বাসায় ব্যবহার উপযোগী প্রিন্টার ক্যানন পিক্সমা এমজি৭১২০

শাহরিয়ার হৃদয়, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : বাসায় ব্যবহারের জন্য চমৎকার একটি মাল্টিফাংশন প্রিন্টার ক্যানন পিক্সমা এমজি৭১২০ বিকে ওয়্যারলেস। ভালো আউটপুট, দ্রুতগতির প্রিন্টিংসহ বেশ কিছু বেসিক সুবিধা এ ইঙ্কজেট প্রিন্টার থেকে পাওয়া যাবে।

মাল্টিফাংশন হওয়ায় এটি দিয়ে প্রিন্ট, কপি বা স্ক্যান করা যায়। প্রিন্ট প্রিভিউ দেখার জন্য রয়েছে ৩.৫ ইঞ্চির এলসিডি টাচস্ক্রিন। এর বিল্ট-ইন মেমোরি কার্ড রিডারে কার্ড ভরে সরাসরি স্ক্যান বা প্রিন্ট করার সুবিধাও রয়েছে।

গ্লসি ব্ল্যাক রঙের প্রিন্টারটি দেখতে একইসঙ্গে আকর্ষণীয় ও টেবিলে সহজে বসানোর যোগ্য। ওজন ১৮.১ পাউন্ড। ১২৫ শিটের মূল পেপার ট্রের পাশাপাশি রয়েছে ফটো ট্রে। কাগজের দু’পাশেই একসঙ্গে প্রিন্টের জন্য আছে অটোমেটিক ডুপ্লেক্সার। এর ভেতর ছয়টি ইঙ্কট্যাঙ্ক রয়েছে- পিগমেন্ট ব্ল্যাক, ইয়েলো, সায়ান, ডাই ব্ল্যাক ও গ্রে। এটি প্রতি মিনিটে ২.৫টি পেজ প্রিন্ট করতে সক্ষম।

canon pixma 7120

এয়ারপ্রিন্ট সাপোর্টেড হওয়ায় এতে সরাসরি অনলাইন থেকে ফটো কিংবা ডকুমেন্ট প্রিন্ট করা যাবে। গুগলে ক্লাউড প্রিন্ট সুবিধার ফলে যে কোনো কম্পিউটার বা ফোন থেকে প্রিন্টারে ফাইল পাঠানো যাবে। এ ছাড়া সরাসরি যে কোনো স্মার্ট ডিভাইস থেকে প্রিন্ট করার সুবিধা তো আছেই। ক্লাউড সুবিধাকে পরিপূর্ণতা দিতে ইউএসবির পাশাপাশি রয়েছে ওয়াইফাই কানেক্টিভিটি।

সাধারণ ইঙ্কজেটের চেয়েও ভালো আউটপুট পাবেন প্রিন্টারটি থেকে- টেক্সট এবং ফটো উভয় ক্ষেত্রেই। কালার প্রিন্টিংয়ের ক্ষেত্রে রঙগুলো মোটামুটি নিখুঁত আসবে। তবে অত্যন্ত উচ্চমানের প্রিন্ট হলে কখনও কখনও বিচ্ছিন্ন লাইন দেখা যেতে পারে।

যদিও এর চেয়ে কিছুটা অ্যাডভান্সড এমএক্স৯২২ মডেলে আরও কিছু অতিরিক্ত ফিচার রয়েছে; কিন্তু বেশিরভাগ ইউজারই এ মডেলটি নিয়ে সন্তুষ্ট থাকতে পারবেন। এর বর্তমান দাম ১৯৯ ডলার।

এক নজরে ভালো

 

–     চমৎকার আউটপুট কোয়ালিটি

–     আকার সুবিধাজনক

এক নজরে খারাপ

 

–     হোম ইউজের জন্য ভালো হলেও অফিসিয়াল কাজে উপযোগী নয়

Related posts

*

*

Top