মাঠের বাইরে টুইটারেও রেকর্ড ক্রিকেট ঈশ্বরের

তুসিন আহমেদ, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : রেকর্ডের বরপুত্র তিনি। ক্রিকেটে এমন কোনো রেকর্ড নেই যেখানে তার নাম নেই। ক্রিকেটকে ধ্যান জ্ঞান মানা ছোটখাট গড়নের মানুষটি বিদায় জানালেন সেদিন। তবে এ বিদায়ের ক্ষণেও আরেকটি রেকর্ড গড়লেন তিনি। তবে এবার মাঠের বাইরে ভার্চুয়াল জগতে।

কার কথা বলা হচ্ছে তা নিশ্চয় বুঝে গেছেন সবাই। ক্রিকেট ঈশ্বর বলতে তো একজনের নামই ভেসে ওঠে মনের পর্দায়। তিনি ক্রিকেটের জীবন্ত কিংবদন্তী শচীন টেন্ডুলকার। মুম্বাই ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়াম থেকে সগৌরবে বিদায় নিলেও ভক্তদের মাঝে রয়ে গেছেন আগের মতো। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটার ও ফেইসবুকে ভক্তদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখার কথা জানিয়েছেন।

sachin twitter_techshohor

আর শেষ টেস্টে খেলতে নামার আগে শচীনের করা টুইট রেকর্ড তৈরি করেছে। ক্রিকেট মাঠের মতো এখানেও তার পায়ে লুটোপুটি খেয়েছে রেকর্ড। নিজের ২০০তম ও শেষ টেস্ট খেলতে নামার আগে শচীন ভক্তদের ধন্যবাদ জানিয়ে টুইটারে লেখেন, ‘I am really touched with #ThankYouSachin messages. Your support all these years have inspired me to give my best.’

টেলিগ্রাফ অনলাইনের খবরে বলা হয়েছে, শচীনের এ টুইট রেকর্ড তৈরি করেছে। ভারতে সবচেয়ে বেশি রিটুইটের রেকর্ড এটি। এটি ১০ হাজার ৬০০ বারের বেশি রিটুইট ও ছয় হাজারের বেশি ব্যবহারকারী তাদের প্রিয় টুইট হিসেবে চিহ্নিত করেছেন। টুইটার ইন্ডিয়াও রেকর্ডের এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

তবে আন্তর্জাতিক রেকর্ডটি ২০১২ সালে মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয়ী হওয়ার পর বারাক ওবামা যে টুইট করেছিলেন সেটি সাড়ে সাত লাখবারের বেশি রিটুইট হয়েছিল।

অন্যদিকে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই #থ্যাংকইউশচীন নামে একটি প্রচারণা শুরু করেছে এবং রোববার পর্যন্ত সেখানে ১৮ লাখের বেশি টুইট করা হয়েছে এ হ্যাশট্যাগ ব্যবহার করে।

সেঞ্চুরির সেঞ্চুরি, ৩৪ হাজারের বেশি রানসহ অসংখ্য কীর্তির অধিকারী শচীন ২০১০ সালে টুইটারে যোগ দেওয়ার সময়ও মাত্র ২০ ঘণ্টায় ৮৫ হাজার ফলোয়ারের রেকর্ডও করেছিলেন। টুইটারে তার প্রায় ৪০ লাখের কাছাকাছি অনুসারী রয়েছে ।

টুইটারের মতো ফেইসবুকেও বেশ জনপ্রিয় শচীন। তার ফেইসবুক পাতায় ভক্তের সংখ্যা ১ কোটি ২০ লাখের কাছাকাছি। বলা বাহুল্য প্রতিনিয়ত এ সংখ্যা শুধু বাড়ছে৷

ক্রিকেট পিচ থেকে বিদায় নিলেও ফেইসবুক ও টুইটার থেকে বিদায় নিচ্ছেন না শচীন। এ দুটি মাধ্যমে সরব থাকার কথা জানিয়েছেন লিটল মাস্টার। ভক্তরা তাঁকে আগের মতোই পাবেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

ফেইসবুক পেইজে শচীন ভক্তদের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখছেন৷ যেমন গত বুধবার এক পোস্টে ভক্তদের উদ্দেশ্যে তিনি লিখেছেন, ‘এখন তুমি আমার সঙ্গে সরাসরি কথা বলতে পারো, ক্লিক করো এখানে – (একটি লিংক)৷’

sachin test debut nov 15 1989

শুধু শচীনের টুইটে রিটুইট করা নয়, সব পেশা ও শ্রেণীর ব্যক্তিরা এ গ্রেটের বিদায়ে তাদের আবেগঘন মুহূর্তের অনুভূতি প্রকাশ করেছেন টুইটারে।।এ অনুভূতি প্রকাশের তালিকায় রয়েছে অনেক বিখ্যাত ব্যক্তিরা, যাদের খবুই প্রিয় ছিলেন মাস্টার ব্লাস্টার।

টেনিস খেলোয়াড় রজার ফেদেরার বলেন, ‘এক অসাধারণ ক্যারিয়ার শচীনের। সামনে এগিয়ে চলার জন্য রইল শুভ কামনা’
ক্রিস গেইল জানান, ‘একেবারে একটি ইতিহাসের অংশ শচীন টেন্ডুলকারের ২০০তম টেষ্ট ম্যাচ।’

ব্রেট লি লিখেছেন, ‘অভিনন্দন শচীন টেন্ডুলকার। আপনার ক্যারিয়ারের সকল অর্জনই সেরা, এটি একটি বিস্ময়ময় ক্যারিয়ার।’

টেনিস তারকা সানিয়া মির্জার ভাষায়, ‘পুরো দেশ আবেগময়, আমরা মিস করব শচীনকে।’

সহ ক্রিকেটার ইফরান পাঠান বলেছেন, ‘ক্রিকেট বিশ্বে শচীনের বিদায় খুব আবেগঘন। কিন্তু শচীন আমাদের হৃদয় থেকে বিদায় নেয়নি।’

বীরেন্দ্র শেবাগ বলেন, ‘শচীনের বিদায় ঘোষণা শোনার পর আমি খুব আবেগাক্রান্ত হয়ে পড়ি। আমার জন্য শচীন কি ছিল তা আমি ব্যক্ত করতে পারব না। এটি একান্ত ব্যক্তিগত।’

হরভজন সিং টুইট করেন, ‘অভিনন্দন ক্রিকেট মাস্টার শচীনকে। এটি ছাড়া আমার কাছে দেওয়ার মত কিছু নেই।’

ম্যাথু হেইডেনের টুইট, ‘শুভ বিদায় ও শুভ কামনা’।

আর এক সময়ের তুখোড় প্রতিদ্বন্দ্বী শের্ন ওয়ানের টুইট, ‘#Sachin was the best batsmen I’ve seen. @BrianLara second & outstanding too. These 2 were so much better than everybody else….’4:31 PM – 14 Nov 2013

Related posts

Comments are closed.

Top