্যাপের চমৎকার ও মজাদার একটি ফিচার হলো ‘নক নক’। এ ফিচার ব্যবহার করে কোন ব্যক্তিকে ডুয়োর মাধ্যমে কল করা হলে তা রিসিভ করার আগেই ভিডিওতে দেখা যাবে ওই ব্যক্তিটি কি করছেন।

অ্যাপটি এই ঠিকানা থেকে ডাউনলোড করা যাবে।

অপেরা ফ্রি ভিপিএন
অ্যাপটি ব্যবহার করে ভিপিএন মোড চালু করার পর ব্যবহারকারী নিজের দেশ ও সার্ভার পরিবর্তন করে একটি ভার্চুয়াল লোকেশনের নাম দিতে পারবেন। এতে বিভিন্ন ওয়েবসাইটে ব্যবহারকারীর নিজস্ব সার্ভার লোকেশন না দেখিয়ে ভিপিএন সার্ভারের লোকেশন দেখাবে।

এটি সাইটের নিরাপত্তাকে আরও সুরক্ষিত করে। এ ঠিকানা থেকে অ্যাপটি ডাউইনলোড করা যাবে।

জিম্পি ক্যাম
এ অ্যাপ ব্যবহার করে ছবি সম্পাদনের পাশাপাশি শেয়ার করার সুবিধা সম্বলিত জিপ ছবি তৈরি করা যায়। এতে নানা ফিল্টারও রয়েছে।

অ্যাপ্লিকেশনটি এ ঠিকানা থেকে ডাউনলোড করা যাবে।