Maintance

একসঙ্গে প্রসেসর বানাচ্ছে ইন্টেল ও এএমডি

প্রকাশঃ ১২:৫০ অপরাহ্ন, নভেম্বর ৭, ২০১৭ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ৪:২৮ অপরাহ্ন, নভেম্বর ৭, ২০১৭

টেক শহর কন্টেন্ট কাউন্সিলর : কম্পিউটার প্রসেসর বাজারে ইন্টেল ও এএমডির আধিপত্য অনেক দিনের।

এটিকে আরও পোক্ত করতে এবার এ দুই প্রতিদ্বন্দ্বী নির্মাতা একত্রে কাজ করে এনভিডিয়াকে রুখতে নেমেছে। ১৯৮০-এর দশকের পর এবারই প্রথম ইন্টেল ও এএমডি একসঙ্গে কাজ করছে।

অবাক করা এমন ঘোষণাই এসে এ দুই চিপ নির্মাতার পক্ষ থেকে। নতুন এ পদক্ষেপের আওতায় ইন্টেল প্রসেসরের গ্রাফিক্স চিপ হিসেবে এএমডি ভেগা জিপিউ ব্যবহার করা হবে।

কোর এইচ সিরিজের এ প্রসেসরের মাঝে সিপিউ, জিপিউ ও গ্রাফিক্স প্রসেসরের জন্য এইচবিএম২ ভির‌্যাম থাকায় মাদারবোর্ডে ৩ বর্গ ইঞ্চি যায়গার প্রয়োজন কমে যাবে। এতে জিপিউর জন্য আলাদা জায়গার প্রয়োজন থাকছে না।

ল্যাপটপ ও আল্ট‌্রা পোর্টেবল কম্পিউটারের গ্রাফিক্স চিপের বাজারটি বিগত কয়েক বছর ধরেই একচ্ছত্রভাবে এনভিডিয়ার দখলে। তাদের প্যাসকাল গ্রাফিক্স চিপগুলো অনেক বেশি ব্যাটারি সাশ্রয়ী। সরাসরি ডেস্কটপের জন্য তৈরি চিপগুলো ল্যাপটপে ব্যবহার হচ্ছে।

তবে এএমডিও পিছিয়ে নেই। ভেগা সিরিজের চিপগুলোর পারফরমেন্স ও শক্তি সাশ্রয় গেমিং ল্যাপটপে ব্যবহারের উপযোগী। বাজারে স্থান করে নিতে হলে অবশ্য শুধু এনভিডিয়ার সমান জিপিউ তৈরি করলেই হবে না, ল্যাপটপ নির্মাতাদের জন্য আরও বেশি কিছু সুবিধা দিতে হবে। আর এ জন্যই ইন্টেলের সঙ্গে তাদের চুক্তি।

ইন্টেল ও এএমডির দাবি এ প্রসেসর ছোট গেমিং ল্যাপটপ, ডেস্কটপ ও ট্যাবলেটের জন্য তৈরি।

নতুন এ কোর এইচ প্রসেসর অবশ্য এএমডির নিজস্ব রাইজেন মোবাইল সিরিজের সঙ্গে প্রতিযোগীতা করবে না। কেননা সেটি গেমিংয়ের জন্য তৈরি করা হয়নি।

২০১৮ সালের প্রথম দিকে কোর এইচ সিরিজের প্রসেসর সমৃদ্ধ ডিভাইস বাজারে আসার কথা রয়েছে।

দ্য ভার্জ অবলম্বনে এস এম তাহমিদ

*

*

Related posts/