Maintance

ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারদের নতুন নতুন কর্মসংস্থান তৈরি হবে : পলক

প্রকাশঃ ১০:১০ অপরাহ্ন, নভেম্বর ৬, ২০১৭ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ১০:১২ অপরাহ্ন, নভেম্বর ৬, ২০১৭

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : দেশে ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারদের জন্য বিভিন্ন সেক্টরে নতুন করে আরও কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

এছাড়া তাদের দাবি-দাওয়াগুলো প্রধানমন্ত্রীর তথ্যপ্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়ের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর কাছে উপস্থাপন করে তা পূরণ করার আশ্বাস দেন পলক। এর পাশাপাশি আইডিইবিতে একটি বিশেষায়িত ল্যাব প্রতিষ্ঠার আশ্বাস দেন তিনি।

সোমবার ইন্সটিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স বাংলাদেশের ৪৭তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত একটি সেমিনারের প্রধান অতিথি থেকে এসব কথা বলেন তিনি।

ফাইল ছবি

প্রধান অতিথির বক্তব্যে তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, ইঞ্জিনিয়াররা কখন রাস্তায় নামে, যখন তাদের দাবি-দাওয়া থাকলে। তবে গত ৪৭ বছরে আইডিইবি প্রতিষ্ঠার পর থেকে আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে কখনো নামতে হয়নি। কারণ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সবসময় ইঞ্জিনিযারদের প্রতি সর্তক দৃষ্টি রেখে তাদের দাবিগুলো মেটাতে কাজ করেছেন।

তিনি বলেন, ইঞ্জিনিয়ারদের ছাড়া আমরা কখনোই ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়তে পারতাম না। আমরা ২০২১ সালের মধ্যে আমরা শতভাগ ইন্টারনেট নিশ্চিত করতে কাজ করছি।

পলক বলেন, ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারদের জন্য আমরা কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি করে যাচ্ছি। এজন্য দেশের প্রায় ৫ লাখ ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারের জন্য বিভিন্ন সেক্টরে সুযোগ তৈরি হবে। তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগ থেকে যে ফোর টেয়ার ডাটা সেন্টার করা হচ্ছে সেখানেও তাদের কর্মসংস্থান তৈরির জন্য আমরা কার্যক্রম গ্রহণ করতে পারি। সেজন্য আমরা ইতোমধ্যেই কথা বলা শুরু করেছি। এজন্য জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের বিশেষ দৃষ্টি আর্কষণ করার কথা জানান।

সোমবার দিনব্যাপী নানা কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে পালন করা হয় এই বর্ষপূর্তী অনুষ্ঠান।

বিকেলে ‘টু বিল্ড সিকিউর আইসিটি ফর এসডিজি : রোল অব মিড লেবেল ইঞ্জিনিয়ার্স’ শিরোনামে সেমিনারে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের এটুআই প্রকল্পের পরিচালক আনীর চৌধুরী মূখ্য আলোচক ছিলেন।

এছাড়াও এটুআইয়ের আইসিটি ম্যানেজার মোহাম্মদ আরফি এলাহী, আইডিইবি আইসিটি সেলের উপদেষ্টা ড. মো. শাহআলম মজুমদার এবং সদস্য সচিব জুবায়ের আল মাহমুদ হোসেন কিনোট পেপার উপস্থাপন করেন।

সেমিনারে সরকারের আইসিটি মন্ত্রণালয়ের উর্দ্ধতন কর্মকর্তা, এটুআই প্রকল্পের কর্মকর্তা, আইডিইবি আইসিটি সেলের কর্মকর্তাসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

ইমরান হোসেন মিলন

 

৬ টি মতামত

  1. Al Naiem said:

    সবথেকে বেশি জরুরী ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারদের জন্য সরকারি ভার্সিটিতে এডমিশনের সুযোগ করে দেওয়া।

  2. Mustafa Karim said:

    ডিপ্লোমা-ইন-ইলেকট্রনিক্স এর ভাল কোন গভমেন্ট জব খুবই প্রয়োজন।কোন প্রকার ঘুষ দূর্নীতি ছাড়া।

  3. Naimur Rahman said:

    সবথেকে বেশি জরুরী ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারদের জন্য সরকারি ভার্সিটিতে এডমিশনের সুযোগ করে দেওয়া।

  4. Mehedi Hossain said:

    Environmental Engineer der kew chinei na,Sorkar er kase dabi ektai jeheto sub chalo hoyese seheto etake porichito na korle kono Environmental Engineer job pabe na.Ami onorodh korbo protiti sarcular e ekti kore pod hoileo jeno amader sujog kore dewa hoy.Thanks

*

*

Related posts/