Maintance

বাংলাদেশে অফিস খোলা নিয়ে ভাবছে গুগল

প্রকাশঃ ৬:১৬ অপরাহ্ন, নভেম্বর ৩০, ২০১৭ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ১২:০০ অপরাহ্ন, ডিসেম্বর ১, ২০১৭

তুসিন আহমেদ, টেক শহর কন্টেন্ট কাউন্সিলর : সময়ের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাংলাদেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। তাই বাংলাদেশে কার্যক্রম বাড়াতে কাজ করছে গুগল।

ইতোমধ্যে ইন্টারনেট জায়ান্ট প্রতিষ্ঠানটি বাংলাদেশে অফিস করার বিষয়ে চিন্তা ভাবনা করছে।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর একটি হোটেলে ডাটালি অ্যাপের উন্মোচন উপলক্ষ‍ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এই তথ্য জানান গুগলের এশিয়া প্যাসেফিকের ইন্ডাস্ট্রি হেড গোলাম কিবরিয়া।

তিনি বলেন, ইতোমধ্যে এদেশে গুগল বাস, বাংলায় গুগল অ্যাডসেন্স, বাংলাদেশ থেকে প্লেস্টোরে অ্যাপ বিক্রি ও গুগল স্ট্রিট ভিউসহ অনেক সুবিধা চালু করেছে। গুগল চায় বাংলাদেশের ব্যবহারকারীরা যেন আরও সহজে ইন্টারনেট  ব্যবহার করতে পারেন। গুগল বাংলাদেশে আইসিটি ইকোসিস্টেম ডেভেলপমেন্ট নিয়েও কাজ করছে।

বাংলাদেশে গুগলের অফিস নেই। কবে নাগাদ দেশে গুগলের অফিস করা হতে পারে এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আগামী তিন বছরের মধ‍্যে দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৯ কোটি ছাড়িয়ে যাবে। দেশের এই বিপুল সংখ্যক ইন্টারনেট ব্যবহারকারীকে নিয়ে ভাবছে গুগল। সেই ভাবনা থেকে গুগল কর্তৃপক্ষ বাংলাদেশে অফিস করার কথা চিন্তা করছে।

তবে কবে নাগাদ গুগলের অফিস বাংলাদেশে খোলা হবে সে সম্পর্কে নির্দিষ্ট কোনো তথ্য দেননি তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে ব্যবহারকারীদের ইন্টারনেট ডাটার খরচের পরিমাণ জানাতে ‘ডাটালি’ নামে নতুন একটি অ্যাপ সম্পর্কে বিভিন্ন তথ্য তুলে ধরেন গুগল কর্মকর্তারা।

গুগলের কান্ট্রি মার্কেটিং কনসালটেন্ট হাসমী রাফসানজানি বলেন, যেসব দেশে ইন্টারনেটের মূল্য বেশি সেসব দেশের মোবাইল ব্যবহারকারীরা নতুন উন্মোচন হওয়া ডাটালি অ্যাপ ব্যবহারের মাধ্যমে উপকৃত হবেন। ভবিষ্যতে বাংলাদেশে গুগল আর‌ও অনেক সেবা নিয়ে কাজ করবে।

ডাটালির মাধ‍্যমে ফোনে থাকা অ্যাপগুলোর ডাটা মনিটর করা যাবে। কোন অ্যাপ কতটুকু ডাটা ব্যয় করছে তাও জানা যাবে। ফলে ব্যবহারকারীরা অনাকাঙ্ক্ষিতভাবে ডাটা শেষ হওয়ার ঝামেলা থেকে মুক্তি পাবেন। এই ঠিকানা থেকে অ্যাপটি ডাউনলোড করে  ব্যবহার করা যাবে।

*

*

Related posts/