মাল্টিমিডিয়া ক্লাসরুমের সফলতা যাচাই করছে সরকার

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : ক্লাসরুমে মাল্টিমিডিয়া কার্যক্রমের সফলতা যাচাইয়ে পর্যবেক্ষণ কার্যক্রম শুরু করেছে সরকার। দেশের হাজার হাজার স্কুলে চালু করা মাল্টিমিডিয়া ক্লাসরুমের কাজ কেমন চলছে বা চলছে কিনা এবং তার অগ্রগতি কি এবার তা পর্যবেক্ষণ করা হবে।

সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। এসময় মাঠপর্যায়ের কর্মকর্তাদের নিয়ে ভিডিও কনফারেন্সিংয়ে কিশোরগঞ্জ থেকে জেলা প্রশাসক এস এম আলম এবং ময়মনসিংহ শিক্ষা অঞ্চলের আঞ্চলিক উপ-পরিচালক মো. ফজলুল হক অংশ নেন।

multimedia-classroom-TechShohor

এছাড়া এই পর্যবেক্ষণ ও পরীবিক্ষণ কার্যক্রম কিভাবে এগিয়ে যাচ্ছে তা পর্যালোচনা করার জন্য ফোকাস গ্রুপ ডিসকাশন (এফজিডি) করা হবে। প্রথম পর্যায়ে সাতটি বিভাগের পিছিয়ে পড়া ৭টি জেলার সঙ্গে এই এফজিডি করা হবে। এর ফলাফলের উপর করণীয় সিদ্ধান্ত গৃহীত হবে। প্রথম এফজিডি কিশোরগঞ্জ জেলায় শুরু হয়ে পরবর্তী সাত দিনের মধ্যে সাতটি বিভাগে তা বাস্তবায়িত হবে।

একসেস টু ইনফরমেশন (এটুআই) প্রোগামের আওতায় শিক্ষা মন্ত্রণালয় সারাদেশে ২০ হাজার ৫০০টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও মাদ্রাসায় মাল্টিমিডিয়া ক্লাসরুম স্থাপন করে। শ্রেণী পরিচালনা ও ডিজিটাল কনটেন্ট প্রস্তুতের জন্য প্রায় ৩০ হাজার শিক্ষককে প্রশিক্ষণও দেওয়া হয়। এর বাইরেও বিদ্যুৎ সংযোগ আছে এমন ৩ হাজার ৫০০ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মাল্টিমিডিয়া ক্লাসরুম স্থাপিত হচ্ছে।

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের মহাপরিচালক (প্রশাসন) এবং এটুআই প্রোগ্রামের প্রকল্প পরিচালক কবির বিন আনোয়ারের সভাপতিত্বে পর্যবেক্ষণ কার্যক্রম উদ্বোধন অনুষ্ঠানে অন্যানের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব কাজী আখতার হোসেন, অতিরিক্ত সচিব এস এম আশরাফুল ইসলাম এবং মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতরের পরিচালক (পরিকল্পনা ও উন্নয়ন) প্রফেসর ড. মো. সিরাজুল ইসলাম।

অনুষ্ঠানে বক্তারা জানান, ব্যাপক পরিসরে এই মাল্টিমিডিয়া কার্যক্রম এবং তা পরিচালনায় প্রশিক্ষকদের প্রশিক্ষণলব্ধ জ্ঞানের প্রয়োগিক দিক পর্যালোচনার জন্য মেন্টরিং এবং সার্বিক কার্যক্রম পরীবিক্ষণ করা প্রয়োজন।

– আল আমীন দেওয়ান

Related posts

*

*

Top