Maintance

অনলাইন পেমেন্ট সিস্টেমের নিরাপত্তায় এগিয়ে বাংলাদেশ

প্রকাশঃ ৪:৪৮ অপরাহ্ন, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১৬ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ৪:৪৮ অপরাহ্ন, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১৬

সাইবার নিরাপত্তা সচেতনতায় ব্যাংকগুলোর সঙ্গে কাজ করে সিটিও ফোরাম বাংলাদেশ  দেশের অনলাইন পেমেন্ট সিস্টেমের গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়ে কথা বলেছেন সিটিও ফোরাম সভাপতি তপন কান্তি সরকার সাক্ষাতকার নিয়েছেন ইমরান হোসেন মিলন

টেকশহর : দেশে পেমেন্ট সিস্টেমের বর্তমান নিরাপত্তা ব্যবস্থা কেমন ?

তপন কান্তি সরকার : ভালো। খুব ভালো। কারণ বৈশ্বিক পরিসর বিবেচনা করলে বাংলাদেশের পেমেন্ট গেটওয়ে সিস্টেমের নিরাপত্তা খুবই ভালো। দেখেন দুদিন আগেই খবর বেরিয়েছে ইয়াহুর মতো বড় প্রতিষ্ঠানের তথ্য হ্যাক হয়েছে। যেখানে কোটি কোটি গ্রাহককের তথ্য হাতিয়ে নিয়েছে। বাংলাদেশের ক্ষেত্রে এমন কোনো ঘটনা কিন্তু নেই।

টেকশহর  :  অনলাইনে বা কার্ডে কী পরিমাণ লেনদেন হয় এর কোনো পরিসংখ্যার আপনাদের আছে কী?

তপন কান্তি সরকার : আমরা সিটিও ফোরাম থেকে ব্যাংকগুলোর সঙ্গে যোগাযোগ করে একটি ডেটা নিয়েছি। সেই ডেটা হিসাব মতে, দেশে প্রায় ৫৬টি ব্যাংক ও ৩৫টি আর্থিক প্রতিষ্ঠান আছে।

বিগত কয়েক বছরে বাংলাদেশ ব্যাংক আরটিজিএস, বিএফটিএন, ইএফটি, ন্যাশনাল পেমেন্ট সুইচসহ অনেকগুলো প্রযুক্তিনির্ভর সেবা চালু করেছে। আর এতে করে ই-সিস্টেমে অর্থ লেনদেন হচ্ছে। বর্তমানে ইএফটির মাধ্যমে প্রতি মাসে প্রায় ৮ লাখ লেনদেন হয়, টাকার অংকে যা প্রায় পাঁচ হাজার ৭৮০ কোটি টাকার বেশি।

আমাদের দেশে আরটিজিএস (রিয়েল টাইম গ্রস সেটেলমেন্ট) চালু হয়েছে ২৯ অক্টোবর ২০১৫ সালে। এর মাধ্যমে এক ব্যাংকের চেক অন্য ব্যাংকে সঙ্গে সঙ্গে ক্লিয়ার হচ্ছে। যা আগে দুই থেকে তিন দিন সময় লাগত। বর্তমানে বিভিন্ন ব্যাংকের প্রায় ৯০০০ শাখার মধ্যে প্রায় ৫৫০০ শাখারও বেশি এই সিস্টেমের মধ্যে এসে গেছে।

আর ৭২০০টি এটিএম বুথের মাধ্যমে দৈনিক প্রায় চার লাখ বারের মতো লেনদেন হয় যা টাকার অংকে প্রায় ২৮০ কোটি টাকাও বেশি। বর্তমানে পিওএস মেশিন আছে প্রায় ৩২ হাজার যার মধ্যে প্রায় ১৬ হাজার ন্যাশনাল পেমেন্ট সুইসের সঙ্গে যুক্ত। পিওএস এর মাধ্যমে দৈনিক প্রায় ৩৬ হাজারের বেশি লেনদেন হয় প্রায় ৩০ কোটি টাকার মতো।

আশির দশকের শেষ দিকে দেশে প্রথম কার্ডের প্রচলন হয়। আর ক্রেডিট কার্ডের প্রচলন শুরু হয়েছে ১৯৯৭ সালে। বর্তমানে বাংলাদেশে ডেবিট কার্ডের সংখ্যা প্রায় ৮৫ লাখ এবং কার্ডের মাধ্যমে দৈনিক প্রায় ৩ লাখ ৮০ হাজার বারের বেশি লেনদেনে ৩০০ কোটি টাকার বেশি লেনদেন হচ্ছে।

Tapan-cto-techshohor

টেকশহর : সিটিও ফোরাম সাইবার নিরাপত্তা নিয়ে কী ধরনের কাজ করছে এখন?

তপন কান্তি সরকার : সিটিও ফোরাম অনেকদিন থেকেই সাইবার নিরাপত্তা বিশেষ করে ব্যাংকিং খাতে সাইবার হামলা বিষযে সচেতনতা তৈরিতে কাজ করছে। এর অংশ হিসেবে বিভিন্ন সভা সেমিনার করা, ব্যাংকগুলোকে এ সম্পর্কে তাগাদা দেওয়ার কাজ করে চলেছে। যা অব্যাহত থাকবে।

টেকশহর : ধন্যবাদ আপনাকে।

তপন কান্তি সরকার : টেকশহরকেও ধন্যবাদ।

*

*

Related posts/