রেকর্ড বার্তার পরদিনই বিপত্তিতে হোয়াটসঅ্যাপ

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : রেকর্ড পরিমান মেসেজ আদান প্রদানের পরদিনই দুর্ভোগে পড়েছেন হোয়াটসঅ্যাপ ব্যবহারকারীরা। আগের দিনের ৬৪ বিলিয়ন মেসেজ আদান প্রদানের ঝক্কি সামলাতে পারেনি অ্যাপটি।

এর রেশ পাওয়া গেছে বৃহস্পতিবার সকালে। অনেক ব্যবহারকারী সময়মতো বার্তা আদান প্রদান করতে পারছেন না। একের জনের মেসেজ অন্য জনের কাছে পৌঁছাচ্ছে দেরিতে।

সবচেয়ে বেশি ঝামেলায় পড়েছেন আইফোন ব্যবহারকারীরা। তারা এ অ্যাপের মাধ্যমে মেসেজ যেমন পাঠাতে পারছেন না তেমনি কয়েক মিনিট চেষ্টা করেও ইন্টারনেট সংযোগ পাচ্ছেন না। অ্যান্ড্রযেড ও উইন্ডোজ ফোন ব্যবহারকারীরাও একই সমস্যায় পড়ছেন।

WhatsApp_techshohor

মোবাইল মেসেজিংয়ের ক্ষেত্রে হোয়াটসঅ্যাপের জনপ্রিয়তা নতুন করে প্রমাণিত হয় মঙ্গলবার। এ দিন ২৪ ঘন্টায় ছয় হাজার ৪০০ কোটি মেসেজ আদান-প্রদানের নতুন রেকর্ড তৈরি হয়। তবে এর ঝক্কি পরদিন সামলাতে পারেনি সম্প্রতি ফেইসবুকের অধিগ্রহণের যাওয়া অ্যাপটি।

মঙ্গলবার ৪৬ কোটি পাঁচ লাখ ব্যবহারকারী হোয়াটসঅ্যাপে দুই হাজার কোটি বার্তা পাঠিয়েছেন এবং চার হাজার ৪০০ কোটি বার্তা বার্তা গ্রহণ করেছেন। বিশাল পরিমা বার্তা আদান প্রদান প্রমান করে হোয়াটসঅ্যাপ কিনে ভুল করেনি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুক।

কয়েক মাস আগে ১৯ বিলিয়ন ডলারের বিনিময়ে হোয়াটসঅ্যাপ কিনে নেয়।

এর আগে জানুয়ারি মাসে পাঁচ হাজার কোটি বার্তা আদান প্রদান রেকর্ড গড়েছিল হোয়াটসঅ্যাপ। আইওএস, অ্যান্ড্রয়েড, ব্ল্যাকবেরি, উইন্ডোজ ও নকিয়ায় ব্যবহার করা যায় এ অ্যাপ। ফলে, মুঠোফোনে ব্যবহার করা যায় এমন বার্তা আদান-প্রদানের অ্যাপের মধ্যে শীর্ষে আছে এটি।

ফেইসবুকের ম্যাসেঞ্জার অ্যাপের চেয়ে বেশি জনপ্রিয় হোয়াটসঅ্যাপ। যুক্তরাষ্ট্র, ব্রাজিল, দক্ষিণ আফ্রিকা, ইন্দোনেশিয়া এবং চীনের চার হাজার স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর ওপর জরিপ চালিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে মোবাইল বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান ‘অন ডিভাইস’।

জরিপে দেখা গেছে, প্রায় ৪৪ শতাংশ ব্যক্তি ‘হোয়াটসঅ্যাপ’ মেসেজিং অ্যাপ ব্যবহার করে। অন্যদিকে ফেইসবুকের ম্যাসেঞ্জার ব্যবহার করে ৩৫ শতাংশ ব্যক্তি।

টাইমস অব ইন্ডিয়া অবলম্বনে তুসিন আহমেদ

Related posts

*

*

Top